ঢাকা, বাংলাদেশ   বৃহস্পতিবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৩ আশ্বিন ১৪২৯

এই গরমে

সালমা আহমেদ

প্রকাশিত: ০১:৪৩, ১২ সেপ্টেম্বর ২০২২

এই গরমে

.

দাবদাহ চারপাশে! কথাটা শুনলেই চোখ কপালে উঠে যায়! বাস্তবতাটা আসলেই তাইছোট্টবেলায় দাদির মুখে শুনেছি জ্যৈষ্ঠ হচ্ছে জেঠামাসতীব্র গরমের জন্য এমন বলা হতোআর ভাদ্রের গরমে তাল পাকেমানে এর  তেজও কোন অংশে কম নয়এই যে গা চিটচিটে ভ্যাপসা গরম, অতিষ্ঠ জনজীবননা ঘরে শান্তি, না বাইরেমাঝে মাঝে একটু বৃষ্টি হলেও তাতে গরম আরও বেড়ে যায়যাদের নিত্যদিন বাইরে যেতেই হয়, তাদের কষ্ট সীমাহীনঘরে যেনতেনভাবে থাকা গেলেও, স্কুল-কলেজ, অফিস-আদালত বা বিশেষ কোথাও গেলে ভাল পোশাক পরতেই হয়তাই সেক্ষেত্রে একটু ঢিলেঢালা পোশাক পরাই শ্রেয়এই গরমে প্রচুর ঘাম হয়রোদে পুড়ে, ঘেমে-নেয়ে শরীরে দুর্গন্ধ ছড়ায়বাসে চড়লে তো কথাই নেইঅনেক সময় নিজের গায়ের গন্ধ নিজে বুঝা যায় না

তাই বাসা থেকে বের হওয়ার আগে গোসল করে নেয়া উত্তমএতে দিনের শুরুটা আরামের হয়এরপর ডিওডোরেন্ট ব্যবহার করবেনবাজারে বিভিন্ন রকম ডিওডোরেন্ট পাওয়া যায়নিজের পছন্দমতো সুগন্ধ দেখে কিনে নিতে পারেনবডি স্প্রে, পারফিউম, পাউডার, ডিওডোরেন্ট যে কোনটা ব্যবহার করতে পারেনরাতে গায়ে পাউডার মেখে ঘুমালে আরাম পাবেনঠা-ার সমস্যা না থাকলে সন্ধ্যায় বাসায় ফিরে বা রাতে ঘুমানোর আগে আরেকবার গোসলও করে নিতে পারেনতবে গোসলের পর চুল অবশ্যই ভাল করে শুকিয়ে নেবেন, বিশেষ করে যাদের চুল লম্বানা হয় ভেজা চুল ঘামে আঠালো হয়ে যায়আর পোশাকের মধ্যে এ সময় ছেলে-মেয়ে, ছোট-বড় সবার জন্য সুতিই আরামএখন সবাই ফ্যাশন সচেতনতাই যে কোন শপিং মলে ঋতুভিত্তিক পোশাক পাওয়াবুটিক শপগুলো এদিক দিয়ে অনেক এগিয়ে আছেএমনকি পার্টিতে পড়ার মতো সুতি পোশাকও রয়েছেছেলেদের জন্য এ সময় হাফ হাতা গেঞ্জি, শার্ট, টি-শার্ট, পোলো শার্ট আরামদায়কচেক, ব্লক, বাটিকের কাপড় কিনে বানিয়েও নিতে পারেন হাফ হাতা শার্ট বা ফতুয়াঅফিস ছাড়া যে কোন জায়গায় ফতুয়া পড়তে পারেনঅনেকে শর্ট পাঞ্জাবিও পরেনপায়ে মুজা পরা আপাতত বাদ দিতে পারেনএতে গরম কম লাগবেআর যাদের মোজা ছাড়া চলে না, তারা হাফ মোজা পরতে পারেনশুধু পায়ের নিচটা ঢাকা থাকবেরোদ থেকে বাঁচতে সানগ্লাস, ক্যাপ ব্যবহার করতে পারেনযদি ছাতা ব্যবহার করতে না চান

মেয়েদের পোশাকের শেষ নেইবিভিন্ন রকম কুর্তি, কামিজ, পাঞ্জাবি, কাফতান, টপস ইত্যাদি অনেক কিছুই রয়েছেযারা জামা বা শাড়িতে অভ্যস্ত তারা সুতি, লিনেন, লোন, জর্জেট, ভিসকস ইত্যাদি কাপড় বেছে নিতে পারেনআর বের হওয়ার আগে অবশ্যই সানস্কিন বা সানব্লক ব্যবহার করবেনচুল বেঁধে নিবেনযারা হিজাব পরেন এই গরমে নরম সুতি বা জর্জেটের হিজাব বেছে নিনবোরকা পরলে চেরি কাপড়ের বোরকা আরামদায়কআর অবশ্যই প্রচুর পানি এবং পানীয় পান করবেনকোল্ডড্রিঙ্কস এড়িয়ে চলবেনতার চেয়ে ডাব খেতে পারেনঘরে তৈরি বিভিন্নরকম ফলের জুস খেতে পারেনযাদের উচ্চ রক্তচাপ নেই, তারা মাঝে মাঝে একটা স্যালাইনও খেতে পারেনগরমে ঘামের মাধ্যমে শরীর থেকে যে পরিমাণ পানি বের হয়ে যায়, এসব পানীয় তার ঘাটতি পূরণ করবেআর চেষ্টা করবেন রোদ এড়িয়ে চলতেযাদের অফিস নেই, তারা জরুরী প্রয়োজন ছাড়া বের হবেন না