ঢাকা, বাংলাদেশ   বুধবার ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ২৩ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

রাজশাহীতে এসএসসি’র প্রশ্ন বাইরে নিয়ে উত্তর তৈরীর সময় ১২ শিক্ষক আটক

প্রকাশিত: ২১:৩৯, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৬

রাজশাহীতে এসএসসি’র প্রশ্ন বাইরে নিয়ে উত্তর তৈরীর সময় ১২ শিক্ষক আটক

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী ॥ রাজশাহী বাঘা উপজেলার সদরের বাঘা উচ্চ বিদ্যালয়ে চলমান এসএসসি পরীক্ষার গণিত বিষয়ের প্রশ্ন বাইরে নিয়ে এসে উত্তরপত্র তৈরী করে পরীক্ষার্থীদের কাছে সরবরাহের চেষ্টাকালে বিভিন্ন স্কুলের দুই প্রধান শিক্ষকসহ ১২ শিক্ষককে আটক করা হয়েছে। পরে তাদের বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা দিয়ে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। সোমবার দুপুরে গণিত বিষয়ের পরীক্ষা চলাকালীন এ ঘটনা ঘটে। আটক শিক্ষকরা হলেন, উপজেলার জোতনসি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জিন্নাত আলী, বালিয়াপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আকরাম আলী, সরেরহাট স্কুলের সহকারী শিক্ষক মাইনুল ইসলাম, জোতনসির জিল্লুর রহমান, পলাশী পতেপুরের রফিকুল ইসলাম, একই স্কুলের রফিক উদ্দিন, চন্ডিপুর স্কুলের আখতারুজ্জামান ও শাপলা খাতুন, তেপুকুরিয়া স্কুলের সারোয়ার হোসেন ও সাকিব উদ্দিন এবং বারোখাদিয়া স্কুলের জাহাঙ্গীর হোসেন ও জিল্লুর রহমান। পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বাঘা উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে এসএসসির পরীক্ষা শুরু হওয়ার পরে পাশের একটি সেচ্চাসেবী সংগঠন ‘প্রচেষ্টা-৯২’র এর অফিসে গিয়ে অভিযুক্ত ১২ জন শিক্ষক মিলে উত্তরপত্র দেখে দেখে নকল তৈরী করছিলেন। এর আগে পরীক্ষা কেন্দ্র থেকে উত্তরপত্র সংগ্রহ করে নিয়ে আসা হয় সেখানে। সেখানে প্রশ্নের উত্তর তৈরি করে নিজ নিজ শিক্ষার্থীদের হাতে হাতে পৌছে দেয়ার আগেই গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) পুলিশ নিয়ে পুরো এলাকা ঘিরে হাতেনাতে নকলসহ ওই ১২ শিক্ষককে ধরে ফেলে। পরে সেখান থেকে তাদের থানায় নেয়া হয়। পরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ের নির্দেশে সবার বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলা রেকর্ড করা হয়। উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট শিমুল আক্তার জানান হাতেনাতে আটকের পর সবার বিরুদ্ধে মামলা দিয়ে থানায় সোপর্দ করা হয়েছে। পুলিশ জানায় আটককৃতরা বিভিন্ন স্কুলের শিক্ষক। শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে টাকার বিনিময়ে এবার পরীক্ষা শুরুর পর থেকেই একান্ড করে আসছিলো। এর আগে ইংরেজি বিষয়ের পরীক্ষাতেও একই কায়দায় তারা পরীক্ষার্থীদের কাছে নকল সরবরাহ করেছে বলে স্থানীয় সূত্র জানিয়েছে।
monarchmart
monarchmart