মেঘলা, তাপমাত্রা ৩১.১ °C
 
২৪ আগস্ট ২০১৭, ৯ ভাদ্র ১৪২৪, বৃহস্পতিবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
সর্বশেষ

ফের গণভোট চেয়ে পিটিশনে ৩০ লাখ মানুষের স্বাক্ষর ॥ লেক্সিটের পক্ষে লন্ডনবাসীর প্রচার শুরু

প্রকাশিত : ২৭ জুন ২০১৬
  • ব্রিটেন উত্তাল

ব্রিটেন এখন উত্তাল। ইউরোপীয় ইউনিয়নে (ইইউ) থাকা না থাকা নিয়ে দেশটিতে ফের গণভোট আয়োজনের পক্ষে গত সপ্তাহে পার্লামেন্ট ওয়েবসাইটে আহ্বান জানানো একটি পিটিশনে প্রায় ৩০ লাখ মানুষ স্বাক্ষর করেছে। অপর এক পিটিশনে লন্ডনের মেয়র সাদিক খানকে স্বাধীনতা ঘোষণা করে ইইউয়ের সঙ্গে যোগ দেয়ার আহ্বান জানানো হয়। ওই পিটিশনে এক লাখ ৩০ হাজারের বেশি মানুষ স্বাক্ষর করেছে। এদিকে লন্ডনবাসী শনিবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্রেক্সিটের পর লেক্সিটের (লন্ডনের ব্রিটেন ত্যাগ) পক্ষে প্রচার শুরু করেছে। খবর টেলিগ্রাফ ও এএফপির।

উইলিয়াম অলিভার হেলি নামে এক ইংলিশ ডেমোক্র্যাট কর্মী অনলাইনে ওই পিটিশন করেছেন। তিনি পিটিশনে বলেছেন, আমরা নিম্নস্বাক্ষরকারীরা যুক্তরাজ্য সরকারের কাছে এমন একটি আইন জারি করার আহ্বান জানাচ্ছি, যাতে গণভোটে থাকা বা না থাকার পক্ষে ৬০ শতাংশের কম ভোট পড়লে এবং ভোট পড়ার হার ৭৫ শতাংশের কম হলে আবারও গণভোট হবে। আবেদনটিতে ২৪ ঘণ্টার কম সময়ের মধ্যে ১৩ লাখ ৩২ হাজার ৭৬৯ জন স্বাক্ষর করেন। আগের যে কোন সময়ের তুলনায় কোন পিটিশনে একইসঙ্গে এতো মানুষ অংশ নেয়নি জানিয়ে হাউস অফ কমন্সের এক মুখপাত্র বলেন, এতে পিটিশন সাইটটি সাময়িকভাবে বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। যুক্তরাজ্যের পার্লামেন্টের পিটিশন ব্যবস্থা তদারকিতে একটি কমিটি রয়েছে। কোন পিটিশনে এক লাখের বেশি স্বাক্ষর হলে সেটা হাউস অব কমন্সে উপস্থাপন এবং তা নিয়ে বিতর্ক হয়। মঙ্গলবার পিটিশন কমিটির বৈঠকে বসার কথা রয়েছে। এদিকে দেশটির সিনিয়র এক লেবার এমপি তার সহকর্মী এমপিদের এই গণভোটের ফলাফল উপেক্ষা করার আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন, এই ভোট পরামর্শমূলক, পার্লামেন্টের জন্য বাধ্যবাধক নয়। তিনি টুইটারে লিখেছেন, আমাদের এই পাগলামি বন্ধ করতে হবে এবং ভোটের মাধ্যমে এই দুঃস্বপ্নের অবসান ঘটাতে হবে। আমাদের সার্বভৌম পার্লামেন্টকে এখনই ভোটের মাধ্যমে সিদ্ধান্ত নিতে হবে যে, আমরা ইইউ থেকে বের হয়ে যাব কিনা। জেমস ও’মেলি নামে এক ফ্রিল্যান্স লেখক অপর ওই পিটিশনটি করেছেন। পিটিশনে তিনি বলেছেন, লন্ডন একটি আন্তর্জাতিক শহর এবং আমরা ইউরোপের কেন্দ্রস্থল হয়ে থাকতে চাই। তিনি এক টুইটে বলেছেন, এই পিটিশনে মেয়র সাদিক খানকে লন্ডনের স্বাধীনতা ঘোষণা করে শেনঝেন জোনের সদস্যপদসহ ইইউতে যোগ দেয়ার আহ্বান জানানো হচ্ছে। মেয়র সাদিক আপনি কি প্রেসিডেন্ট সাদিক হতেই পছন্দ করবেন না? এটি হতে দিন। লন্ডন সিঙ্গাপুরের মতো নগররাষ্ট্র হবে এমন ধারণা নিয়ে অনলাইনে জোর প্রচার চালানো হচ্ছে। মার্ক মিডলটন নামে এক আর্কিটেক্ট টুইটারে বলেছেন, আমি লেক্সিট চাইছি। তবে মেয়র সাদিক এই ধারণা প্রত্যাখ্যান করেছেন। তবে তিনি জোর দিয়ে বলেছেন, ব্রিটেনের ইইউ ত্যাগ নিয়ে আলোচনার সময় অবশ্যই রাজধানীর কথা শুনতে হবে।

প্রকাশিত : ২৭ জুন ২০১৬

২৭/০৬/২০১৬ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন


শীর্ষ সংবাদ:
ঘূর্ণিঝড়, পাহাড় ধস, বন্যা ॥ দুর্যোগ পিছু ছাড়ছে না || বিএনপি-জামায়াতের নৈরাজ্যের শিকার পরিবারগুলোকে প্রধানমন্ত্রীর অনুদান || বিটি প্রযুক্তির ব্যবহার দেশকে কৃষিতে ব্যাপক সাফল্য এনে দিয়েছে || রিজার্ভের চুরি যাওয়া অর্থ পুরো ফেরত পাওয়া যাবে || গ্রেনেড হামলা মামলার পলাতক ১৮ আসামিকে ফেরত আনার চেষ্টা || অনেক সড়ক মহাসড়ক পানির নিচে মহাদুর্ভোগের শঙ্কা || খাদ্য প্রক্রিয়াজাত শিল্পে ’২১ সালের মধ্যে বিলিয়ন ডলার রফতানি || নূর হোসেনের দম্ভোক্তি উবে গেছে, কালো মেঘে ছেয়েছে মুখ || জবাবদিহিতা না থাকা ও রাজনৈতিক প্রভাবে পাউবো প্রকল্পে দুর্নীতি || রোহিঙ্গা সঙ্কট সমাধানে আজ চূড়ান্ত রিপোর্ট দিচ্ছে আনান কমিশন ||