ঢাকা, বাংলাদেশ   বুধবার ২২ মে ২০২৪, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

মধ্য বাড্ডায় গলায় ফাঁস দিয়ে শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা 

প্রকাশিত: ১১:৫৪, ২৩ মার্চ ২০২৩; আপডেট: ১২:০১, ২৩ মার্চ ২০২৩

মধ্য বাড্ডায় গলায় ফাঁস দিয়ে শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা 

আত্মহত্যা 

রাজধানীর মধ্য বাড্ডায় একটি বাসায় গলায় ফাঁস দিয়ে ইমতিয়াজ আহমেদ আদর (২২) নামে এক বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থী আত্মহত্যা করেছেন।

বৃহস্পতিবার (২৩ মার্চ) ভোর ৫টার দিকে মধ্য বাড্ডা পোস্ট অফিস গলির একটি বাসায় এই ঘটনা ঘটে। অচেতন অবস্থায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক সকাল ৮টার দিকে তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

আদরের ফুপাতো ভাই মো. রিফাত জানান, মধ্য বাড্ডায় একটি ব্যাসায় স্ত্রী নুসরাত সুলতানাকে নিয়ে থাকতেন আদর। উত্তরার আইইউবিএটি ইউনিভার্সিটির সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের ৪র্থ সেমিস্টারের শিক্ষার্থী ছিলেন তিনি। তার বাবা-মা গ্রামের বাড়ি ভোলা সদর উপজেলায় থাকেন।

তিনি জানান, ভোরে খবর পান, বাসার বাথরুমের গ্রিলের সঙ্গে গলায় ফাঁস দিয়েছেন আদর। তার স্ত্রী তাকে ঢাকা মেডিকেলে নিয়ে গেছেন। পরবর্তিতে হাসপাতালে গিয়ে আদরের মরদেহ দেখতে পান তারা। 

জানা যায়, কয়েক মাস আগে পরিবারকে না জানিয়ে একাই বিয়ে করেছেন আদর। বিয়ের পর তার স্ত্রীকে মেনে না নেয়ায় হতাশাগ্রস্ত ছিলেন। এই কারণে আদর ভোরে স্ত্রীকে ঘুমন্ত অবস্থায় রেখে গলায় ফাঁস দিয়েছেন বলে পুলিশের কাছে দাবি করেছেন স্ত্রী নুসরাত সুলতানা।

ঢামেক হাসপাতাল পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ (ইন্সপেক্টর) মো. বাচ্চু মিয়া মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, মরদেহটি ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে রাখা হয়েছে।

এমএইচ

×