ঢাকা, বাংলাদেশ   শুক্রবার ১৯ আগস্ট ২০২২, ৩ ভাদ্র ১৪২৯

পরীক্ষামূলক

বগুড়ায় কটন মিলের কাছে দুই কোটি টাকা পাওনা পরিশোধ দাবি

২ হাজার শ্রমিকের আল্টিমেটাম

প্রকাশিত: ০৪:১৪, ১৮ অক্টোবর ২০১৬

২ হাজার শ্রমিকের আল্টিমেটাম

স্টাফ রিপোর্টার, বগুড়া অফিস ॥ বিলুপ্ত ঐতিহ্যের কটন স্পিনিং মিলের প্রায় দুই হাজার শ্রমিক আজও তাদের বকেয়া ২ কোটি টাকারও বেশি পায়নি। মালিকপক্ষ বারবার প্রতিশ্রুতি দেয়ার পরও বকেয়া বেতন গ্র্যাচুয়িটি প্রভিডেন্ট ফান্ডের অর্থ পরিশোধ করেনি। এ অবস্থায় বগুড়া কটন স্পিনিং মিলের শ্রমিক কর্মচারী সংগ্রাম পরিষদ প্রেসক্লাবের সামনে সমবেত হয়ে সোমবার বকেয়া পরিশোধের এক মাসের আল্টিমেটাম দিয়েছে। এ সময়ের মধ্যে পরিশোধ না হলে তারা শান্তিপূর্ণভাবে আন্দোলনের ডাক দিয়েছে। এরপর তারা কঠোর অন্দোলনে যাওয়ার ঘোষণাও দিয়েছে। শ্রমিক কর্মচারী সংগ্রাম পরিষদের আহ্বায়ক আব্দুস সাত্তার জানান, অনেক শ্রমিক কর্মচারী গত ২৬ বছরে অর্থাভাবে বিনা চিকিৎসায় মারা গেছেন। এখনও যারা বেঁচে আছেন তারা বকেয়া বেতন পাওয়ার জন্য মালিকপক্ষের সঙ্গে দফায় দফায় বৈঠক করেও কিনারা করতে পারছেন না। কটন মিলটি ভালভাবে চালু করার জন্য মালিকপক্ষ সোনালী ব্যাংক থেকে দশ কোটি টাকা ঋণ নেয়। এ টাকায় মিল চালু না করে ভিন্ন খাতে ব্যবহার করে। ঋণ শোধ করতে না পারায় ব্যাংক মামলা দায়ের করে। ২০০৭ সালে অর্থঋণ আদালত পাওনা আদায়ের লক্ষ্যে মিলের মেশিনারি অবকাঠামো স্থাবর সম্পত্তি বিক্রি শুরু করে। এ সময় মিল পরিচালকম-লীর সঙ্গে শ্রমিক কর্মচারীদের পাওনা টাকার বিষয়ে আলোচনা হয়। মালিকপক্ষ পাওনা প্রদানের প্রতিশ্রুতি দেয়ার পর তা পরিশোধ করেনি। এর ৬ বছর পর ২০১৩ সালে পরিচালকম-লী শ্রমিক কর্মচারীদের সঙ্গে চুক্তি করে। এতে মালিকপক্ষ শ্রমিক কর্মচারীদের মোট বকেয়ার অর্ধেক তিন কোটি টাকা প্রদানে চুক্তি স্বাক্ষর করে। কথা থাকে পরবর্তী দুই বছরের মধ্যে বকেয়া অর্থ পরিশোধ করবে। তা না করে কয়েক দফায় ৯৫ লাখ ৭০ হাজার টাকা পরিশোধ করে। বাকি ২ কোটি ৪ লাখ ৩০ হাজার টাকা পরিশোধে টালবাহানা শুরু করে। বর্তমানে মালিকপক্ষ শ্রমিক কর্মচারীদের কোন কথা শুনছে না। গত দুই ঈদে শ্রমিক কর্মচারীদের একটি টাকাও পরিশোধ করেনি। শ্রমিক কর্মচারী সংগ্রাম পরিশোধের আহ্বায়ক আব্দুস সাত্তার এই টালবাহানার জন্য মিল পরিচালকম-লীর তৌফিকুর রহমান ভা-ারী (বাপ্পি), শফিকুর রহমান ভা-ারী (রাব্বি), তাজমিলুর রহমান ভা-ারী (শান্ত), ফজলুর রহমান ভা-ারী (কামাল), আজিজ ভা-ারী (লিন্টু) ও নুরুল ইসলাম ভা-ারীসহ পরিবারের লোকজনদের দায়ী করেন। সংগ্রাম পরিষদ জানায়, বগুড়া কটন স্পিনিং মিলের অনেক নিষ্কণ্টক স্থাবর সম্পত্তি রয়েছে। এগুলো বিক্রি করে বকেয়া পরিশোধ করতে পারে। বকেয়া আদায়ে সংগ্রাম পরিষদ ১৮ অক্টোবর থেকে ১৭ নবেম্বর পর্যন্ত আল্টিমেটাম দিয়েছে। ১৮ নবেম্বর শ্রমিক কর্মচারীরা বিক্ষোভ করবেন। তারপর টানা দুই দিন অবস্থান ধর্মঘট করবেন। এরপর কঠোর আন্দোলনে নামবেন তারা। উল্লেখ্য, এর আগে কটন মিলের শ্রমিকরা সানকি মিছিল করেছেন।

শীর্ষ সংবাদ:

নিত্যপণ্য ক্রয়ক্ষমতায় রাখতে পদক্ষেপ নেবে সরকার
শাস্তিমূলক ব্যবস্থায় আপত্তি থাকবে না: চীনা রাষ্ট্রদূত
বঙ্গোপসাগরে ফের লঘুচাপ : সমুদ্রবন্দরকে ৩ নম্বর সতকর্তা
চীনে আকস্মিক বন্যায় ১৬ জনের মৃত্যু, নিখোঁজ ৩৬
পাকিস্তান থেকেও হত্যার হুমকি পেলেন তসলিমা নাসরিন
দাবি আদায়ে মাধবপুরে চা শ্রমিকদের মহাসড়ক অবরোধ
ডলারের দাম কমেছে ১০ টাকা, স্বস্তিতে ডলার
ডিমের দাম হালিতে কমলো ১০ টাকা
আশঙ্কাজনক হারে বেড়েছে ভুয়া সাংবাদিকদের দৌরাত্ম্য
রেলওয়ে জমির অবৈধ দখলদারদের উচ্ছেদে শহরজুড়ে মাইকিং
আন্দোলন অব্যাহত, চা শ্রমিকরা দাবিতে অনড়
ভক্তদের পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ পড়ার পরামর্শ দিলেন ওমর সানী