ঢাকা, বাংলাদেশ   শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০

স্পর্শিয়ার মরণোত্তর দেহদানের ঘোষণা

​​​​​​​সংস্কৃতি ডেস্ক

প্রকাশিত: ২২:৫৫, ৮ ডিসেম্বর ২০২৩

স্পর্শিয়ার মরণোত্তর দেহদানের ঘোষণা

.

শুরুতেই একটি টেলিকম কোম্পানির বিজ্ঞাপন দিয়ে দর্শকের নজর কেড়েছিলেন অর্চিতা স্পর্শিয়া। শাকিব খানের সঙ্গেনবাব এলএলবি’, আসাদুজ্জামান আবীরের সঙ্গেকাঠবিড়ালী’, তারিক আনাম খানের সঙ্গেআবার বসন্তসহ একাধিক চলচ্চিত্রে কাজ করে প্রশংসিত হয়েছেন অভিনেত্রী। অনেক দিন হলো বাদ দিয়েছেন নাটকের কাজ। সিনেমাও করছেন একেবারে বেছে বেছে। শীঘ্রই পর্দায় আসছেন নিজের আরও বেশ কটি কাজ নিয়ে।

কাজের মান সংখ্যা তো বটেই, সোশ্যাল হ্যান্ডেলের এই যুগেও তিনি নিজেকে আড়ালে রাখেন দারুণ কৌশলে। সিনেমা-টিভিসির বাইরে অভিনেত্রী কাজ করেন ফ্যাশন আর পথশিশুদের নিয়েও। তার ৩০তম জন্মদিন ছিল শুক্রবার। এদিনই তিনি মরণোত্তর দেহদান করার ঘোষণা দিলেন আনুষ্ঠানিকভাবে। তবে তার আগেই জানালেন কেন তিনি দেহদান বিষয়ে আগ্রহী হলেন। স্পর্শিয়া বলেন, আমার শরীরটুকু মৃত্যুর পরেও যেন কাজে লাগে, সেটা খুব করে চাই। আমার হার্ট যদি ভালো থাকে, সেটা স্থানান্তর হবে অন্য শরীরে, যার মাধ্যমে বেঁচে থাকবে আরেকটা জীবনÑ এসব ভাবতেও ভালো লাগে। শুধু হার্ট নয়, আমার শরীরের যেসব অঙ্গ-প্রত্যঙ্গ ঠিক থাকবে সবই যেন কাজে লাগে মানুষ চিকিৎসা বিজ্ঞানের প্রসারে; এটা আমি মনেপ্রাণে চাই। এমনকি আমার কঙ্কালও যেন ব্যবহার করা হয়, সেটাও আমি চাই। জানা গেছে, এর মধ্যে বিষয়টি নিয়ে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ কর্তৃপক্ষের সঙ্গে স্পর্শিয়া চূড়ান্ত আলাপ করেছেন। তাই মুত্যুর পরে দাফন নয়, কলেজসংশ্লিষ্টরা তার মরদেহ নিয়ে যাবে ঢাকা মেডিক্যালে।

দেহদান প্রসঙ্গে অভিনেত্রী আরও বলেন, দেখুন এই দানের মধ্যে রয়েছে অন্যের উপকার করার ইচ্ছা এবং চিকিৎসা বিজ্ঞানে খানিকটা সহযোগিতা করা। আমার কারণে যদি আরেকজন মানুষ বেঁচে থাকে, তাতে তো আমার ক্ষতি নেই। মানবিকতাবোধ যদি আমাদের মতো শিল্পীদের মধ্যে না থাকে, তাহলে সাধারণ মানুষ কী শিখবে?

×