ঢাকা, বাংলাদেশ   শনিবার ২০ এপ্রিল ২০২৪, ৬ বৈশাখ ১৪৩১

চয়নিকা-বুবলীকে নিয়ে বোমা ফাটালেন পরীমণি 

প্রকাশিত: ২০:২৯, ২ এপ্রিল ২০২৪; আপডেট: ২০:৫৪, ২ এপ্রিল ২০২৪

চয়নিকা-বুবলীকে নিয়ে বোমা ফাটালেন পরীমণি 

বুবলী-চয়নিকা চৌধুরী-পরীমণি

ঢাকাই চলচ্চিত্রের আলোচিত চিত্রনায়িকা পরীমণি বর্তমানে ‘ফেলু বক্সী’ সিনেমার কাজ নিয়ে কলকাতায় অবস্থান করছেন। এই সিনেমার মাধ্যমে টালিউড ইন্ডাস্ট্রিতে অভিষেক হতে যাচ্ছে তার। সেখান থেকেই জানালেন―তিনি নাকি বেয়াদব, আর সেই বেয়াদবী করেই বাকি জীবন কাটিয়ে দিতে চান। মূলত নিজের দুঃখ প্রকাশ করেন তিনি। কারণ, তাকে অকারণেই নাকি অনেকে ভুল বোঝেন বলেও জানান ঢালিউড নায়িকা।

সম্প্রতি ভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যমকে দেয়া সাক্ষাৎকারে ক্যারিয়ার ও ব্যক্তিজীবনের নানা বিষয় নিয়ে কথা বলেছেন পরীমণি। আর সেই সাক্ষাৎকারেই এসব কথা বলেন আলোচিত এ নায়িকা।আলাপচারিতায় উঠে আসে কয়েকদিন আগে চিত্রনায়িকা শবনম বুবলীর সঙ্গে ভার্চ্যুয়ালি দ্বন্দ্বের বিষয়। কয়েকদিন আগেই বুবলীর ফেসবুকে পোস্ট করা ছেলে শেহজাদ খান বীরের জন্মদিনের ভিডিও শুভেচ্ছা বার্তা নিয়ে ভ্যার্চুয়ালি যুদ্ধে জড়িয়েছিলেন পরীণি। এমনকী পরবর্তীতে নির্মাতা চয়নিকা চৌধুরীকে ইঙ্গিত করে ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাসও দিয়েছিলেন পরীমণি।

এ প্রসঙ্গে পরীমণি বলেন, আমি রেগে যাইনি। প্রতিটি মানুষের আবেগ প্রকাশের ধরন আলাদা। বিতর্কের বিষয় ছিল জন্মদিনের ভিডিও নিয়ে। আমার ছেলের এক বছরের জন্মদিনে যে ভিডিও বানিয়েছিলাম, সেটা ছিল আমার পক্ষ থেকে একটি উপহার। যা আমি ছেলের দুই বা তিন বছরের জন্মদিনে করব না। আমার ছেলে হওয়ার পর থেকে প্রতি মাসে ওর জন্মদিন উদযাপন করেছি। আর ভিডিওটি ছিল আবেগের বহিঃপ্রকাশ।বুবলী প্রসঙ্গে পরীমণি বলেন, ওর ছেলের বয়স চার বছর। মাঝের এতবছরে মনে হলো না? আমি যখন আমার অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার খবর জানতে পারি, তার তিন মিনিটের মধ্যে এ কথা ভক্ত-শুভাকাঙ্ক্ষীদের সঙ্গে ভাগ করে নিয়েছি। আমি বেবিবাম্পের ছবিও দিয়েছি। হঠাৎ করেই আমি বেবিবাম্পের ছবি নিয়ে হাজির হইনি। আমার আবেগ হঠাৎ করেই আসেনি। সে অন্যভাবে অন্য কিছু করতে পারতো। তার অবশ্যই সুন্দর একটা জার্নি রয়েছে। বা তিনি বলতে পারতেন, এই ধরনটা সোজা মনে হয়েছে, সেখান থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে করেছেন।

পরীমণি বলেন, তিনি সেটা না করে আমার গলা টিপে ধরার মতো অবস্থা করলেন, কেন আমি বললাম? মানুষ আমাকে তার পোস্টে ট্যাগ করার পর জানতে পেরেছি বিষয়টি। আমি মুখ খুলতেই আবার আমার দিকে তেড়ে এলেন। শুনেছি তিনি নাকি শিক্ষিত। শিক্ষিত হয়ে এমন কাজ করেছে, আবার সেটার জন্য লড়াইও করছো? এটা তো শোভনীয় নয়।

এছাড়া নির্মাতা চয়নিকা চৌধুরী সম্পর্কে পরীমণি বলেন, আমি কাউকে উদ্দেশ্য করে কিছু বলিনি। তিনি হয়তো এসে আগে আমাকে জিজ্ঞাস করবেন, কেন বললাম। তবে যাইহোক, খুব সিরিয়াস কিছু নয়। সবই মজা করে বললাম।

এস

×