বুধবার ৫ কার্তিক ১৪২৮, ২০ অক্টোবর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

আজ রাত থেকে রাজধানীর সরকারী হাইস্কুলে ভর্তি আবেদন ফরম পূরণ

  • চলবে ১২ ডিসেম্বর পর্যন্ত

স্টাফ রিপোর্টার ॥ আজ রাত ১২টা থেকে শুরু হচ্ছে রাজধানীর সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে নতুন শিক্ষা বর্ষে ভর্তির আবেদন ফরম পূরণ কার্যক্রম। অনলাইনে এ আবেদন প্রক্রিয়া চলবে আগামী ১২ ডিসেম্বর রাত ১২টা পর্যন্ত। রাজধানীর ৩৫টি সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য তিন গ্রুপে পর্যাক্রমে ১৭, ১৮ ও ১৯ ডিসেম্বর লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। আর প্রথম শ্রেণীতে ভর্তির লটারি ড্র অনুষ্ঠিত হবে ২৪ ডিসেম্বর। ৩৫টির মধ্যে প্রথম শ্রেণী আছে ১৪টি বিদ্যালয়ে।

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতরের (মাউশি) উপ-পরিচালক (মাধ্যমিক) একেএম মোস্তফা কামাল জানিয়েছেন, রাত ১২টা থেকে রাজধানীর ৩৫টি সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ভর্তির আবেদন ফরম অনলাইনে বিতরণ শুরু হবে। প্রতি আবেদন ফরমের মূল্য ১৫০ টাকা। মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতরের ওয়েবসাইটে (িি.িফংযব.মড়া.নফ) আবেদন প্রক্রিয়ার সকল তথ্য দেয়া হয়েছে। ওয়েবসাইটে প্রবেশ করলে যে কেউ সহযেই আবেদন করতে পারবে। সেখানে ফরমের মূল্য পরিশোধের প্রক্রিয়াও বলে দেয়া হয়েছে। জানা গেছে, সরকারী এ স্কুলগুলোকে প্রতি বছরের মতো তিন গ্রুপে ভাগ করা হয়েছে। ‘ক’ ‘খ’ ও ‘গ’। পর্যাক্রমে এসব প্রতিষ্ঠানে বিভিন্ন শ্রেণীর ভর্তি পরীক্ষা নেয়া হবে ১৭, ১৮ ও ১৯ ডিসেম্বর। ১৭ তারিখে ‘ক’, ১৮ তারিখে ‘খ’ ও ১৯ তারিখে অনুষ্ঠিত হবে ‘গ’ গ্রুপের স্কুলগুলোর ভর্তি পরীক্ষা। এছাড়া যে ১৪টি বিদ্যালয়ে প্রথম শ্রেণী আছে তার ভর্তির লটারি হবে ২৪ ডিসেম্বর। ঢাকার সবকটি সরকারী বিদ্যালয়কে তিনটি গুচ্ছ করে দ্বিতীয় শ্রেণী থেকে নবম শ্রেণী পর্যন্ত ভর্তি পরীক্ষা নেয়া হবে। একজন প্রার্থী একটি গ্রুপ থেকে সর্বোচ্চ একটি করে অর্থাৎ তিন গ্রুপ থেকে তিনটি স্কুলের জন্য আবেদন করতে পারবে। দ্বিতীয় ও তৃতীয় শ্রেণীতে গত বছরের মতোই ৫০ নম্বরের এক ঘণ্টার ভর্তি পরীক্ষা নেয়া হবে। চতুর্থ থেকে অষ্টম শ্রেণিতে ১০০ নম্বরের ২ ঘণ্টার পরীক্ষা নেয়া হবে। জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার ফলের ভিত্তিতে নবম শ্রেণিতে শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে। দ্বিতীয় ও তৃতীয় শ্রেণীতে বাংলা ১৫, ইংরেজী ১৫ ও গণিতে ২০ নম্বর করে মোট ৫০ নম্বরের এক ঘণ্টার এবং অন্যান্য শ্রেণীতে বাংলা ৩০, ইংরেজী ৩০ ও গণিতে ৪০ নম্বর করে মোট ১০০ নম্বরের ২ ঘণ্টার পরীক্ষা নেয়া হবে। এদিকে মাউশি জানিয়েছে, জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে দেশের সকল সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে এবার টেলিটক মোবাইল ফোনে অনলাইনে ভর্তির আবেদন নেয়া হবে। তবে যেসব উপজেলার স্কুলে বিদ্যুত ও ইন্টারনেট সেবা পর্যাপ্ত নয়, সেসব প্রতিষ্ঠান পরিচালনা পর্যদ সিদ্ধান্ত নিয়ে বিকল্প পদ্ধতিতে ভর্তি কার্যক্রম পরিচালনা করতে পারবে।

ভর্তি নীতিমালা অনুযায়ী গত বছরের মতো এবারও ঢাকা মহানগরীর সরকারী ও বেসরকারী স্কুলে ভর্তিতে নিজ নিজ এলাকার জন্য ৪০ শতাংশ কোটা বরাদ্দ থাকবে। অবশিষ্ট আসন সবার জন্য উন্মুক্ত থাকবে। সরকারী স্কুলের ক্যাচমেন্ট এরিয়া নির্ধারণ করে দেবে মাউশি। এ ছাড়া ৪০ শতাংশ এলাকা কোটার বাইরেও এবার ৫ শতাংশ মুক্তিযোদ্ধা কোটা, ২ শতাংশ প্রতিবন্ধী, এক শতাংশ লিল্লাহ বোর্ডিংয়ের শিশু ও দুই শতাংশ শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীর সন্তানদের জন্য সংরক্ষিত থাকবে। বাকি ৫০ শতাংশ আসনে সব শিশুই আবেদন করতে পারবে।

নীতিমালা অনুযায়ী, একাধিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান একই ক্যাচমেন্ট এলাকায় থাকলে শিক্ষার্থীরা উভয় প্রতিষ্ঠানেই ভর্তির আবেদন করতে পারবে। পরিচালনা পর্যদের সহায়তা নিয়ে ঢাকা মহানগরীর শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধানদের স্কুলের ক্যাচমেন্ট এরিয়া নির্ধারণ করতে বলেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। নীতিমালা অনুযায়ী, ক্যাচমেন্ট এলাকা নির্ধারণে একাধিক স্কুলের মধ্যে জটিলতা দেখা দিলে থানা/উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা তার সমাধান করবেন।

ক্যাচমেন্ট এলাকা নির্ধারণে কোন এলাকা যেন বাদ না পড়ে সেদিকে সতর্ক থাকতে হবে উল্লেখ করে নীতিমালায় বলা হয়েছে, ক্যাচমেন্ট এলাকা নিয়ে থানা/উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তার আদেশে কেউ অসন্তুষ্ট হলে জেলা শিক্ষা কর্মকর্তার কাছে আবেদন করা যাবে।

এ ক্ষেত্রে জেলা শিক্ষা কর্মকর্তার আদেশই চূড়ান্ত। স্কুলে ভর্তি বিজ্ঞপ্তির তারিখে শিক্ষার্থী যে এলাকায় বসবাস করবে সেই এলাকায়ই তার ক্যাচমেন্ট এরিয়া হিসেবে বিবেচিত হবে। নীমিতালা অনুযায়ী প্রথম শ্রেণীতে অবশ্যই লটারির মাধ্যমে শিক্ষার্থী নির্বাচন করতে হবে। লটারির মাধ্যমে নির্বাচিত শিক্ষার্থীদের তালিকা ছাড়াও অপেক্ষমাণ তালিকা করতে হবে। নির্বাচিত শিক্ষার্থী নির্ধারিত তারিখের মধ্যে ভর্তি না হলে এই অপেক্ষমাণ তালিকা থেকে পর্যায়ক্রমে ভর্তির ব্যবস্থা করতে হবে। দ্বিতীয় থেকে অষ্টম শ্রেণীর শূন্য আসনে লিখিত পরীক্ষার মাধ্যমে মেধাক্রম অনুসারে ভর্তির জন্য শিক্ষার্থী বাছাই করতে হবে। আর নবম শ্রেণীতে শিক্ষার্থী ভর্তি করাতে হবে জেএসসি-জেডিসির ফলের ভিত্তিতে। প্রথম শ্রেণীতে ভর্তির জন্য শিশুর বয়স কমপক্ষে ছয় বছর হতে হবে। এই বয়স যাচাইয়ে ভর্তির আবেদন ফরমের সঙ্গে জন্ম নিবন্ধন সনদের সত্যায়িত কপি জমা দিতে হবে।

রাজধানীতে প্রথম শ্রেণী থাকা ১৪ সরকারি স্কুল ॥ ঢাকা মহানগরীর ১৪টি সরকারী মাধ্যমিক স্কুলে প্রথম শ্রেণীতে ভর্তির লটারি হবে আগামী ২৪ ডিসেম্বর। প্রথম শ্রেণীতে ভর্তির জন্য লটারি হওয়া স্কুলগুলো হচ্ছে-গবর্নমেন্ট ল্যাবরেটরি স্কুল, আজিমপুর গার্লস স্কুল, ধানম-ি বয়েজ হাইস্কুল, মতিঝিল বালক উচ্চ বিদ্যালয়, শেরেবাংলা নগর সরকারী বালক উচ্চ বিদ্যালয়, শেরেবাংলা নগর সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, সংযুক্ত বিজ্ঞান হাইস্কুল, নারিন্দা সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়, মোহাম্মদপুর সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়, তেজগাঁও বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, তেজগাঁও বালক উচ্চ বিদ্যালয়, খিলগাঁও গবর্নমেন্ট সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় এবং বাংলাবাজার সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়।

শীর্ষ সংবাদ:
কঠোর ব্যবস্থা নিন ॥ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ         ওমানকে হারিয়ে বিশ্বকাপে টিকে থাকল বাংলাদেশ         আজ পবিত্র ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী         ধর্ম নিয়ে কেউ বাড়াবাড়ি করবেন না         কেন এই সহিংসতা উত্তর এখনও মেলেনি         ঐক্যবদ্ধভাবে প্রতিরোধের ডাক ॥ সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে মাঠে আওয়ামী লীগ         মাঝিপাড়ায় এখন সুনসান নীরবতা, আতঙ্ক কাটেনি         প্রধানমন্ত্রী নিজের হাতে সাজিয়েছেন ফরিদপুর         পিএসসির প্রশ্ন ফাঁসে সর্বোচ্চ ১০ বছরের কারাদণ্ড         মুছা কালু ভোলা-তিন জনের গ্রেফতারেই খুলতে পারে জট         স্বাধীনতা সার্বভৌমত্বে আঘাত হানতেই সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাস         একযুগে আরেকটি স্বপ্নপূরণ         রাজনৈতিক সুবিধা আদায়ে মরিয়া সরকার ॥ ফখরুল         বাংলাদেশের মানুষ তার ধর্ম পালন করবে স্বাধীনভাবে : প্রধানমন্ত্রী         করোনা : আরও এলো ২০ লাখ টিকা, বৃহস্পতিবার আসবে ৫৫ লাখ         প্রতিমাসে তিন কোটি ডোজ টিকা দেওয়া হবে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী         করোনা : গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্যু ৭         অপ্রীতিকর ঘটনা রোধে সরকার প্রতিশ্রুতিবদ্ধ         পীরগঞ্জে ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য একশ বান্ডিল টিন ও নগদ অর্থ বরাদ্দ         সয়াবিন তেলের দাম লিটারে বাড়লো ৭ টাকা