রবিবার ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২২ মে ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

খালেদার রিভিশন শুনানির জন্য নিয়মিত বেঞ্চে যাওয়ার পরামর্শ

খালেদার রিভিশন শুনানির জন্য নিয়মিত বেঞ্চে যাওয়ার পরামর্শ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে করা তদন্ত ডায়েরি (রেকর্ডপত্র ও সিডি) এবং তদন্ত কর্মকর্তার (আইও) সাক্ষ্য পুনরায় গ্রহণ করা সংক্রান্ত দুটি আবেদন শুনানির জন্য হাইকোর্টের অবকাশের পর নিয়মিত বেঞ্চে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন আদালত। বৃহস্পতিবার বিচারপতি মিফতাহ উদ্দিন চৌধুরী ও বিচারপতি খিজির আহমেদ চৌধুরীর সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চে আবেদনের ওপর শুনানি করে এই আদেশ দেন।

একই সঙ্গে হাইকোর্টের যে বেঞ্চে দুদকের মামলা শুননি গ্রহণ করার এখতিয়ার রয়েছে ওই বেঞ্চে উপস্থাপন করার জন্য বলেছেন আদালত। সংশ্লিষ্ট বেঞ্চে আবেদন দুটি শুনানিতে অপারকগতা প্রকাশ করেছেন এবং হাইকোর্টের নিয়মিত বেঞ্চে শুনানি করার জন্য পাঠিয়ে দিয়েছেন বলে জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেছেন আইনজীবী ব্যারিস্টার রাগিফ রউফ চৌধুরী। এদিন আদালতে আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন এজে মুহাম্মদ আলী। সঙ্গে ছিলেন- ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন, রাগিফ রউফ চৌধুরী, এহসানুর রহমান ও সাগীর হোসেন লিয়ন।

অপরদিকে রাষ্ট্রপক্ষের শুনানিতে ছিলেন- অতিরিক্তি অ্যাটর্নি জেনারেল মুরাদ রেজা এবং দুদকের পক্ষে ছিলেন, খুরশিদ আলম খান। এ সময় খালেদার পক্ষে উপস্থিত ছিলেন খন্দকার মাহুবুব হোসেন।

দুদকের আইনজীবী খুরশিদ আলম খান সাংবাদিকদের বলেন, আদালত খালেদার দুটি আবেদন শুনানির বিষয়ে একজন বিচারপতি বিব্রতবোধ করেছেন বলে ওপেন আদালতে বলেছেন এবং ওনারা রিটের শুনানিতে অপরাগতা প্রকাশ করে নিয়মিত বেঞ্চে যাওয়ার পরামর্শ দেন আবেদনকারী আইনজীবীদেরকে। তবে ব্যারিস্টার রাগিফ রউফ চৌধুরী বলেন, আদালতের একজন বিচারপতি বিব্রবোধ করেছেন এবং নিয়মিত বেঞ্চে যেতে বলেছেন।

তবে অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল মুরাদ রেজা সাংবাদিকদের বলেন, আদালত যদি কোনো মামলায় বিব্রবোধ করেন তা হলে কোনো রকম আদেশ দিতে পারেন না। সুতরাং আদালত বিব্রতবোধ করেননি রিট আবেদন শুনানিতে অপারগতা প্রকাশ করে নিয়মিত বেঞ্চে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন।

তিনি বলেন, বিব্রতবোধ করলে মামলাটি প্রধান বিচারপতি কোন বেঞ্চে নির্দিষ্ট করে দিলে ওই বেঞ্চে শুনানি করার জন্য যেত। সুপ্রিম কোর্টের অবকাশ শেষে আগামী ২ মে নিয়মিত বেঞ্চে শুনানির জন্য আবেদন করতে পারবেন।

শীর্ষ সংবাদ:
হাজি সেলিমকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ আদালতের         সরকার পরিবর্তনের একমাত্র উপায় নির্বাচন ॥ কাদের         পরিবেশ রক্ষায় যত্রতত্র অবকাঠামো করা যাবে না ॥ প্রধানমন্ত্রী         সুনামগঞ্জে নদীর পানি কমলেও হাওড়ের জনপদে দুর্ভোগ বেড়েছে         পতনে নাকাল শেয়ারবাজার, দিশেহারা বিনিয়োগকারীরা         ‘বিশ্বজুড়ে আরও মাঙ্কিপক্স শনাক্তের আশঙ্কা’         সর্বনিম্ন ২৫ হাজার টাকা বেতন চান সরকারি কর্মচারীরা         হাতিয়ায় ত্রান পেল ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্তরা         নরসিংদীর বেলাবতে মা, ছেলে ও মেয়ের গলাকাটা লাশ উদ্ধার         খুলনায় বিস্ফোরক মামলায় ২ জঙ্গীর ২০ বছরের কারাদণ্ড         অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রীকে শেখ হাসিনার অভিনন্দন         বাংলাদেশিরা মালদ্বীপে বৈধ হওয়ার সুযোগ পাচ্ছেন         চার মাসে ডায়রিয়ায় আক্রান্ত ৬ লাখ ৭৭ হাজার         বাজারে গ্যালে দাম হুইন্না কইলজাডা মোচড় মারে         কুয়াকাটায় ভেসে আসা ডলফিনের মৃত্যু         ফটিকছড়ির বাগানে জাপানের লাখ টাকার মিয়াজাকি আম         ভারতের জাম্মু-কাশ্মিরে সুড়ঙ্গ ধসে ১০ জন নিহত         এখন আমাদের নতুন করে চিন্তা করতে হবে ॥ মুমিনুল         দি মারিয়া একটানা ৭ বছর খেলে পিএসজি ছাড়লেন