ঢাকা, বাংলাদেশ   মঙ্গলবার ২৯ নভেম্বর ২০২২, ১৫ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

ক্লাস পরীক্ষা বর্জন স্থগিত

প্রকাশিত: ১০:২৬, ২৬ জুলাই ২০১৯

 ক্লাস পরীক্ষা বর্জন স্থগিত

বিশ্ববিদ্যালয় রিপোর্টার ॥ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে রাজধানীর সরকারী সাত কলেজের অধিভুক্তি নিয়ে সৃষ্ট সমস্যা সমাধানে ১১ সদস্যবিশিষ্ট কমিটি গঠন করায় ক্লাস পরীক্ষা বর্জন কর্মসূচী স্থগিত করেছে আন্দোলনকারীরা। তবে অন্যান্য কর্মসূচী চলমান রাখার ঘোষণা দিয়েছে আন্দোলনকারীরা। বৃহস্পতিবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এই ঘোষণা দেয়া হয়। এর আগে তারা একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করে ক্যাম্পাসের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করেন। সংবাদ সম্মেলনের পর পুনরায় বিক্ষোভ মিছিল বের করেন তারা। শাকিল মিয়া বলেন, কর্তৃপক্ষের আশ্বাসে তারা ক্লাস পরীক্ষা বর্জন কর্মসূচী থেকে সরে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। তবে অন্যান্য কর্মসূচী চলমান থাকবে। প্রশাসনের দেয়া আশ্বাসকে পর্যবেক্ষণে রেখে পরবর্তী কর্মসূচী ঘোষণা করা হবে। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন যদি সাত কলেজ অধিভুক্তি বাতিল না করে বা কালক্ষেপণ করে, তাহলে আবার কঠোর আন্দোলনে যাবেন তারা। সাত কলেজের অধিভুক্তি একটি অপরিকল্পিত সিদ্ধান্ত ছিল বলে শিক্ষার্থীরা স্বতঃস্ফূর্তভাবে অধিভুক্তি বাতিলের দাবিতে আন্দোলন করে আসছে। কিন্তু প্রশাসন বারবার মিথ্যা আশ্বাস দিয়ে গেছে। তাই দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলবে। আন্দোলনকারীদের নেতৃত্বদানকারী নাহিদ ইসলাম বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন যে কমিটি গঠন করেছে সেটা তারা পর্যবেক্ষণে রেখে তাদের আন্দোলন চালিয়ে যাবেন। যদি বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন কোন সিদ্ধান্তের দিকে না যায় তাহলে আবার তুমুল আন্দোলন গড়ে তোলা হবে। সাত কলেজ অধিভুক্তি বাতিলের দাবিতে গত রবিবার থেকে ক্লাস পরীক্ষা বর্জনের ঘোষণা দিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের সব প্রশাসনিক ও একাডেমিক ভবনে তালা ঝুলিয়ে দিয়ে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা। তাদের এই বিক্ষোভে টানা তিনদিন অচল হয়ে পড়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়। এদিকে সাত কলেজ অধিভুক্তি নিয়ে সৃষ্ট সমস্যার স্থায়ী ও যৌক্তিক সমাধানের দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রসমাবেশ ও উপাচার্য বরাবর স্মারকলিপি দেয় ছাত্রলীগ। একইসঙ্গে আন্দোলনকারীদের ক্লাস পরীক্ষা বর্জন কর্মসূচী প্রতিহত করতে গত বুধবার থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সব প্রশাসনিক ও একাডেমিক ভবনে অবস্থান নেয় সংগঠনের নেতাকর্মীরা। ফলে কোন ভবনেই তালা ঝুলাতে পারেনি আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা।
monarchmart
monarchmart