ঢাকা, বাংলাদেশ   শনিবার ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ২৯ চৈত্র ১৪৩০

মিরপুর শেরেবাংলায় শিরোপা লড়াই শুরু আজ সন্ধ্যা ৬টা ৩০ মিনিটে

কুমিল্লার পঞ্চম নাকি বরিশালের প্রথম?

মো. মামুন রশীদ

প্রকাশিত: ০০:৪৬, ১ মার্চ ২০২৪

কুমিল্লার পঞ্চম নাকি বরিশালের প্রথম?

ট্রফির জন্য লড়াইটা শুরু হয়েছে ৪১ দিন আগে

ট্রফির জন্য লড়াইটা শুরু হয়েছে ৪১ দিন আগে। প্রাথমিক রাউন্ডের ৪২ ম্যাচ এবং প্লে-অফে ৩টি ম্যাচ শেষে আজ ৪৬তম ও চূড়ান্ত ম্যাচ। সেই ম্যাচেই হবে ফয়সালা- কে হবে দশম বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) চ্যাম্পিয়ন। সফলতম দল কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স এবার টানা তৃতীয়বার ফাইনালে উঠেছে। 
সবমিলিয়ে ৪ বার শিরোপা জেতা দলটি এবার আরেকটি শিরোপার জন্যই নামবে আজ। আর তৃতীয়বার ফাইনালে ওঠা বরিশালের কোনো ফ্র্যাঞ্চাইজি এখন পর্যন্ত চ্যাম্পিয়ন হতে পারেনি। এবার তামিম ইকবালের নেতৃত্বে সেই আক্ষেপ ঘোঁচানোর মিশন ফরচুন বরিশালের। যদিও ফরচুন বরিশাল নামে দ্বিতীয়বার ফাইনাল খেলবে আজ তারা। ২০১৫ সালে বরিশাল বুলস হিসেবে এবং ২০২২ সালে ফরচুন বরিশাল হিসেবে ফাইনালে খেলে হেরেছে। দুবারই ফাইনালে তাদের হতাশায় ডুবিয়েছে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। তৃতীয় প্রচেষ্টায় এবার শিরোপা জিততে মুখিয়ে বরিশাল। ম্যাচটি সন্ধ্যা ৬টা ৩০ মিনিটে মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে মাঠে গড়াবে।
সেরা দুটি দলই ফাইনালে উঠেছে নিঃসন্দেহে। এবার বিদেশী বড় তারকাদের নিয়মিত দেখা যায়নি বিপিএলে। বড় বড় তারকারা খেলতে আসলেও তারা বেশি ম্যাচ খেলতে পারেননি আন্তর্জাতিক ব্যস্ততা এবং একই সময়ে অন্য আরও ফ্র্যাঞ্চাইজি টি২০ আসর চলমান থাকার কারণে। তবে কুমিল্লা সবসময়ই বড় তারকাদের দলে ভিড়িয়ে চমক দেখিয়েছে। এবারও তার ব্যতিক্রম হয়নি। তাদের দলে আছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের দুই মহাতারকা আন্দ্রে রাসেল ও সুনিল নারাইন।

এ ছাড়া ইংল্যান্ডের অলরাউন্ডার মঈন আলী, ক্যারিবীয় তারকা জনসন চার্লস আছেন এবার ফাইনালে। এর পাশাপাশি দেশী তারকাদের মধ্যে অধিনায়ক লিটন কুমার দাস, তাওহিদ হৃদয় আছেন। তবে মাথায় আঘাত পাওয়া মুস্তাফিজুর রহমান ফাইনালে খেলবেন কিনা সেটি নিশ্চিত নয়। কিন্তু বাঁহাতি এই পেসার ইতোমধ্যেই সুস্থ হয়ে উঠেছেন। তিনি না খেলতে পারলেও বেশ ভালো ফর্মে থাকা মুশফিক হাসানের ওপরই শুধু ভরসা রাখতে হবে। পাশাপাশি ম্যাথু ফোর্ড, রাসেলের পেসে আস্থা খুঁজতে হবে। এদিক থেকে পেস আক্রমণে কিছুটা দুর্বলতাই থাকছে কুমিল্লার। অন্যদিকে বরিশালও এবার বিদেশী তারকা দলে ভেড়ানোর ক্ষেত্রে চমক দেখিয়েছে। 
বরিশালের জন্য ট্রাম্প কার্ড হয়ে গেছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের অলরাউন্ডার কাইল মেয়ার্স। ব্যাটে-বলে ধারাবাহিকভাবে তিনি দলকে কার্যকর অনেক কিছুই উপহার দিয়েছেন। আর প্লে-অফ রাউন্ড থেকে যোগ হয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার তারকা ডেভিড মিলার। ফাইনালে তার খেলার কথা না থাকলেও বরিশালের কর্তৃপক্ষ তাকে রেখে দিতে পেরেছে এবং নিশ্চিত করেছে শিরোপা লড়াইয়ে থাকছেন মিলার।

ইংলিশ অলরাউন্ডার জেমস ফুলারও তার কার্যকারিতা প্রমাণ করেছেন। তবে দেশী তারকাদের শক্তিতে বলীয়ান বরিশাল। অধিনায়ক তামিম ছাড়াও আছেন অভিজ্ঞ মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, মুশফিকুর রহিম, সৌম্য সরকার, মেহেদি হাসান মিরাজ। এ ছাড়া দীর্ঘ সময় ইনজুরিতে বাইরে থাকা পেস অলরাউন্ডার মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন দুর্দান্ত ফর্মে আছেন। 
প্রাথমিক রাউন্ডে কুমিল্লা-বরিশাল দুইবারের সাক্ষাতে একটি করে জয় আছে উভয় দলের। দুটি লড়াই হয়েছে উত্তেজনাপূর্ণ। প্রথম লড়াইয়ে কুমিল্লা ১ বল বাকি থাকতে ৪ উইকেটে এবং দ্বিতীয় লড়াইয়ে বরিশাল ২ বল বাকি থাকতে ৬ উইকেটে জিতেছে। এবার ফাইনালে বিজয়ীরাই শেষ পর্যন্ত এবারের মতো শ্রেষ্ঠত্ব পাবে। যদিও বিপিএল ইতিহাস ঘাটলে ফাইনালে কুমিল্লার সঙ্গে পেরে ওঠেনি কখনো বরিশাল।

প্রথমবার ২০১৫ সালে ফাইনালে ওঠে বরিশালের ফ্র্যাঞ্চাইজি ‘বুলস’ এবং কুমিল্লার কাছে হেরে যায় ৩ উইকেটে। ২০২২ সালে ফরচুন বরিশাল ফাইনালে ওঠে এবং এবারও কুমিল্লার কাছে হেরে যায় চরম হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর মাত্র ১ রানে। সেই হারের ক্ষত এখনো ভোলেনি বরিশাল। লিটন এবার অধিনায়ক হিসেবে প্রথমবার বিপিএলের ফাইনাল খেলবেন। এর আগে তিনি ২০১৫ সালে কুমিল্লা, ২০২০ সালে রাজশাহী রয়্যালস এবং ২০২২ ও ২০২৩ সালে কুমিল্লার খেলোয়াড় হিসেবে ফাইনাল খেলে শিরোপা জিতেছেন।

খেলোয়াড় হিসেবে ৪ বার ফাইনাল খেলে প্রতিবারই চ্যাম্পিয়ন হওয়া সৌভাগ্যবান লিটনের এবার অধিনায়ক হিসেবে প্রথম শিরোপা জেতার সুযোগ। অন্যদিকে অধিনায়ক হিসেবে তামিমেরও এটি প্রথম বিপিএল ফাইনাল। ২০১৯ আসরে কুমিল্লার হয়ে প্রথম ও সর্বশেষ ফাইনাল খেলে শিরোপ জিতেছেন তিনি। তবে সেই দলটির অধিনায়ক ছিলেন ইমরুল কায়েস। এবার তামিমের অধিনায়ক হিসেবে শিরোপা জেতার প্রথম সুযোগ। খেলোয়াড় বা অধিনায়ক হিসেবে মুশফিক কিংবা মাহমুদুল্লাহ বিপিএল ট্রফি জিততে পারেননি। 
মাহমুদুল্লাহ অধিনায়ক হিসেবে ২০১৩ সালে চিটাগং কিংস ও ২০১৫ সালে বরিশাল বুলসের হয়ে ফাইনাল খেলে হেরে গেছেন। মুশফিক খুলনা টাইগার্সের অধিনায়ক হিসেবে ২০২০ সালের ফাইনালে হেরেছেন। এবার তামিমের নেতৃত্বে বরিশালের হয়ে শিরোপা জেতার সুযোগ এ দুই অভিজ্ঞ তারকার। তবে সর্বাধিক ৪ বার (২০১৫, ২০১৯, ২০২২ ও ২০২৩) শিরোপা জেতা কুমিল্লার সঙ্গে ফাইনালে জেতা কঠিন। সেটি বরিশাল দুইবার এবং একবার করে সিলেট স্ট্রাইকার্স ও ঢাকা ডায়নামাইটস পারেনি। ফাইনালে উঠে কখনোই হারেনি কুমিল্লা। মাঝে এক আসর বাদ দিয়ে এবার টানা তৃতীয়বার ফাইনাল খেলবে তারা এবং শিরোপা জয়ের হ্যাটট্রিক করতেই নামবে।

×