ঢাকা, বাংলাদেশ   বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৬ ফাল্গুন ১৪৩০

আইসিসির মাসসেরা হেড

প্রকাশিত: ১৬:৫৩, ১১ ডিসেম্বর ২০২৩

আইসিসির মাসসেরা হেড

ট্রাভিস হেড

২০২৩ বিশ্বকাপের আসরের মাঝপথে যোগ দিয়েও সব আলো নিজের দিকে টেনে নিয়েছেন এই অজি ব্যাটার। দলকে জিতিয়েছেন কাঙ্ক্ষিত শিরোপা। বিশ্বকাপের পরেও নিজের সাফল্যের মুকুটে আরেকটি পালক যোগ করলেন ট্রাভিস হেড।

ডেভিড ওয়ার্নারের পর (২০২১ সালের নভেম্বর) মাত্র দ্বিতীয় অস্ট্রেলিয়ান ক্রিকেটার হিসেবে আইসিসির মাস সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হয়েছেন হেড। তবে গত নভেম্ভরে সেরা হওয়ার লড়াইয়ে তাকে কড়া টক্কর দিয়েছেন সতীর্থ গ্লেন ম্যাক্সওয়েল এবং ভারতীয় পেসার মোহাম্মদ শামি। বিশ্বকাপে 'ইতিহাসেরই সেরা' ডাবল সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন ম্যাক্সওয়েল। আর শামি দেরিতে সুযোগ পেয়েও 'ক্যারিয়ারের সেরা' পারফরম্যান্স উপহার দিয়েছেন।  

কিন্তু মাত্র দুই ম্যাচের পারফরম্যান্সের জোরে ম্যাক্সওয়েল ও শামিকে ছাপিয়ে গেছেন হেড। ওয়ানডেতে গত মাসে ২২০ রান করেছেন এই অজি ব্যাটার। এর মধ্যে ম্যাচ জেতানো সেঞ্চুরি ও হাফ সেঞ্চুরিও আছে এর মধ্যে। কিন্তু দুইটি ইনিংসই অস্ট্রেলিয়ার সবচেয়ে কঠিন মুহূর্তে খেলেছেন, সেমিফাইনাল ও ফাইনালে। দুটি ম্যাচেরই সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হয়েছেন তিনি।

সেমিফাইনালে শুরুতে বল হাতে ভূমিকা রাখেন হেড। দক্ষিণ আফ্রিকার হেইনরিখ ক্লাসেন এবং মার্কো ইয়েনসেন ইনিংস মেরামত করছিলেন দারুণভাবে। ঠিক ওই সময় গুরুত্বপূর্ণ উইকেট দুটি তুলে নেন হেড। এর প্রভাবে কোনোমতে মাঝারি সংগ্রহ দাঁড় করাতে পারে প্রোটিয়ারা। পরে ব্যাট হাতে চাপের মুহূর্তে ৪৮ বলে ৬২ রানের ঝোড়ো এক ইনিংস খেলেন হেড। এরপর ফাইনালে ভারতের বিপক্ষে, দুর্দান্ত এক ক্যাচে ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দেন তিনি। ম্যাক্সওয়েলের বলে উল্টোদিকে দৌড়ে ডাইভ দিয়ে এক অসাধারণ ক্যাচ নেন হেড। আর আতে বিদায় নিতে হয় দুর্দান্ত ফর্মে থাকা ভারতীয় ওপেনার রোহিত শর্মাকে।

২৪১ রানের লক্ষ্য তাড়ায় ১২০ বলে ১৩৭ রানের অসাধারণ এক ইনিংস খেলে অস্ট্রেলিয়াকে ৬ উইকেটে জিততে সহায়তা করেন হেড। এক পর্যায়ে ৪৭ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলেছিল অজিরা। তবে চাপের মুখে ঠাণ্ডা মাথায় নতুন বলের মোকাবিলা করেন হেড। বল পুরনো হতেই হাত খুলতে শুরু করেন তিনি। ভারতীয় বোলারদের ওপর ছড়ি ঘোরানোর পথে হাঁকান ১৫টি চার ও ৪টি ছক্কা।

 

 

এস

×