সোমবার ৪ মাঘ ১৪২৮, ১৭ জানুয়ারী ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা

আত্মঘাতী হামলা হাসপাতালে ॥ পাকিস্তানের কোয়েটায় নিহত ৭০ আহত ১২০

আত্মঘাতী হামলা হাসপাতালে ॥ পাকিস্তানের কোয়েটায় নিহত ৭০ আহত ১২০
  • আইনজীবী নেতা বিলাল কাজীর লাশ দেখতে আসা লোকজনের ওপর হামলা তেহরিক-ই তালেবানের একটি উপদলের দায় স্বীকার

নাজিম মাহমুদ ॥ জঙ্গী হামলায় রক্তাক্ত হলো স্বাধীনতার দাবিতে উত্তাল পাকিস্তানের বেলুচিস্তান। সোমবার রাজধানী কোয়েটার সিভিল হাসপাতালে জঙ্গী হামলায় আইনজীবী ও সাংবাদিকসহ অন্তত ৭০ জন নিহত ও ১২০ জন আহত হয়েছেন। নিহতদের মধ্যে ১৮ আইনজীবী ও দুজন সাংবাদিক। তবে নিহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে প্রাদেশিক স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

সোমবার সকালে কোয়েটায় বেলুচিস্তান বার এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি এ্যাডভোকেট বিলাল আনোয়ার কাজীকে গুলি করে হত্যা করে অজ্ঞাত বন্দুকধারীরা। তার মরদেহ হাসপাতালে নেয়া হয়। বিলাল কাজীর মৃত্যুতে শোক জানাতে সেখানে জড়ো হয়েছিলেন বহু আইনজীবী ও সাংবাদিক। এ সময় হাসপাতালটির জরুরী বিভাগের দরজায় আত্মঘাতী বোমা হামলা ও গুলিতে ৭০ জন নিহত হয়। এ ঘটনার দায় স্বীকার করেছে পাকিস্তানভিত্তিক জঙ্গী সংগঠন তেহরিক-ই তালেবানের (টিটিপি) একটি উপদল জামায়াত উর-আহরার। ই-মেল বার্তায় পাঠানো এক বিবৃতিতে জামায়াত উর-আহরারের মুখপাত্র এহসানউল্লাহ এহসান বলেন, আগামীতে এ ধরনের হামলা আরও চালানো হবে। এ বিষয়ে আমরা শীঘ্রই একটি ভিডিও প্রতিবেদন প্রকাশ করব।

কোয়েটার হাসপাতালে জঙ্গী হামলার নিন্দা জানিয়েছেন পাক প্রেসিডেন্ট মামনুন হোসাইন। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ ও সেনাপ্রধান রাহিল শরীফ। পরিদর্শন শেষে উভয়ই এ ঘটনা দ্রুত তদন্তের নির্দেশ দেন। এ ঘটনায় মঙ্গলবার দেশজুড়ে শোক পালনের ঘোষণা দিয়েছে পাকিস্তান সুপ্রীমকোর্ট বার এ্যাসোসিয়েশন। এ ঘটনায় আরও নিন্দা জানিয়েছেন বেলুচিস্তানের মুখ্যমন্ত্রী সানাউল্লাহ জাহরিসহ দেশটির সিনিয়র নেতারা। খবর ডন, এক্সপ্রেস ট্রিবিউন ও এএফপির।

নওয়াজ শরীফ হতাহতদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বলেন, যারা শান্তি বিঘিœত করবে তাদের কোন ছাড় দেয়া হবে না। এদের আইনের মুখোমুখি করা হবে। বেলুচিস্তানের স্বাস্থ্যমন্ত্রী রেহমাত সালেহ বালুচ বলেন, ‘অনেকেই গুরুতর আহত হয়েছেন। তাই নিহতের সংখ্যা বাড়তে পারে।’

প্রদেশের স্বরাষ্ট্র সচিব আকবর হারিফল বলেন, সোমবার সকালে পৃথক গুলিবর্ষণের ঘটনায় আইনজীবী বিলাল আনোয়ার কাজী নিহত হওয়ার পর সিভিল হাসপাতালে আইনজীবী ও সাংবাদিকরা জড়ো হন। একপর্যায়ে সেখানে বিস্ফোরণ ঘটে। তিনি বলেন, বিলাল আনোয়ার কাজী সকালে কর্মস্থলের উদ্দেশে বাড়ি থেকে বের হওয়ার পর দুই অজ্ঞাত বন্দুকধারী তাকে গুলি করে। হাসপাতালে হামলার নিন্দা জানিয়ে বেলুচিস্তানের মুখ্যমন্ত্রী সানাউল্লাহ জাহরি বলেন, কোয়েটায় হামলার পেছনে ভারতের গোয়েন্দা সংস্থা ‘র’ এর হাত রয়েছে। তিনি প্রাথমিক তদন্ত সম্পন্ন ও বিস্ফোরণের ধরন সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়ার আগেই গণমাধ্যমকে এ কথা বলেন। এরপর তিনি বলেন, এটা আত্মঘাতী হামলা হতে পারে। তবে পুলিশ ঘটনাটি তদন্ত করছে।

সিনিয়র পুলিশ কর্মকর্তা জহুর আহমেদ আফ্রিদি বলেন, নিহতদের বেশিরভাগই আইনজীবী। বিস্ফোরণে ‘আজ টিভি’র সাংবাদিক শেহজাদ আহমেদ ও ডন নিউজের মেহমুদ খান নিহত হয়েছেন। এছাড়া বিস্ফোরণে বেলুচিস্তান আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি বাজ মোহাম্মদ কাকারসহ বেশ কিছু আইনজীবী আহত হন। বিস্ফোরণের পর পুলিশ হাসপাতালের চারদিকে অবস্থান নেয় এবং এলাকাটি ঘিরে ফেলে। নগরীর হাসপাতালগুলোতে জরুরী অবস্থা ঘোষণা করা হয়েছে এবং আহতদের বেশ কয়েকজনকে চিকিৎসার জন্য বিভিন্ন হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

বম্ব ডিসপোজাল ইউনিটের প্রধান আব্দুর রাজ্জাক বলেন, আত্মঘাতী হামলাকারী তার শরীরের সঙ্গে প্রায় আট কেজি বিস্ফোরক বেঁধে হামলা চালায়। এতে বল-বিয়ারিং ও ধারালো বস্তু ছিল। বেলুচিস্তানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সরফরাজ বুগতি বলেন, ‘হাসপাতালে নিরাপত্তা ঘাটতি ছিল এবং আমি ব্যক্তিগতভাবে এটা খতিয়ে দেখছি।’ তিনি বলেন, হাসপাতালটি এর আগে কারও কাছ থেকে কখনও হুমকি পায়নি। কোয়েটায় বিস্ফোরণের পর পুলিশের মহাপরিদর্শক এডি খাজা সিন্ধুজুড়ে ব্যাপক সতর্কতা জারি করেছেন।

ফরিদুল্লাহ নামে ঘটনাস্থলে উপস্থিত এক সাংবাদিক বলেন, বোমাটি যখন বিস্ফোরিত হয়, তখন শতাধিক মানুষ কাজীর লাশ নিয়ে হাসপাতালের জরুরী বিভাগে ঢুকছিলেন। ঘটনাস্থলে উপস্থিত এএফপির এক সাংবাদিক বলেন, হামলার পর চারদিক কালোধোঁয়া ও ধুলিতে সবকিছু অন্ধকার হয়ে যায়। তারপর ঘটনাস্থলে গিয়ে আমরা শুধু মৃতদেহ দেখি আর মানুষের আর্তনাদ শুনতে পাই। চারদিকে শুধু রক্ত আর মানুষের দেহের বিভিন্ন টুকরো ছড়িয়ে ছিটিয়ে ছিল। এ ঘটনায় আহত এক আইনজীবী বলেন, আমার অনেক বন্ধু শহীদ হয়েছেন। আমরা মানবতার জন্য কাজ করছিলাম। যারা এ হামলা চালিয়েছে তারা পশুর সমান। তাদের কোন মানবতা নেই।

ইরান ও আফগানিস্তান সীমান্তে অবস্থিত পাকিস্তানের বেলুচিস্তান প্রদেশে প্রচুর গ্যাস ও তেলের মজুদ রয়েছে। তবে সেখানে ইসলামী জঙ্গী, সুন্নি ও শিয়াদের মধ্যে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গার ঘটনা প্রায়ই ঘটে। এছাড়া বিচ্ছিন্নতাবাদীদের দৌরাত্ম্যও রয়েছে।

বান কি মুনের নিন্দা ॥ কোয়েটার হাসপাতালে জঙ্গী হামলার নিন্দা জানিয়েছেন জাতিসংঘ মহাসচিব বান কি মুন। তিনি বলেন, শোকাহতদের লক্ষ্য করে আত্মঘাতী হামলা চালানো হয়েছে, যা খুবই বেদনাদায়ক।

বান কি মুনের মুখপাত্র ফারহান হক বলেন, শোকাহতদের টার্গেট করে বেসামরিক হাসপাতালে জঙ্গী হামলা খুবই বেদনাদায়ক। এ ঘটনায় জড়িতদের বিচারের আওতায় পাকিস্তানকে সর্বোচ্চ ব্যবস্থা নেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন বান কি মুন।

শীর্ষ সংবাদ: