ঢাকা, বাংলাদেশ   সোমবার ০৩ অক্টোবর ২০২২, ১৮ আশ্বিন ১৪২৯

রাজধানীর বারডেম হাসপাতালের এক রোগীর আত্মহত্যা

প্রকাশিত: ০৯:৩৭, ২৪ মার্চ ২০২০

রাজধানীর বারডেম হাসপাতালের এক রোগীর আত্মহত্যা

স্টাফ রিপোর্টার ॥ রাজধানীর বারডেম হাসপাতালের বাথরুমে গলায় ফাঁস দিয়ে হানিফা হোসেন হানিফ (৩৫) নামে এক রোগী আত্মহত্যা করেছেন। নিহতের পিতার নাম মৃত আঃ মান্নান। গ্রামের বাড়ি নারায়ণগঞ্জ জেলার আড়াইহাজার উপজেলার বাহেরচর গ্রামে। মঙ্গলবার ভোর ৪টার দিকে পুলিশ বারডেম হাসপাতাল নবম তলার একটি ওয়ার্ডের বাথরুম থেকে তার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ মর্গে পাঠায়। বিকেলে তার লাশের ময়নাতদন্ত শেষে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে বলে হাসপাতাল পুলিশ ফাঁিড়র পরিদর্শক বাচ্চু মিয়া জানান। নিহতের স্ত্রী মাসুমা আক্তার জানায়, স্বামী হানিফ পেশায় কাঠমিস্ত্রী ছিল। চার বছর ধরে সে অসুস্থ্য। তার ডায়াবেটিকস, পায়ের আঙ্গুলের ঘা, পেট জ্বালাপোড়াসহ বিভিন্ন সমস্যা ছিল। দুই সন্তান নিয়ে নারায়ণগঞ্জে থাকতো তারা। তিনি জানান, চলতি মাসের ২০ তারিখে তার স্বামীকে বারডেম হাসপাতালে নবম তলার একটি ওয়ার্ডে ভর্তি করেন। মাসুমা জানান, সোমবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে দু’জন হাসপাতালের বেডে ঘুমিয়ে পড়েন। এরপর রাত ৩টার দিকে হানিফকে বেডে দেখতে না পেয়ে হাসপাতালের বাথরুমের দরজা বন্ধ দেখে ধাক্কা করেন। না খোলায় তিনি চিৎকার শুরু করেন। পরে হাসপাতালের স্টাফ ও নার্সরা এগিয়ে এসে বাথরুমের দরজা খুলে শাওয়ারের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখে পুলিশকে খবর দেয়া হয়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে গলায় লুঙ্গি পেচাঁনো ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়। রমনা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শ্রী বিপ্লব সরকার জানান, বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে হানিফ বারডেম হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। ধারণা করা হচ্ছে পেটের ব্যথা সহ্য করতে না পেরে ভোরে তিনি বাথরুমে গলায় লুঙ্গি পেচিঁয়ে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন।