ঢাকা, বাংলাদেশ   বুধবার ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ২২ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

দক্ষিণ আফ্রিকার সর্বকালের সেরা হতে আর ১ উইকেট প্রয়োজন এ গতি তারকার, রেকর্ডের চেয়েও বড় লক্ষ্য স্টেইনের

নিজেকে এখনও ২৩ বছরের যুবক ভাবছেন স্টেইন!

প্রকাশিত: ০৬:৩৬, ২৬ ডিসেম্বর ২০১৮

নিজেকে এখনও ২৩ বছরের যুবক ভাবছেন স্টেইন!

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ কিছুদিন আগে ইংল্যান্ডের পেসার জেমস এ্যান্ডারসন দাবি করেছিলেন তিনি নিজেকে ৩৬ বছর বয়সেও ৩২ বছর বয়সীর মতো মনে করছেন। টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাসে এখন তিনি চতুর্থ সর্বাধিক (পেসারদের মধ্যে ১ নম্বর) উইকেটের মালিক। জিমি দাবি করেন ৪০ বছর বয়স পর্যন্ত খেলে যাওয়ার মতো প্রাণশক্তি আছে তার। এবার দক্ষিণ আফ্রিকার গতি তারকা ডেল স্টেইন দাবি করলেন নিজেকে তার ২৩ বছর বয়সী তরতাজা তরুণ বলেই মনে হচ্ছে। ৩৫ বছর বয়সী স্টেইন কিছুদিন আগেই হয়ে গেছেন দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেট ইতিহাসে সর্বকালের সেরা বোলার। ৮৮ টেস্টে ৪২১ উইকেট নিয়ে তিনি পেছনে ফেলেছেন সাবেক পেসার শন পোলকের ১০৮ ম্যাচে নেয়া ৪২১ উইকেটের রেকর্ডকে। ম্যাচের হিসেবে পোলককে পেছনে ফেললেও এখন উইকেটের হিসেবে তাকে পেছনে ফেলার হাতছানি। আজ বক্সিং ডে টেস্টে পাকিস্তানের বিপক্ষে শুরু হতে যাওয়া টেস্টে ১ উইকেট নিতে পারলেই হয়ে যাবেন প্রোটিয়াদের টেস্ট ইতিহাসে সর্বকালের সেরা। কিন্তু স্টেইন দাবি করেছেন, রেকর্ড গড়ার চেয়েও বড় লক্ষ্য তার সামনে। প্রায় সাড়ে ৩ বছর আগে ৪০০ উইকেটের মাইলফলক পেরিয়েছিলেন স্টেইন। এরপর মাত্র আর ৮ টেস্ট খেলার সুযোগ পেয়েছেন টানা কয়েক ধাপে ইনজুরি আক্রান্ত হয়ে। গত জুলাইয়ে সর্বশেষ টেস্ট খেলা স্টেইন আবারও নামছেন আজ। সেপ্টেম্বরে ওয়ানডে ক্রিকেটেও ফিরে আসেন দুই বছর পর জিম্বাবুইয়ের বিপক্ষে। সেই সিরিজে দারুণ নৈপুণ্য দেখিয়েছেন ডানহাতি এ অভিজ্ঞ ফাস্ট বোলার। তবে ওয়ানডেতে খুব বেশি উজ্জ্বল না হলেও টেস্টে বিশ্বের অন্যতম ভয়ঙ্কর পেসার তিনি। মাত্র ৮৮ টেস্টেই তিনি নিয়েছেন ৪২১ উইকেট। ওই পরিমাণ উইকেট নিতে সাবেক প্রোটিয়া পেসার পোলকের খেলতে হয়েছিল ১০৮ টেস্ট। অর্থাৎ ২০ টেস্ট কম খেলেই পোলককে স্পর্শ করেছেন তিনি। এবার দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেট ইতিহাসে সর্বকালের সেরা হতে আর মাত্র ১ উইকেট প্রয়োজন। সফরকারী পাকিস্তানের বিপক্ষে সেঞ্চুরিয়নে আজ সিরিজের প্রথম টেস্টেই নামবেন এ গতি তারকা। মাঝে লম্বা সময় ইনজুরির কারণে ক্রিকেটের বাইরে ছিলেন। অনেকে ভেবেছিলেন হয়তো আর ফিরতেই পারবেন না স্টেইন। কারণ সাড়ে ৩ বছর আগে ৪০০ উইকেট পেরনো স্টেইন এই সময়ে মাত্র ৮ টেস্ট খেলেছেন। খুব দ্রুতগতিতে ৪০০ ছুঁলেও পোলককে ধরতে দীর্ঘ সময় লেগেছে। তবে এখন আবার নিয়মিত হয়েছেন। সর্বকালের সেরা হওয়া সময়ের ব্যাপার মাত্র। কিন্তু এরচেয়েও বড় লক্ষ্য তার। স্টেইন বলেন, ‘আমি শুধু এখানে নেমে ভাল করতে চাই। আমি এই ১ উইকেটের ব্যাপারটি নিয়ে প্রায় দুই বছর ধরেই কথা বলছি। এখন বিষয়টি পার হয়ে গেছে।’ ৩৫ বছর বয়সে একজন পেসারের জন্য সমান ছন্দ ও গতি নিয়ে পুরনো সময়ের মতো আতঙ্ক ছড়ানো বেশ কঠিন। তবে ইংলিশ পেসার এ্যান্ডারসন ৩৬ বছর বয়সেও যে ফর্ম ধরে রেখেছেন সেটি হতে পারে বড় উদাহরণ। স্টেইনও মানসিক শক্তিতে বলীয়ান। তিনি বলেন, ‘শুধু এক উইকেট নয়, আরও প্রচুর উইকেট নেয়ার সক্ষমতা আমার মধ্যে আছে। আমি পলির (পোলক) চেয়ে মাত্র এক উইকেট বেশি নেয়ার জন্য নিজেকে টিকে রাখিনি। আমার আরও বড় লক্ষ্য আছে। সেটা যদি ঘটে যায় তাহলে আমার জন্য তা হবে খুবই দারুণ ব্যাপার। এই সম্মানগুলো অর্জন করা খুবই বড় বিষয়। আমি আরও উইকেট নিয়ে পেছনে তাকিয়ে দেখতে চাই আমি অনেক উঁচুতে আছি। এটাই আমার লক্ষ্য। আমার কাছাকাছি মানুষগুলোর সঙ্গে খুব ভাল সম্পর্ক গড়তে পেরের্ছি। কিন্তু অনেকেই আমার ইনজুরিটা কতখানি মারাত্মক ছিল তা জানে না। এরপরও এর মধ্যে অনেক ভ্রমণ করেছি তরতাজা তরুণের মতো। এখন সর্বোচ্চ পর্যায়ের ক্রিকেটে ফিরেছি এবং নিজেকে মনে হচ্ছে আমার বয়স মাত্র ২৩!’
monarchmart
monarchmart