ঢাকা, বাংলাদেশ   বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২, ২০ আশ্বিন ১৪২৯

আইপিএলের সেরা পাঁচে মুস্তাফিজ

প্রকাশিত: ০৬:৪৪, ৮ এপ্রিল ২০১৮

আইপিএলের সেরা পাঁচে মুস্তাফিজ

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগ (আইপিএল) শুরু হওয়ার আগেই গত তিন বছরে সেরাদের তালিকা করে ক্রিকইনফো। তাতে আইপিএলের সেরা পাঁচে স্থান করে নিয়েছেন বাংলাদেশ কাটার মাস্টার মুস্তাফিজুর রহমান। সেরা ক্রিকেটারদের তালিকা প্রকাশ করেছে ক্রিকেটবিষয়ক শীর্ষ ওয়েবসাইট ক্রিকইনফো। এই তালিকায় বোলারদের সেরা পাঁচে জায়গা করে নিয়েছেন মুস্তাফিজ। ইকনোমি রেটের দিক দিয়ে এবার তিনি আছেন তালিকার ৪ নম্বরে। সেরা বোলারদের তালিকার এক নম্বরে আছেন সানরাইজার্স হায়দরাবাদের হয়ে গত আসরে খেলা আফগানিস্তানের তারকা স্পিনার রশিদ খান। তার স্মার্ট ইকনোমি রেট ৫.২৯। দ্বিতীয় স্থানে থাকা ভারতীয় স্পিনার রবিচন্দ্রন অশ্বিনের স্মার্ট ইকনোমি ৫.৬৮। ৬.০৮ স্মার্ট ইকনোমি নিয়ে ৩ নম্বরে ক্যারিবীয় ‘দুর্বোধ্য স্পিনার’ সুনীল নারাইন। চার নম্বরে থাকা মুস্তাফিজের স্মার্ট ইকনোমি ৬.৩২। এবার মুম্বাই ইন্ডিয়ানসের হয়ে খেলবেন কাটার মাস্টার। শেষে পঞ্চম স্থানে ৬.৬১ স্মার্ট ইকনোমি নিয়ে আছেন ক্রুনাল পাি য়া। বাজে বোলারদের তালিকায় শীর্ষে অজি পেসার মিচেল জনসন (৯.৪৯), দুইয়ে বারিন্দর স্রান (৯.৫৯), তৃতীয় বরুণ এ্যারন (৯.৯১), চতুর্থ ভারতের মোহাম্মদ শামি (১০.৪৭) এবং পঞ্চম স্থানে আছেন জেমস ফকনার (১০.৫৩)। এছাড়া সেরা ব্যাটসম্যান ও বাজে ব্যাটসম্যানের তালিকাও প্রকাশ করেছে ক্রিকইনফো। তবে সেখানে বাংলাদেশের কোন তারকা নেই। সেরাদের শীর্ষে আছেন এক বছর নিষিদ্ধ হওয়া ডেভিড ওয়ার্নার এবং বাজে ব্যাটসম্যানদের শীর্ষে ভারতের উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান ঋদ্ধিমান সাহা। শনিবার শুরু হয়েছে আইপিএল। উদ্বোধনী দিনেই মুস্তাফিজের মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স খেলতে নেমেছে। খেলতে নামার আগে ভারতের সেরা ব্যাটসম্যান শচীন টেন্ডুলকরের সঙ্গে ছবি তুলেছেন মুস্তাফিজ। ছবি তুলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে পোস্টও করেছেন এবং আবেগাপ্লুত মুস্তাফিজ লিখেছেন, ‘কিংবদন্তি শচীন স্যারের সঙ্গে মহামূল্যবান এবং স্মরণীয় একটি মুহূর্ত। উনার সাক্ষাত পেয়ে আমি মুগ্ধ।’ গত দুই আসরে হায়দরাবাদের হয়ে খেলা মুস্তাফিজকে এবার ২ কোটি ২০ লাখ রুপীতে দলে ভিড়িয়েছে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স। প্রথমবার আইপিএলে সবার নজর কেড়েছিলেন মুস্তাফিজ। তার দল জিতেছে আইপিএল ট্রফিও। সেই সঙ্গে দারুণ পারফর্মেন্সের কারণে নির্বাচিত হয়েছিলেন সেরা উদীয়মান ক্রিকেটার হিসেবেও। মুস্তাফিজ এবার দলকে সমর্থন দিতে বলেছেন। জানিয়েছেন, ‘আমি চাইব তারা সবাই দলটিকে সমর্থন দিন। শুধু মুস্তাফিজুর নন, পুরো দলকেই। এটাই আমার আশা।’ সঙ্গে যোগ করেন, ‘প্রথমে খুব কম মানুষই আমায় চিনতো। তাই ব্যাটসম্যানদের পক্ষে আমার বল বোঝা কঠিন ছিল। এখন তো সবার কাছেই ভিডিও ফুটেজ আছে। সবাই জানে আমি কি করছি। আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারের শুরুতে আমি তেমন পরিচিত ছিলাম না। এটাই আমার পক্ষে কাজ করেছে। মানুষ আমায় ভালবাসে কারণ তারা প্রতিদিনই দেখে আমি কি করি। আমি আরও পরিশ্রম করব এবং তাদের আরও খুশি করার চেষ্টা করব। তাতে হয়তো তারা আমায় আরও বেশি ভালবাসবে।’