১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২০, ৬ ফাল্গুন ১৪২৬, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
 
সর্বশেষ

বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

প্রকাশিত : ২৫ জানুয়ারী ২০২০
 বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে প্রধানমন্ত্রীর  শ্রদ্ধা

নিজস্ব সংবাদদাতা, গোপালগঞ্জ, ২৪ জানুয়ারি ॥ গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি শ্রদ্ধা জানালেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শুক্রবার বেলা একটায় তিনি জাতির পিতার সমাধিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে তার প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা জানান। সেইসঙ্গে আওয়ামী লীগের নবগঠিত কেন্দ্রীয় কমিটির নেতৃবৃন্দকে নিয়েও পৃথকভাবে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করে জাতির পিতাকে শ্রদ্ধাঞ্জলি নিবেদন করেন দলীয় সভাপতি শেখ হাসিনা।

ঢাকা থেকে হেলিকপ্টারযোগে রওনা হয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা টুঙ্গিপাড়া উপজেলা পরিষদ মাঠে নির্মিত হেলিপ্যাডে অবতরণ করেন সকাল ১১টা ১০ মিনিটে। উৎসব আমেজে তাকে স্বাগত জানান কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ। মুজিববর্ষকে সামনে রেখে প্রধানমন্ত্রী ও কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দকে বরণ করে নিতে নেতাকর্মীদের মধ্যে ছিল বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনা। পরে প্রধানমন্ত্রী হেলিপ্যাড থেকে সড়কপথে জাতির পিতার মাজারে পৌঁছেন সকাল ১১টা ২০ মিনিটে। এরপর তিনি অবস্থান করেন মাজার কমপ্লেক্সের বঙ্গবন্ধু ভবনে। এ সময় তিনি অন্যবারের ন্যায় জাতির পিতার কবরের পাশে গিয়ে কোরান তেলওয়াত করেন।

পরে ঢাকা থেকে সড়কপথে আগত কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ টুঙ্গিপাড়ায় পৌঁছলে দুপুর ১টায় জাতির পিতার সমাধিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে বিনম্র শ্রদ্ধা জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এ সময় সশস্ত্র বাহিনীর পক্ষ থেকে তাকে অনার গার্ড প্রদান করা হয়। এরপর দলীয় প্রধান শেখ হাসিনা আওয়ামী লীগের নবগঠিত কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ সঙ্গে নিয়ে জাতির পিতার সমাধিতে আবারও পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করে তার প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন এবং বঙ্গবন্ধু ও পরিবারের সকল শহীদের আত্মার শান্তি কামনায় ফাতেহা পাঠ ও মোনাজাত করেন।

এ সময় আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, প্রেসিডিয়াম সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম, বেগম মতিয়া চৌধুরী, মোহম্মদ নাসিম, কাজী জাফরউল্যাহ, সাহারা খাতুন, ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন, পীযুষ কান্তি ভট্টাচার্য্য, ড. আব্দুর রাজ্জাক, লে. কর্নেল (অব) মুহাম্মদ ফারুক খান, এ্যাডভোকেট আব্দুল মতিন খসরু, শাহজাহান খান, জাহাঙ্গীর কবির নানক ও আব্দুর রহমান, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল-আলম হানিফ, ডাঃ দীপু মনি, ড. হাছান মাহমুদ ও আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন, বিএম মোজাম্মেল, মীর্জা আজম, এসএম কামাল ও আবু সাঈদ আল মাহমুদ, প্রচার সম্পাদক ড. আব্দুস সোবাহান গোলাপ ও দফতর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়াসহ নবগঠিত কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ সেখানে উপস্থিত ছিলেন।

এছাড়াও জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান চৌধুরী এমদাদুল হক ও সাধারণ সম্পাদক মাহাবুব আলী খানসহ জেলা ও উপজেলা আওয়ামী লীগ এবং সহযোগী সংগঠনের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ, পদস্থ সামরিক ও বেসামরিক কর্মকর্তা, গোপালগঞ্জ জেলা প্রশাসক শাহিদা সুলতানা ও পুলিশ সুপার সাইদুর রহমান খানসহ উচ্চপদস্থ কর্মকর্তারা সেখানে উপস্থিত ছিলেন। পরে জুমার নামাজ শেষে দলের কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় নেতৃবৃন্দসহ অন্যরা বঙ্গবন্ধুর মাজার কমপ্লেক্স মসজিদে অনুষ্ঠিত মিলাদ মাহফিলে অংশ নেন।

মধ্যাহ্ন ভোজের পর বেলা আড়াইটার দিকে, বঙ্গবন্ধুর মাজার কমপ্লেক্সের সন্নিকটে প্রধানমন্ত্রীর নিজ বাসভবনে অনুষ্ঠিত হয় আওয়ামী লীগের নবগঠিত কেন্দ্রীয় কমিটির প্রথম সভা। সভায় সভাপতিত্ব করেন দলীয় প্রধান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আগেরবারও কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগ গঠনের পর জাতির পিতার সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে প্রথম সভা অনুষ্ঠিত হয় টুঙ্গিপাড়ায় শেখ হাসিনার বাসভবনে।

পরে বিকেল পৌনে ৪টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা টুঙ্গিপাড়া থেকে একইপথে রওনা হন ঢাকার উদ্দেশে।

টুঙ্গিপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল বশার খায়ের জানিয়েছেন, কেন্দ্রীয় কমিটির সভা শেষে প্রধানমন্ত্রী খুব সংক্ষিপ্ত পরিসরে স্থানীয় নেতৃবন্দকে সময় দিতে পেরেছেন। তার মধ্যে তিনি আগামী ১২ ফেব্রুয়ারি কোটালীপাড়া এবং ১৩ ফেব্রুয়ারি টুঙ্গিপাড়ায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন এবং ফেব্রুয়ারির শেষ সপ্তাহে গোপালগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন করার কথা বলে গেছেন।

প্রকাশিত : ২৫ জানুয়ারী ২০২০

২৫/০১/২০২০ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



শীর্ষ সংবাদ: