২২ নভেম্বর ২০১৭,   ঢাকা, বাংলাদেশ   শেষ আপডেট ৬ ঘন্টা পূর্বে  
Login   Register        
ADS

ধোনি-কোহালি আছে বলে কেকেআরের পরের দুটো বড় ম্যাচ


ধোনি-কোহালি আছে বলে কেকেআরের পরের দুটো বড় ম্যাচ

অনলাইন ডেস্ক ॥ দুটো বড় ম্যাচ এখন কেকেআরের সামনে। আজ পুণে সুপারজায়ান্টস আর পরশু বেঙ্গালুরু। এই দু’দলের একটায় এমএস ধোনি আর অন্যটায় বিরাট কোহালি— এই দুটো নাম আছে বলেই ম্যাচ দুটো কেকেআরের বড় ম্যাচ।

ভারতীয় ক্রিকেটে ধোনি-কোহালি বড় নাম ঠিকই। তবে এ বারের আইপিএলে দু’জনই রোলার কোস্টারে চড়ে বসে রয়েছে। পুণে তো আইপিএল থেকে ছিটকেই গিয়েছে। তাই ইডেনে ওদের হারানোর কিছু নেই। এ ধরনের দলগুলোই কিন্তু বিপক্ষের কাছে খুব বিপজ্জনক হয়। পুণে দলের মালিক আবার কলকাতারই মানুষ। তাই তিনি নিশ্চয়ই চাইবেন, ইডেন দর্শকদের সামনে তাঁর দলই জিতুক। কিন্তু ইডেন যে কেকেআরের ঘরের মাঠ। তাই শনিবার কেকেআরকে হারানো পুণের কাছে সহজ হবে না।

কলকাতার প্রাণ সুনীল নারিন আঙুলের চোট সারিয়ে মাঠে ফিরছে বলেই শুনেছি। ওদের পরের তিনটে হোম ম্যাচই খুব গুরুত্বপূর্ণ। আর নারিন যে সেগুলোতে ম্যাচ উইনার হয়ে উঠতে পারে, তা নিয়ে কোনও সন্দেহ নেই।

পরশু বেঙ্গালুরুর জয়ের সম্ভাবনাও কম। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে কোহালি ইডেন দর্শকদের মাতিয়ে দিয়ে গিয়েছিল ঠিকই। বেঙ্গালুরুও ইডেনে ওর কাছে ফের ওই রকম একটা ইনিংস দেখতে চাইবে নিশ্চয়ই। আইপিএলে বিরাট দুর্ধর্ষ ফর্মে আছে। কিন্তু ওর দলের ভাগ্য এতটাই খারাপ যে, টুর্নামেন্টে তেমন ভাল কিছুই করে উঠতে পারেনি এখনও। গেইল, ডেভিলিয়ার্স, ওয়াটসনরা প্রচুর দর্শক টানতে পারে। আর ইডেনের উইকেট যা, তাতে দুটো ম্যাচেই রানের ফোয়ারা ছোটার সম্ভাবনা প্রচুর।

হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে দিল্লির আগের দিনের জয়টা খুব দরকার ছিল। লিগ টেবলে এক নম্বরে থাকা হায়দরাবাদকে জাহির খান ছাড়াই দিল্লির হারিয়ে দেওয়াটা আরওই কঠিন ছিল। ক্রিস মরিস অসাধারণ। তবে ওদের তরুণ ক্রিকেটাররা কোনও মানসিক চাপ ছাড়াই যে খেলে চলেছে, এটাই ওদের প্লাস পয়েন্ট।

ঋষভ পন্থ যেমন। অসাধারণ কিছু শট আছে ছেলেটার ব্যাটে। মনে হচ্ছে ভবিষ্যতে ভারতীয় ক্রিকেটে একটা ভাল জায়গা করে নিতে পারে ছেলেটা। আর যে ছেলে সেই অনূর্ধ্ব-১৯ থেকে রাহুল দ্রাবিড়ের মতো ব্যাটসম্যানের কাছে তালিম নিয়ে আসছে, তার কাছ থেকে এ রকম ব্যাটিংই তো পাওয়া উচিত। আশা করি ঋষভ আরও উন্নতি করবে।

সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা

সর্বাধিক পঠিত:
পাতা থেকে: