বৃহস্পতিবার ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৩ আগস্ট ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

গুপ্তহত্যা থামানোর সক্ষমতা সরকারের আছে

গুপ্তহত্যা থামানোর সক্ষমতা সরকারের আছে

অনলাইন রিপোর্টার॥ গুলশানের হলি আর্টিজান বেকারি রেস্তোরাঁর হত্যাকাণ্ডকে সাময়িক ধাক্কা হিসেবে মনে করেন তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু। তিনি বলেন, দেশের অর্থনীতির চাকাকে থামানোর ক্ষমতা জঙ্গিদের নেই। গুপ্তহত্যা থামানোর সক্ষমতা সরকারের আছে। আজ বুধবার সকালে রাজধানীর হেয়ার রোডের সরকারি বাসভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে তথ্যমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

বিভিন্ন সময় তরুণদের নিখোঁজ হয়ে যাওয়া এবং জঙ্গি হিসেবে ফেরত আসার বিষয়টি দেশের সামনে কোনো সংকট কি না-সাংবাদিকদের এ প্রশ্নের জবাবে তথ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ। পুরো সমাজ জঙ্গিবাদের বিপক্ষে। ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানগুলো জঙ্গিবাদের বিপক্ষে। তাই দেশের ৬০ শতাংশেরও বেশি তরুণের মধ্যে গুটিকয়েক বিপথগামী তরুণের জন্য পুরো দেশ সংকটে রয়েছে বলে মনে করি না। তবে নিখোঁজদের নিয়ে জোর তৎপরতা চালানো হবে বলেও জানান মন্ত্রী।

মন্ত্রী বলেন, এই সন্ত্রাসী হামলা ভারত, জাপান, ইতালি বা জাপানের ওপর হামলা নয়। এটা শেখ হাসিনার সরকারকে উৎখাত করার জন্য ঘোলা পানিতে মাছ শিকারের চেষ্টা। এ ধরনের হত্যাকাণ্ড রাষ্ট্র, সমাজ, সভ্যতা ও ধর্মের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণার নামান্তর। হাসানুল হক ইনু বিএনপির সমালোচনা করে বলেন, তাদের নানা বক্তব্যের মাধ্যমে জঙ্গিরা সুবিধা পাচ্ছে। বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া নিজেই নিজের গায়ে জঙ্গির কাদা লাগাচ্ছেন বলে মন্তব্য করেন তিনি।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, সরকার জঙ্গি দমনে আন্তরিক। খালেদা জিয়া জঙ্গি দমন নিয়ে কাদা ছোড়াছুড়ি বন্ধ করতে বলেছেন। কিন্তু সরকার এটি নিয়ে কাদা ছোড়াছুড়ি করছে না। নিজের গায়ে নিজেই কাদা লাগিয়েছেন খালেদা জিয়া। তিনি বলেন, খালেদা জিয়া জঙ্গি ইস্যুতে জাতীয় সংলাপের কথা বলছেন। কিন্তু সশস্ত্র জামায়াত ও সাম্প্রদায়িক শক্তিকে সঙ্গে নিয়ে জঙ্গি দমনের সংলাপ হতে পারে না। আগে এই ইস্যুতে বিএনপিকে নিজেদের অবস্থান পরিষ্কার করতে হবে।

বিএনপির আমলেই জঙ্গিবাদের উত্থান হয়েছিল উল্লেখ করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, গত সাত বছরে শেখ হাসিনার সরকার জঙ্গিবাদ দমনে নিরলসভাবে কাজ করছে। জঙ্গিদের বিচারের আওতায় নিয়ে আসা হয়েছে। এখন পর্যন্ত ৭০ জন জঙ্গির মৃত্যুদণ্ডের রায় নিয়ে সাজার অপেক্ষায় আছে জানিয়ে তথ্যমন্ত্রী বলেন, কোনো জঙ্গিকেই বিচারবহির্ভূতভাবে হত্যা করা হয়নি। জঙ্গি উৎপাতকে একটি আন্তর্জাতিক সমস্যা হিসেবে উল্লেখ করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, এই উৎপাত বন্ধ করতে আন্তর্জাতিক শক্তিকে নিয়ে একসঙ্গে কাজ করা হবে।

শীর্ষ সংবাদ:
১৯৭৫ সালে বঙ্গবন্ধুকে হত্যার মাধ্যমে যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশকে ধ্বংস করা হয়েছে ॥ তথ্যমন্ত্রী         দেশের ৮ বিভাগে হচ্ছে ক্যানসার-কিডনি-হৃদরোগের চিকিৎসার বিশেষ হাসপাতাল         সাবেক প্রধান বিচারপতি সিনহাসহ ১১ জনের বিচার শুরু         বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক সুস্থ ও সবল আছে ॥ খালিদ মাহমুদ         কুড়িগ্রামে বাসচাপায় এক পরিবারের তিনজনসহ নিহত ৪         স্বাস্থ্য অধিদফতরের সাবেক ডিজিকে দুদকে জিজ্ঞাসাবাদ         শিগগিরই ভারতের ভিসা চালুর চেষ্টা হচ্ছে জানালেন রীভা গাঙ্গুলি         সাবরিনা-আরিফুলদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন পেছালো         করোনা রোগীর সংখ্যায় এখনও শীর্ষ আটে বাংলাদেশ         ২০২০ সালের শুরু থেকে ২৫ জুন পর্যন্ত ১৩৪ জন বিচারবহির্ভূত হত্যার শিকার ॥ ফখরুল         রাজধানীর যেসব এলাকায় গ্যাস থাকবে না আজ         সৌদি যুবরাজ সম্ভবত দুই ভাই-বোনকেই মেরে ফেলেছেন: ড. জাবরির ছেলে         মেক্সিকোয় আক্রান্ত ৫ লাখ, কারফিউতে ফিরল পেরু         পশ্চিমবঙ্গে ২৪ ঘণ্টায় ৫৪ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ২৯৩১         চাঁদপুর শহর রক্ষা বাঁধে আবারও ভয়াবহ ভাঙ্গন         শত্রুর মোকাবিলায় কঠিন ঐক্য বজায় রাখবে আইআরজিসি ও সেনাবাহিনী         করোনায় সম্মুখযোদ্ধা কেউ মারা গেলে পরিবারের সদস্যের চাকরি         ম্যানহাটনের চেয়েও বড় আইস শেল্ফ গলতে শুরু করেছে         দুই সপ্তাহের মধ্যে চিকিৎসকদের করোনা ভ্যাকসিন দেবে রাশিয়া         ইউরোপ যেন আমেরিকার কথায় প্রভাবিত না হয়: ম্যাকরনকে রুহানি        
//--BID Records