শনিবার ৭ কার্তিক ১৪২৮, ২৩ অক্টোবর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

ত্রিশ হাজার মানুষের দুর্ভোগের নাম বাঁশের সাঁকো

নিজস্ব সংবাদদাতা, জামালপুর, ১৫ মে ॥ ১৩০ মিটার দৈর্ঘ্য একটি সেতুর অভাবে দুই যুগ ধরে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে নড়বড়ে বাঁশের সাঁকো দিয়ে পারাপার হচ্ছে বকশীগঞ্জ উপজেলার ৮ গ্রামের প্রায় ৩০ হাজার মানুষ। মরণ ফাঁদ ওই বাঁশের সাঁকো পারাপারের সময় পড়ে গিয়ে বিগত সময়ে মারা গেছে ৩ জন। আহত হয়েছে কমপক্ষে অর্ধশত পথচারী।

জানা গেছে, ১৯৮৬ সালে উপজেলা সদর থেকে ৭ কিলোমিটার দূরে নিলাক্ষীয়া ইউনিয়নের পাগলাপাড়া সড়কের খালের উপর এলজিইডি কর্তৃক ১৩০ মিটার সেতু নির্মিত হয়। ওই সেতুটি ১৯৮৮ সালের বন্যায় সম্পূর্ণ বিধ্বস্ত হয়ে যায়। সেই থেকে উপজেলা সদর থেকে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে বকশীগঞ্জ উপজেলার ৮টি গ্রাম। সেতুর অভাবে সরাসরি সড়ক যোগাযোগ ব্যবস্থা না থাকায় আট গ্রামের অন্তত ৩০ হাজার মানুষ দুইযুগ ধরে যাতায়াতের ক্ষেত্রে চরম দুর্ভোগের শিকার হচ্ছেন। যাতায়াতের প্রয়োজনে আশপাশের লোকজন নিজেদের উদ্যোগে এবং ইউনিয়ন পরিষদের সহযোগিতায় ১৩০ মিটার লম্বা নড়বড়ে ওই বাঁশের সাঁকোটি নির্মাণ করেছেন। ফলে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে শত শত স্কুল-কলেজগামী ছাত্রছাত্রীসহ ৩০ হাজার মানুষ মরণ ফাঁদ খ্যাত বাঁশের এই সাঁকো দিয়ে যাতয়াত করতে বাধ্য হচ্ছে।

ইতোপূর্বে বাঁশের ওই সাঁকো দিয়ে পারাপারের সময় সেখান থেকে পড়ে গিয়ে পাগলাপাড়া গ্রামের হায়দর আলীর ছেলে ছামিজল, আমল হকের ছেলে ছোরহাব আলী, আনার আলীর ছেলে ইব্রাহীমের মৃত্যু হয়েছে।

তবুও বিকল্প সড়ক না থাকায় দুই যুগ ধরে পাগলাপাড়া, বেতমারী, শেখেরচর, গোয়ালেরচর, বোলাকিপাড়া চরিয়াপাড়াসহ ৮ গ্রামের স্কুল-কলেজগামী শত শত ছেলে-মেয়েসহ অন্তত ৩০ হাজার মানুষ ঝুঁকিপূর্ণ বাঁশের সাঁকোর উপর দিয়ে যাতায়াত করছে।

শীর্ষ সংবাদ:
সড়কে শৃঙ্খলা আনাই আমাদের চ্যালেঞ্জ ॥ কাদের         সম্প্রীতি বজায় রাখতে শিশুদের সংস্কৃতিচর্চা অপরিহার্য ॥ তথ্যমন্ত্রী         কবি শামসুর রাহমানের জন্মদিন আজ         মগবাজারে ট্রেন লাইনচ্যুত, যোগাযোগ বিঘ্নিত         করোনায় ১ লাখ ৮০ হাজার স্বাস্থ্যকর্মীর মৃত্যুর শঙ্কা ডব্লিউএইচওর         উন্নয়নের মহাসড়কে নারায়ণগঞ্জ         জলবায়ু পরিস্থিতি বিপর্যয়ের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে ॥ জাতিসংঘ         করোনা ভাইরাসে ১৭ মাসে সর্বনিম্ন ৪ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ২৩২         পূজামণ্ডপে কোরআন শরিফ রাখার কথা ‘স্বীকার করেছেন’ ইকবাল         ২৪ ঘণ্টায় আরও ১২৩ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে         সংখ্যালঘুদের সুরক্ষায় আইনের দাবি দিয়ে শাহবাগ ছাড়লেন বিক্ষোভকারীরা         রোহিঙ্গা ক্যাম্পে মাদক-অস্ত্র বন্ধে প্রয়োজনে গুলি ॥ পররাষ্ট্রমন্ত্রী         সড়কে শৃঙ্খলা আনাই আমাদের চ্যালেঞ্জ ॥ সেতু মন্ত্রী         কোরিয়ার ভিসার জন্য আবেদন শুরু রবিবার         বিদেশি শ্রমিকদের ওপর নিষেধাজ্ঞা তুলছে মালয়েশিয়া         মুশফিক ও লিটনের প্রতি আস্থা রাখতে বললেন অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ         রাজধানীর কাওরানবাজার এলাকায় মালবাহী ট্রেন লাইনচ্যুত         সিরিয়ার বনে আগুন দেওয়ার দায়ে ২৪ জনের মৃত্যুদণ্ড ১১ জনের যাবজ্জীবন         নেপালে বন্যা, ভূমিধস ॥ মৃত্যু ১০০ জনের বেশী         ঝিনাইদহে ইজিবাইক চালক হত্যার ঘটনায় ৬ জন গ্রেফতার