ঢাকা, বাংলাদেশ   বৃহস্পতিবার ২৫ জুলাই ২০২৪, ১০ শ্রাবণ ১৪৩১

লক্ষ্মীপুরে ককটেল ফাটিয়ে স্বর্ণালংকার লুট, নিহত ১

নিজস্ব সংবাদদাতা, লক্ষ্মীপুর 

প্রকাশিত: ১১:১৬, ৮ জুন ২০২৩

লক্ষ্মীপুরে ককটেল ফাটিয়ে স্বর্ণালংকার লুট, নিহত ১

এই দোকান থেকে স্বর্ণালংকার লুট করা হয়। 

লক্ষ্মীপুর শহরে ককটেল ফাটিয়ে ও আতঙ্ক ছড়িয়ে একটি স্বর্ণকার দোকানে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। এ সময় দোকানিকে কুপিয়ে জখম করে ডাকাত দল লুটে নেয় স্বর্ণালংকার ও নগদ অর্থ। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে বেশকিছু তাজা ককটেল রাস্তার ওপর থেকে উদ্ধার করেছে। 

বুধবার (৭ জুন) রাত ৮টা ১০ মিনিটে হঠাৎ আদর্শ সামাদ উচ্চ বিদ্যালয় সংলগ্ন ‘চৌধুরী সুপার মার্কেট এর আর. কে. শিল্পালয়’-এ ৭/৮ জন লোক এসে ককটেল ফাটিয়ে চতুর্দিকে আতঙ্ক ছড়িয়ে ওই স্বর্ণকারের দোকান থেকে নগদ অর্থ ও স্বর্ণালংকার লুটে নেয়। বাধা দেওয়ায় স্বত্বাধিকারী দোকানি অপু কর্মকারকে এলোপাতাড়ি জখম করে ডাকাত দল। এ সময় বাবাকে বাঁচাতে গিয়ে তার ছেলে অমি কর্মকার ও আহত হয়।

স্থানীয় কলা বিক্রেতা মো.খোকন জানান, হঠাৎ রাত ৮টা ১০ মিনিটে কয়েকজন লোক এসে স্বর্ণকার দোকানে প্রবেশ করে। আর একজন বাহিরে দাঁড়িয়ে একটি ব্যাগ থেকে ককটেল ফাটিয়ে চতুর্দিকে আতঙ্ক ছড়িয়ে দেয়। আমি নিজেই ভয়ে একটি দোকানে গিয়ে আশ্রয় নিই। তারা ২ থেকে ৩ মিনিটের মধ্যে এ স্বর্ণালংকার লুটে নেয়। অপু দাদাকে কুপিয়ে জখম করে। পরে আমরা রক্তাক্ত অবস্থায় দাদাকে উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করি।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী জানান, রাত ৮টার পরপর আর. কে. শিল্পালয় কয়েকজন লোক এসে হামলা করে নগদ অর্থ ও স্বর্ণালংকার লুটে নেয়। কুপিয়ে জখম করে দোকানিকে। পরে তারা একটি পিকআপ ভ্যানে করে পালিয়ে যায়। পিকআপ ভ্যানটি শহরে ইটের পোল এলাকায় গিয়ে ২ জন ব্যক্তিকে চাপা দেয়। এতে ছবি উল্লাহ (৬৫) ও মো. ইসলাম (৫০) নামে তারা গুরুতর আহত হয়। তাদের হাসপাতালে আনলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ছফি উল্লাহকে মৃত ঘোষণা করেন।

মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করছেন সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার মো. আনোয়ার হোসেন। তিনি জানান, আশঙ্কাজনক অবস্থায় অপু কর্মকারকে ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। আর ইটের পুল এলাকার জনতা দুই জনকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে।

লক্ষ্মীপুর সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোসলেহ উদ্দিন জানান, বিষয়টি আমরা খতিয়ে দেখছি। অপরাধীদের ধরতে আমরা কাজ করছি। 
 

এম হাসান 

×