শনিবার ১৯ আষাঢ় ১৪২৭, ০৪ জুলাই ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

করোনায় আরও ৩৯ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ৩৫৩১

করোনায় আরও ৩৯ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ৩৫৩১
  • শনাক্তের হার ২৩ শতাংশ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ৩৯ জনের মৃত্যু এবং ৩৫৩১ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে এ পর্যন্ত মোট মৃতের সংখ্যা ১ হাজার ৪৬৪ জনে এবং মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ১ লাখ ১২ হাজার ৩০৬ জনে। ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হওয়া ১ হাজার ৮৪ জনসহ এখন পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন মোট ৪৪ হাজার ৭৯৭ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ১৫ হাজার ৫৮৫টিসহ এ পর্যন্ত মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৬ লাখ ১২ হাজার ১৬৪টি। পরীক্ষিত নমুনা সংখ্যার বিবেচনায় গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন রোগী শনাক্তের হার ২৩ শতাংশ।

রবিবার দুপুরে কোভিড-১৯ সম্পর্কিত সার্বিক পরিস্থিতি জানাতে স্বাস্থ্য অধিদফতর আয়োজিত নিয়মিত ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক নাসিমা সুলতানা। তিনি বলেন, গত ২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়া ৩৯ জনের মধ্যে ৩৫ পুরুষ এবং চার নারী। বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে একজন, ৭১ থেকে ৮০ বছরের মধ্যে দুই জন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে চার জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে ১২ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ১২ জন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে ছয় জন, ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে একজন, শূন্য থেকে ১০ বছরের মধ্যে একজন। এদের মধ্যে হাসপাতালে মারা গেছেন ৩৩ জন এবং বাসায় মারা গেছেন ছয় জন। অঞ্চল বিবেচনায় মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে ঢাকা বিভাগে ১৬ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ১১ জন, রাজশাহী বিভাগে দুই জন, খুলনা বিভাগে চার জন, সিলেট বিভাগে একজন, রংপুর বিভাগে একজন এবং বরিশাল বিভাগে চার জন রয়েছেন।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশনে রাখা হয়েছে ৬৩১ জনকে। বর্তমানে আইসোলেশনে আছেন ১২ হাজার ১৯০ জন। ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশন থেকে ছাড়া পেয়েছেন ৩৫৬ জন, এখন পর্যন্ত ছাড়া পেয়েছেন সাত হাজার ৬২৪ জন। তিনি আরও জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় প্রাতিষ্ঠানিক ও হোম কোয়ারেন্টাইন মিলে কোয়ারেন্টাইন করা হয়েছে দুই হাজার ৮১৯ জনকে। এখন পর্যন্ত তিন লাখ ৩৯ হাজার ৫৮৩ জনকে কোয়ারেন্টাইন করা হয়েছে। কোয়ারেন্টাইন থেকে গত ২৪ ঘণ্টায় ছাড়া পেয়েছেন দুই হাজার ১৩২ জন, এখন পর্যন্ত মোট ছাড়া পেয়েছেন দুই লাখ ৭৬ হাজার ৩৭৮ জন। বর্তমানে মোট কোয়ারেন্টাইনে আছেন ৬৩ হাজার ২০৫ জন।

ডাঃ নাসিমা সুলতানা আরও জানান, দেশে মোট আইসোলেশন শয্যা রয়েছে ১৩ হাজার ২৮৪টি। এর মধ্যে রাজধানী ঢাকায় সাত হাজার ২৫০টি এবং ঢাকার বাইরে বিভিন্ন হাসপাতালে ছয় হাজার ৩৪টি শয্যা রয়েছে। সারাদেশে আইসিইউ শয্যার সংখ্যা ৩৯৯টি এবং ডায়ালাইসিস ইউনিট রয়েছে ১১২। আর দেশের ৬৪ জেলা-উপজেলা পর্যায়ে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনের জন্য ৬২৯টি প্রতিষ্ঠান প্রস্তুত রয়েছে। এসব প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে তাৎক্ষণিকভাবে সেবা দেয়া যাবে ৩১ হাজার ৯৯১ জনকে।

আক্রান্তে বেশি ২১-৩০ বছর বয়সীরা ॥ স্বাস্থ্য অধিদফতর

অতিরিক্ত মহাপরিচালক ডাঃ নাসিমা সুলতানা জানান, লিঙ্গভেদে শনাক্তের হার পুরুষ ৭১ শতাংশ এবং নারী ২৯ শতাংশ। বয়স বিবেচনায় ৬০ বছরের বেশি বয়সী ৭ শতাংশ, ৫১ থেকে ৬০ বছরের ১১ শতাংশ, ৪১ থেকে ৫০ বছরের ১৭ শতাংশ, ৩১ থেকে ৪০ বছরের ২৭ শতাংশ, ২১ থেকে ৩০ বছরের ২৮ শতাংশ, ১১ থেকে ২০ বছরের ৭ শতাংশ এবং ১ থেকে ১০ বছরের মধ্যে ৩ শতাংশ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

৬০ বছরের বেশি বয়সীদের মৃতের হার বেশি ॥ স্বাস্থ্য অধিদফতর

অতিরিক্ত মহাপরিচালক ডাঃ নাসিমা সুলতানা জানান, ১ থেকে ১০ বছর বয়সীদের মৃতের হার দশমিক ৮২ শতাংশ, ১১ থেকে ২০ বছরের মধ্যে ১ দশমিক ৪৯ শতাংশ, ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে ৩ দশমিক ৪ শতাংশ, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে ৮ দশমিক ২৯ শতাংশ, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে ১৭ দশমিক ৩৯ শতাংশ, ৫১ থেকে ৬০ বয়সীদের ২৯ দশমিক ৬২ শতাংশ এবং ৬১ বছরের বেশি বয়সীদের মৃত্যুর হার ৩৮ দশমিক ৯৯ শতাংশ।

ডাঃ নাসিমা সুলতানা আরও জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় স্বাস্থ্য বাতায়নের নম্বরে ৬৬ হাজার ১৭৭টি, ৩৩৩ নম্বরে ১ লাখ ১৭ হাজার ৩৪৫টি এবং আইইডিসিআর’র নম্বরে ১১৯৮টি করোনা সংক্রান্ত কল এসেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় আসা মোট কলের সংখ্যা ১ লাখ ৮৪ হাজার ৭২০। এ পর্যন্ত মোট কল এসেছে ১ কোটি ২২ লাখ ৪৩ হাজার ৫০৬টি।

মাসভিত্তিক ও মৃত্যুর পরিসংখ্যান

গত ৮ মার্চ বাংলাদেশ প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয়। মার্চে করোনায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ৫১ জন এবং ১৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনা রোগীর মৃত্যু ঘটে। এভাবে মার্চে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৫১ এবং মৃতের সংখ্যা ছিল ৫ জন।

৩০ এপ্রিল পর্যন্ত মোট করোনা আক্রান্ত ৭৬৬৭ জন ও মৃতের সংখ্যা ছিল ১৬৭ জন। অর্থাৎ শুধু এপ্রিলের ৩০ দিনে মোট আক্রান্ত হয়েছে ৭৬১৬ জন এবং মৃত্যু ঘটেছে ১৬২ জনের।

৩১ মে পর্যন্ত দেশে করোনায় মোট আক্রান্ত ৪৭ হাজার ১৫৩ জন এবং মৃত্যু হয় ৬৫০ জনের। অর্থাৎ শুধু মে মাসের ৩১ দিনে ৩৯ হাজার ৪৮৬ জন এবং মৃত্যু ঘটে ৪৮৩ জনের।

আর ২১ জুন পর্যন্ত দেশে মোট করোনা রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ লাখ ১২ হাজার ৩০৬ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ১৪৬৪ জনের। অর্থাৎ শুধু জুনের ২১ দিনে মোট আক্রান্ত ৬৫ হাজার ১৫৩ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৮১৪ জনের।

শীর্ষ সংবাদ:
করোনার মধ্যে বন্যা মোকাবেলায় মানুষ হিমশিম         পাটকল শ্রমিকদের ন্যায্য পাওনা পরিশোধ করা হবে         অসাধু ব্যবসায়ীদের কারসাজিতে চালের দাম বাড়ছে         করোনা মোকাবেলায় এখন নজর চীনা ভ্যাকসিনে         করোনা মোকাবেলায় বহুপাক্ষিক উদ্যোগ জোরদারে গুরুত্বারোপ         ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে হামলার রায় আগস্টে         আগামী মাসে করোনা টিকা বাজারে আনবে ভারত         আন্তর্জাতিক বিমান চলাচলে ভারত নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ বাড়াল         দক্ষিণ সুদানে ‘বাংলাদেশ রোড’ ব্যাপক পরিচিতি পেয়েছে         মিয়ানমার থেকে ইয়াবা আসা থামছেই না         এবার রাজধানীর ওয়ারী লকডাউন         করোনার নকল সুরক্ষা পণ্যে বাজার সয়লাব!         সুন্দরবনে বিষ প্রয়োগকারী দস্যুদের বিরুদ্ধে পুলিশের অভিযান শুরু         কাল থেকে ওয়ারী ‘লকডাউন’         প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে ‘ডেল্টা গভর্ন্যান্স কাউন্সিল’ গঠন         সোমবার থাইল্যান্ডে নেওয়া হচ্ছে সাহারা খাতুনকে         এডিস মশা নিয়ন্ত্রণে শনিবার থেকে ফের চিরুনি অভিযান ॥ আতিকুল         করোনা ভাইরাসে একদিনে আরও ৪২ মৃত্যু, শনাক্ত ৩১১৪         নিম্ন আদালতের ৪০ বিচারক সহ ২২১ জন করোনায় আক্রান্ত         সৌদি থেকে ফিরলেন ৪১৫ জন, মিসর গেলেন ১৪০ বাংলাদেশি        
//--BID Records