রবিবার ২ কার্তিক ১৪২৮, ১৭ অক্টোবর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

কলাপাড়ায় পুলিশি ধাওয়ায় জেলের মৃত্যু নিয়ে তোলপাড়

কলাপাড়ায় পুলিশি ধাওয়ায় জেলের মৃত্যু নিয়ে তোলপাড়
  • ধাওয়া করে পেটানোর অভিযোগ

নিজস্ব সংবাদদাতা, কলাপাড়া, পটুয়াখালী ॥ কলাপাড়ায় রাবনাবাদ পাড়ের চরবালিয়াতলীতে পুলিশি ধাওয়ায় জেলে সুজন হাওলাদারের (৩০) মৃত্যুকে কেন্দ্র করে তোলপাড় চলছে। জেলেসহ স্থানীয় শত শত বিক্ষুব্ধ মানুষ সুজনকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ দাবি করে নৌপুলিশকে মঙ্গলবার সকাল ১০টার পর থেকে অবরুদ্ধ রাখে। বিরাজ করে চরম উত্তেজনা। কলাপাড়ার থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে স্থানীয় চেয়ারম্যান ও মেম্বারদের সহায়তায় অবরুদ্ধ নৌ-পুলিশের এএসআই মামুনসহ তার সহযোগীদের ছয় ঘন্টা পরে বিকেলে উদ্ধার করেন।

স্থানীয়রা জানান, নৌপুলিশের সদস্যরা ট্রলারযোগে জেলেদের অনেকক্ষণ ধাওয়া করলে জেলেরা তাঁদের ট্রলারটি কিনারে ভিড়ে চার জনে দৌড়ে পালায়। ট্রলারে থাকা সুজনকে নৌপুলিশ ধরে পেটায়। ট্রলারের জালের ওপরে সুজন অচেতন হয়ে পড়ে। খবর ছড়িয়ে যায় সুজন মারা গেছে। এতে বিক্ষুব্ধ শত শত মানুষ নৌপুলিশের সদস্যদের ট্রলারসহ অবরুদ্ধ করে রাখে। অচেতন সুজনকে প্রথমে বাবলাতলা বাজারে নিয়ে যায় স্বজনরা। তবে অভিযুক্ত এএসআই মামুন জানান, তারা টহল দিচ্ছিলেন, এসময় তাঁদের দেখে সুজনদের ট্রলারটি দ্রুত চালিয়ে কিনারে ভিড়ায়। অপর জেলেরা দৌড়ে চলে যায়। এ সময় তাঁরা ট্রলারের কাছে গিয়ে জালের ওপরে সুজনকে পড়ে থাকতে দেখেন। ট্রলারে কারেন্ট জাল ছিল বলে পুলিশ দেখে ওরা পালাচ্ছিল বলে জানান পুলিশ কর্মকর্তা মামুন। পেটানোর কথা অস্বীকার করেন। এ ঘটনায় এলাকায় চরম উত্তেজনা দেখা দেয়। লালুয়ার বানাতিবাজার নৌ-পুলিশ ফাড়ির ইনচার্জ এসআই শহিদুল ইসলাম জানান, তিনি ছুটিতে ছিলেন খবর শুনে কর্মস্থলে আসতেছেন। ঘটনাস্থলে কলাপাড়া থানা পুলিশ রয়েছে। কলাপাড়ার ইউএনও আবু হাসনাত মোহাম্মদ শহিদুল হক জানান, তিনি ঘটনাস্থলে যাওয়ার জন্য রওয়ানা দিয়েছেন। নিহত সুজনের মামা ইব্রাহিম খলিল বলেন, ‘ওদের ট্রলার নৌ-পুলিশ ধাওয়া করে চিপা খালে ঢুকায়। সেখান থেকে চারজন লাফাইয়া পইড়্যা কিনারে আয়। আর সুজন ট্রলারের মধ্যে অজ্ঞান হয়ে আছিল।’ প্রথমে বাবলা তলার ডাক্তারদের কাছে নিয়ে যান। পরে কলাপাড়ায় নিয়ে আসেন। বালিয়াতলী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এবিএম হুমায়ুন কবির জানান, হাজার হাজার মানুষ নৌ-পুলিশকে অবরুদ্ধ করে রেখেছে। কলাপাড়া ও মহিপুর থেকে ২০-২৫ জন পুলিশ এসেছে। তাঁদের শান্ত করে নৌ-পুলিশের সদস্যদের নেয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

কলাপাড়া থানার ওসি খন্দকার মোস্তাফিজুর রহমান জানান, ঘটনাস্থলে একাধিক অফিসারের নেতৃত্বে প্রয়োজনীয় সংখ্যক ফোর্স গেছেন। উল্লেখ্য অভিযুক্ত এএসআই মামুন এ বছরের মে মাসে লালুয়ার আরেক বাসীন্দা আমির হোসাইনকে স্বামী-স্ত্রীর ঝগড়ার জের ধরে পুলিশ ফাড়িতে ডেকে এনে মারধর করার অভিযোগ রয়েছে। এর বিরুদ্ধে রয়েছে বিভিন্ন ধরনের অভিযোগ।

করোনাভাইরাস আপডেট
বিশ্বব্যাপী
বাংলাদেশ
আক্রান্ত
২৪০৫০৯৩৩৮
আক্রান্ত
১৫৬৫১৭৪
সুস্থ
২১৭৭৯৮৫৯০
সুস্থ
১৫২৭৩৩৩
শীর্ষ সংবাদ:
দেশ বিক্রি করে ক্ষমতায় আসব না ॥ বিশ্ব খাদ্য দিবসের অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী         নিরাপদে দেশে ঢুকছে ভয়ঙ্কর আইস         দিগঙ্গনার অঙ্গন আজ পূর্ণ তোমার দানে ॥ এসেছে হেমন্তলক্ষ্মী         করোনাপরবর্তী স্বাভাবিক জীবনে ছন্দপতন         ‘আগের রাতেই মণ্ডপে কেউ কোরান শরীফ রেখে যায়’         ২৩ অক্টোবর সারাদেশে ছয় ঘণ্টার গণঅনশন         উন্নয়নে পিছিয়ে নেই শেরপুর         পাকিস্তানী যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের উদ্যোগ নিতে হবে         সরকারের সঙ্গে আলেম ওলামাদের কোন বিরোধ নেই         ত্রিশালে সড়ক দুর্ঘটনায় এক পরিবারের ৫ জনসহ নিহত ৭         বগুড়ায় ১৪ বেইলি ব্রিজ সরিয়ে নতুন সেতু নির্মাণ শুরু হচ্ছে         করোনায় দেশে ৬ জনের মৃত্যু         করোনা : গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৬         ‘সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টকারীদের বিচারের আওতায় আনা হবে’         ঢাকামুখী অভিবাসন রোধ করতে হবে : মেয়র তাপস         রবিবার ২০ বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা শুরু         প্রতিদিন ৪০ হাজার স্কুল শিক্ষার্থী টিকা পাবে ॥ মাউশি         ইভ্যালির ওয়েবসাইট বন্ধ         ডেঙ্গু : গত ২৪ ঘন্টায় ১৮৩ জন হাসপাতালে         বিদেশে এনআইডির জন্য বরাদ্দ ১০০ কোটি টাকা