সোমবার ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

ঋণগ্রহীতাদের সমস্যাও দেখতে হবে

  • আইসিআরআর নীতিমালা উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে গবর্নর

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ বাংলাদেশ ব্যাংকের গবর্নর ফজলে কবির বলেছেন, ঋণ বিতরণের পর শুধু আদায় করার মানসিকতা নিয়ে বসে থাকলে হবে না। ঋণগ্রহীতার সমস্যাগুলোও দেখতে হবে। এজন্য গ্রহীতার প্রতি ব্যাংকের সহযোগিতামূলক মনোভাব থাকতে হবে। বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ব্যাংক ম্যানেজমেন্ট (বিআইবিএম) মিলনায়তনে ঋণগ্রহীতার সক্ষমতা মূল্যায়নে দেশে কার্যরত ব্যাংকগুলোর জন্য প্রণীত ইন্টারনাল ক্রেডিট রিস্ক রেটিং সিস্টেম (আইসিআরআর) নীতিমালা উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে গবর্নর এসব কথা বলেন।

গবর্নর বলেন, ঋণ বিতরণের পর ব্যাংকগুলো গ্রাহকের কাছে আশা করে শুধু পরিশোধের (রিপেমেন্ট)। ঋণগ্রহীতাদের অন্য কোন বিষয় নিয়ে ব্যাংক কখনও ভাবে না। অনেক সময় বিদ্যুত, গ্যাসের অভাবে কারখানা চালু করতে পারে না। অনেক কারখানা চালু হওয়ার পরে নানা কারণে বন্ধ হয়ে যায়। ব্যাংকগুলোর এসব বিষয় মাথায় রাখা উচিত। কারণ এভাবে বন্ধ হয়ে যাওয়া অথবা বিদ্যুত, গ্যাসের অভাবে কারখানা চালু করতে না পারায় গ্রাহককে নতুন করে সহযোগিতা না করলে ওইসব কারখানা আর কোনদিন চালুই হবে না। এ ধরনের গ্রাহককে ব্যাংক সহযোগিতা করলে আবার নতুন করে ঋণের টাকা পরিশোধ করতে পারবে। শুধু গ্রাহকই ব্যাংককে সহযোগিতা করবে না, ব্যাংকও গ্রাহককে সহযোগিতা করবে। এ বিষয়টি ব্যাংকগুলোর প্রধান কার্যালয় থেকে শুরু করে শাখা পর্যন্ত পৌঁছে দিতে হবে।

ফজলে কবির বলেন, ঋণগ্রহীতার সক্ষমতা মূল্যায়নে প্রণীত নীতি ব্যাংকগুলোর খেলাপী ঋণ কমানোর পাশাপাশি সর্বোচ্চ মুনাফা অর্জনে সহায়তা করবে। তাই আমি মনে করি, আইসিআরআর নীতিমালা একটি সময়োপযোগী সিদ্ধান্ত। গবর্নর বলেন, নতুন অর্থমন্ত্রী বলেছেন, খেলাপী ঋণ আর বাড়বে না, এখন থেকে কমতে থাকবে। গতবছরের সেপ্টেম্বর শেষে ব্যাংকিং খাতে খেলাপী ঋণ দাঁড়িয়েছে ১১ দশমিক ৫ শতাংশে। এতে কোন সন্দেহ নেই। খেলাপী ঋণ ব্যাংকিং খাতে সার্বিক সম্পদ ও মুনাফা অর্জনে ঝুঁকি তৈরি করে। আমি আশা করছি, ঋণগ্রহীতাদের জন্য নতুন নীতিমালা খেলাপী ঋণ আদায়, মুনাফা অর্জনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে। ব্যাংকগুলো ক্রেডিট লস কমিয়ে এনে বেটার পোর্টফোলিও তৈরি করবে।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগের সচিব আসাদুল ইসলাম বলেন, দেশের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ৭ দশমিক ৮৬ শতাংশ। প্রবৃদ্ধির এ লক্ষ্যমাত্রা ৮ শতাংশ অর্জন করতে হলে আমাদের নতুন নতুন বিনিয়োগ দরকার। আর বিনিয়োগ করার আগে ব্যাংকগুলো গ্রহীতার সক্ষমতা যাচাই এ নীতিমালা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে।

এবিবির চেয়ারম্যান ও ঢাকা ব্যাংকের এমডি সৈয়দ মাহবুবুর রহমান বলেন, গ্রাহকের কাছ থেকে শতভাগ জামানত নেয়া অনেক কঠিন হবে। তবে নতুন এ নীতিমালার গ্যারান্টিসহ অন্যান্য শর্তগুলো ভাল হয়েছে। আবার ৫০ লাখ টাকার বেশি এসএমই ঋণের জন্য নীতিমালা বাস্তবায়ন করা অনেক কঠিন হবে বলেও মত দেন ব্যাংক এমডিদের সংগঠনের এ নেতা। নীতিমালার বিষয়ে বিস্তারিত তুলে ধরেন বিআইবিএম’র প্রফেসর ড. প্রশান্ত কুমার ব্যানার্জি ও বাংলাদেশ ব্যাংকের ডিজিএম হুসনে আরা শিখা। স্বাগত বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক ও বিআইবিএম’র ভারপ্রাপ্ত মহাপরিচালক আব্দুর রহিম। নীতিমালা প্রণয়ন কমিটির কো-অর্ডিনেটর ও কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক আবু ফরাহ মোঃ নাসের বলেন, নীতিমালাটি ব্যাংক, ঋণগ্রহীতা ও পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত বেশ কয়েকটি কোম্পানির সঙ্গে কথা বলে প্রণয়ন করা হয়েছে। সভাপতির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি গবর্নর আহমেদ জামাল। প্রসঙ্গত, আইসিআরআর চালু করার আগে বাংলাদেশ ব্যাংক ১৯৯৩ সালে ব্যাংক খাতে ঋণ ঝুঁকি নির্ণয়ে লেন্ডিং রিস্ক এ্যানালাইসিস (এলআরএ) কাঠামোর সূচনা করে।

এক কোটি টাকার বেশি অঙ্কের ঋণের ক্ষেত্রে এলআরএ কাঠামো প্রযোজ্য ছিল। কিন্তু ওই কাঠামোটি খুব একটা কাজে না আসায় ২০০৩ সালে কোর রিস্ক ম্যানেজমেন্ট গাইডলাইন (সিআরএমজি) চালু করা হয়।

শীর্ষ সংবাদ:
বিদ্যুতে আলোকিত সারাদেশ         খালেদার স্বাস্থ্য ও তারেকের শাস্তি নিয়েই বিএনপির রাজনীতি আবর্তিত ॥ তথ্যমন্ত্রী         ওমিক্রন প্রতিরোধে সর্বাত্মক প্রস্তুতি         পাহাড় এখন আর দুর্গম নেই, হয়েছে অনেক উন্নত         রাজারবাগের পীর গোপালগঞ্জের নাম ‘গোলাপগঞ্জ’ লিখে তাদের পত্রিকায় প্রচার করে         দেশে করোনায় ৬ জনের মৃত্যু         মৈত্রী দিবস ঢাকা-দিল্লী যৌথভাবে পালন করবে         ৪২তম বিসিএসের স্বাস্থ্য পরীক্ষার তারিখ পরিবর্তন         চাকরির পেছনে না ছুটে উদ্যোক্তা হতে হবে         সোনার বাংলাদেশ গড়তে আমরা প্রতিজ্ঞাবদ্ধ : প্রধানমন্ত্রী         শুধুমাত্র চাকরির পেছনে না ছুটে উদ্যোক্তা হোন ॥ যুবসমাজকে প্রধানমন্ত্রী         দরজায় কড়া নাড়ছে করোনার নতুন ধরন ‘ওমিক্রন’: স্বাস্থ্য অধিদপ্তর         করোনা : দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৬         যারা বিদেশে আছেন তাদের এখন দেশে না আসাই ভালো ॥ স্বাস্থ্যমন্ত্রী         ষড়যন্ত্র প্রতিরোধে ঢাকায় লংমার্চ         সারাদেশের সিটির বাসেই হাফ ভাড়ার সিদ্ধান্ত         রাজনৈতিক দলের নেত্রীও স্কুল ড্রেস পরে আন্দোলন করছে ॥ তথ্যমন্ত্রী         মাদরাসা বোর্ডের আলিম পরীক্ষার তিন বিষয়ের তারিখ পরিবর্তন         শাহবাগে প্রতীকী লাশ নিয়ে শিক্ষার্থীদের মিছিল         র‍্যাবের হাতে গ্রেফতার ৫ জঙ্গীকে নীলফামারী থানায় হস্তান্তর