ঢাকা, বাংলাদেশ   মঙ্গলবার ০৯ আগস্ট ২০২২, ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯

পরীক্ষামূলক

এবার ৫ থেকে ১২ বছর বয়সীদের দেয়া হবে করোনা টিকা

প্রকাশিত: ২৩:২১, ২৮ জুন ২০২২

এবার ৫ থেকে ১২ বছর বয়সীদের দেয়া হবে করোনা টিকা

স্টাফ রিপোর্টার ॥ জন্ম নিবন্ধনের মাধ্যমে পাঁচ থেকে বারো বছর বয়সী শিশুদের ফাইজারের টিকা দেয়া হবে। এজন্য সুরক্ষা এ্যাপে নিবন্ধন করতে হবে। স্বাস্থ্য অধিদফতর জানিয়েছে, ২ কোটি ২০ লাখ শিশুকে দেয়া হবে এ টিকা। সোমবার দুপুরে রাজধানীতে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা জানান, যাদের জন্ম নিবন্ধন নেই, তাদের দ্রুত সময়ের মধ্যে করে নেয়ার জন্য অভিভাবকদের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি। এছাড়া, কোরবানির পশুর হাটে স্বাস্থ্য বিধি অনুসরণ করে চলার আহ্বান জানান সেব্রিনা ফ্লোরা। শিশুদের টিকাদানের বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের টিকাদান কর্মসূচীর সমন্বয়ক অধ্যাপক ডাঃ শামসুল হক জনকণ্ঠকে বলেন, আমরা স্কুল শিক্ষার্থীদের টিকা দিয়েছি। স্বাস্থ্যমন্ত্রী এর আগে কয়েকবার ৫ থেকে ১২ বছর বয়সী শিশুদের করোনার টিকা দেয়ার কথা বলে আসছিলেন। আমাদের সব প্রস্তুতি সম্পন্ন। পর্যাপ্ত টিকা হাতে পেলেই আমরা এ কর্মসূচী শুরু করব। তিনি বলেন, প্রাথমিকভাবে আমাদের লক্ষ্য ২ কোটি ২০ লাখ শিশুকে ফাইজারের টিকা দেয়ার। এর আগে করোনা মোকাবেলায় বাংলাদেশকে আরও ৪০ লাখ ফাইজারের টিকা অনুদান দিয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। ঢাকার মার্কিন দূতাবাসের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে একটি পোস্টে বলা হয়, বাংলাদেশকে ফাইজারের টিকার আরও চার মিলিয়ন (৪০ লাখ) রেডি টু ইউজ ডোজ অনুদান দিতে পেরে যুক্তরাষ্ট্র গর্বিত। এ পর্যন্ত যুক্তরাষ্ট্রের অনুদান দেয়া মোট টিকার সংখ্যা ৬৮ মিলিয়নেরও বেশি। এসব টিকা বাংলাদেশ সরকারকে সারাদেশে টিকাদান ও বুস্টার ক্যাম্পেন সম্প্রসারণ করতে এবং করোনাভাইরাস থেকে মানুষকে রক্ষা করতে সহায়তা করবে বলে বার্তায় উল্লেখ করা হয়। মার্কিন দূতাবাসের তথ্য বলছে, যুক্তরাষ্ট্র থেকে অনুদান হিসেবে এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি করোনা টিকা পেয়েছে বাংলাদেশ।
ডিজিটাল বাংলাদেশ পুরস্কার ২০২২
ডিজিটাল বাংলাদেশ পুরস্কার ২০২২