শনিবার ১৯ আষাঢ় ১৪২৭, ০৪ জুলাই ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

দিনাজপুরের সাড়ে ৩ হাজার কিলোমিটার সড়কে খড়ের পালা

দিনাজপুরের সাড়ে ৩ হাজার কিলোমিটার সড়কে খড়ের পালা

স্টাফ রিপোর্টার, দিনাজপুর ॥ বর্ষা মৌসুমে ধান শুকানোর জন্য চাষিরা বেছে নিয়েছে বিভিন্ন সড়ক, মহাসড়ক ও আঞ্চলিক সড়ককে। এমন দৃশ্য এখন চোখে পড়ে দিনাজপুরের প্রতিটি সড়কে। এসব সড়ক ও মহা সড়কে ধান শুকাতে দেয়ার কারণে প্রতিদিন ঘটছে ছোট-বড় দুর্ঘটনা। এসব বন্ধে স্থানীয় প্রশাসন বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করলেও, তা কোন কাজে দেয়নি।

সংশ্লিষ্ট বিভাগের তথ্যমতে, দিনাজপুর জেলার ১৩টি উপজেলায় এলজিইডি, সড়ক বিভাগ, জেলা পরিষদ ও উপজেলা পরিষদের আওতায় প্রায় সাড়ে ৩ হাজার কিলোমিটার সড়ক, মহাসড়ক ও আঞ্চলিক সড়ক রয়েছে। এসব সড়ক-মহাসড়ক ঘুরে দেখা গেছে, চাষিরা মাঠ থেকে ধান কেটে রাস্তার উপর স্তুপ করে রাখছেন। অনেক স্থানে সড়কের উপরই চলছে, ধান মাড়াই-এর উৎসব। ধান মাড়াই করার পরও, শেষ হচ্ছে না এর যন্ত্রনা। এরপর খড় রাস্তায় বিছিয়ে শুকানো হচ্ছে দিনের পর দিন। এর ফলে দিনাজপুরের সব কালো পিচের সড়ক এখন সোনালী রং ধারন করেছে। এসব সড়কে চরম আতংক নিয়ে যাতায়াত করছে পথচারীসহ সব ধরনের যানবাহন। ভিজা ধানের খড়ের কারনে সাইকেল-মোটরসাইকেলসহ যানবাহন পিছলে দুর্ঘটনা ঘটছে। অন্যদিকে বাড়ছে যানজট।

কথা হয় ফুলবাড়ি-পার্বতীপুর সংযোগ সড়কে খড়ের পালার কাছে দাঁড়িয়ে থাকা এক ট্রাক চালকের সাথে। তিনি বলেন, 'ফুলবাড়ি থেকে পার্বতীপুর যাওয়ার এই রাস্তা তো এমনিতেই ছোট ও বেশ আাঁকাবাকা। তারপর আবার মানুষ ধান ও খড় সড়কের উপর ফেলে শুকাচ্ছে। এমন অবস্থায় দু’টি গাড়ি কিভাবে আসা-যাওয়া করবে। এর কারনে এই সড়কে গত কয়েকদিনে বেশ কয়েকটি বড় ধরনের দুর্ঘটনা ঘটেছে। একজন অটোচালক বলেন, যেভাবে রাস্তায় খড় বিছিয়ে রেখেছে, কখন যে সড়ক থেকে পিছলে পড়ি। ভয়ে গাড়ি জোরে টানতে পারছিনা। এর ফলে ব্যাটারির চার্জও তাড়াতাড়ি শেষ হয়ে যাচ্ছে। মোটরসাইকেল আরোহী স্থানীয় জন প্রতিনিধি আব্বাস আলী বলেন, খড় পিচ্ছিল হওয়ায়, বাইক চালাতে ভয় হচ্ছে। বৃষ্টি হলে তা আরো পিচ্ছিল হয়ে যায়। কয়েকদিন আগে একটুর জন্য এই রাস্তায় দুর্ঘটনার হাত থেকে বেঁচে গেছি। একজন পথচারী অভিযোগ করে বলেন, 'ধানকাটার সময় হলেই, রাস্তাগুলোর বেহাল দশা হয়। চলাচলে খুব কষ্টকর হয়ে দাঁড়ায়। আমরা প্রশাসনের সুদৃষ্টি কামনা করছি'।

এ বিষয়ে স্থানীয় সরকার বিষয়ক মন্ত্রনালয়ের দিনাজপুরের ভারপ্রাপ্ত উপ-পরিচালক মোঃ মাহফুজার রহমান বলেন, চাষিরা এভাবে রাস্তায় ধান বা খড় রাখতে ও শুকাতে পারে না। সব উপজেলা প্রশাসন থেকে মাইক দিয়ে এ ব্যাপারে প্রচারণা চলছে। রাস্তায় ধান ও খড় শুকানো আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ। কেউ এই নির্দেশ অমান্য করলে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শীর্ষ সংবাদ:
করোনার মধ্যে বন্যা মোকাবেলায় মানুষ হিমশিম         পাটকল শ্রমিকদের ন্যায্য পাওনা পরিশোধ করা হবে         অসাধু ব্যবসায়ীদের কারসাজিতে চালের দাম বাড়ছে         করোনা মোকাবেলায় এখন নজর চীনা ভ্যাকসিনে         করোনা মোকাবেলায় বহুপাক্ষিক উদ্যোগ জোরদারে গুরুত্বারোপ         ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে হামলার রায় আগস্টে         আগামী মাসে করোনা টিকা বাজারে আনবে ভারত         আন্তর্জাতিক বিমান চলাচলে ভারত নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ বাড়াল         দক্ষিণ সুদানে ‘বাংলাদেশ রোড’ ব্যাপক পরিচিতি পেয়েছে         মিয়ানমার থেকে ইয়াবা আসা থামছেই না         এবার রাজধানীর ওয়ারী লকডাউন         করোনার নকল সুরক্ষা পণ্যে বাজার সয়লাব!         সুন্দরবনে বিষ প্রয়োগকারী দস্যুদের বিরুদ্ধে পুলিশের অভিযান শুরু         কাল থেকে ওয়ারী ‘লকডাউন’         প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে ‘ডেল্টা গভর্ন্যান্স কাউন্সিল’ গঠন         সোমবার থাইল্যান্ডে নেওয়া হচ্ছে সাহারা খাতুনকে         এডিস মশা নিয়ন্ত্রণে শনিবার থেকে ফের চিরুনি অভিযান ॥ আতিকুল         করোনা ভাইরাসে একদিনে আরও ৪২ মৃত্যু, শনাক্ত ৩১১৪         নিম্ন আদালতের ৪০ বিচারক সহ ২২১ জন করোনায় আক্রান্ত         সৌদি থেকে ফিরলেন ৪১৫ জন, মিসর গেলেন ১৪০ বাংলাদেশি        
//--BID Records