মঙ্গলবার ৮ আষাঢ় ১৪২৮, ২২ জুন ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

দূরপাল্লার বাস লঞ্চ ট্রেন বন্ধ রাখারই প্রস্তাব করব ॥ স্বাস্থ্যমন্ত্রী

দূরপাল্লার বাস লঞ্চ ট্রেন বন্ধ রাখারই প্রস্তাব করব ॥ স্বাস্থ্যমন্ত্রী

স্টাফ রিপোর্টার ॥ করোনার ডাবল মিউট্যান্টের কারণে ভারতের পরিস্থিতি নাজুক। তাই সেখানকার পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত সীমান্ত বন্ধ থাকবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। সোমবার সচিবালয়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে জরুরী ব্রিফিংয়ে তিনি এসব কথা বলেন। স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ভারতের করোনার ধরন খুবই ভয়ঙ্কর। আমাদের দেশে কিছু পাওয়া গেছে। আমরা শনাক্ত করেছি। খুব বেশি ছড়ায়নি। জাহিদ মালেক বলেন, দূরপাল্লার বাস, লঞ্চ-ট্রেন বন্ধ আছে এবং তা যেন বন্ধই থাকে সেজন্য আমরা প্রস্তাব করব। এবার ঈদে যদিও ‘লকডাউন’ ছিল, কিন্তু তারপরও সবাই আনন্দের সঙ্গে কেনাকাটা করেছেন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেছেন, দুঃখজনক হলেও সত্য যে টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিয়ে আমরা খুবই চিন্তিত। স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, দ্বিতীয় ডোজের বিষয়ে আমরা ভারতের সঙ্গে কথা বলছি। প্রধানমন্ত্রী যোগাযোগ করছেন। আমাদের তো তিনকোটি ডোজের অর্ডার আছে। তারা এ পর্যন্ত আমাদের ৭০ লাখ ডোজ দিয়েছে। এ ছাড়া টিকার বিষয়ে রাশিয়া, চীন, যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাজ্যের সঙ্গে আলোচনা চলছে জানিয়ে তিনি বলেন, ‘এ বিষয়ে কিছু অগ্রগতিও আছে। উৎপাদনের চেয়ে টিকা কেনার বিষয়ে অগ্রাধিকার দেয়ার কথা জানিয়ে মন্ত্রী আরও বলেন, টিকা উৎপাদন সময় সাপেক্ষে। তবে, টিকা উৎপাদনের বিষয়েও নীতিগত সিদ্ধান্ত আছে। তাই টিকা উৎপাদনের বিষয়ে যাদের সক্ষমতা আছে, তাদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তিনি।

লকডাউনের মধ্যে ঈদযাত্রার বিষয়ে তিনি বলেন, আমি বলেছিলাম নাড়ির টানে বাড়ি যাচ্ছেন, যান। কিন্তু দেখবেন নাড়ি যেন ছিঁড়ে না যায়। অনেকে ফেরিতে গাদাগাদি করে বাড়ি গেছেন। আমরা সেটা চাইনি।

স্বাস্থ্যমন্ত্রীর পর্যবেক্ষণ, এবারের ঈদে যারা গাদাগাদি করে বাড়ি গেছেন, তাদের বেশিরভাগ যুবক বয়সী। তার মন্তব্য, বেশি সংক্রমিত হলেও এদের মৃত্যুর হার কম। এছাড়া ঈদের কেনাকাটা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, দোকানপাটে অনেক ভিড় ছিল। অর্থনৈতিক কারণে এটা প্রয়োজন। তবে, এবার মাস্ক পরার হার আগের তুলনায় অনেক বেশি ছিল।

তিনি আরও বলেন, চীন থেকে উপহার হিসেবে পাওয়া সিনোফার্মের পাঁচ লাখ ডোজ টিকা থেকে প্রথম ডোজ হিসেবে আগামী ২৫ বা ২৬ থেকে প্রয়োগ শুরু হবে। তিনি বলেছেন, এই টিকা দেয়া হবে সামনের সারির করোনাযোদ্ধাদের। এই মাসের ২৫ বা ২৬ তারিখ থেকে চীনের যে উপহারের টিকা আসছে সেই টিকার কার্যক্রম শুরু করা হবে। আমাদের হাতে যে টিকা আছে এটা দিয়ে হয়ত সাত থেকে ১০ দিন টিকাদান চলতে পারে।

চীনের টিকা প্রথমে কাদের দেয়া হবে, এমন প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, সামনের সারির যোদ্ধাদের টিকার অগ্রাধিকার দেয়া হবে। তবে এর একটা লম্বা তালিকা করা হয়েছে।

শীর্ষ সংবাদ:
এসডিজি অর্জনে পরিকল্পিতভাবে এগোচ্ছি ॥ প্রধানমন্ত্রী         মানবপাচারের মামলা ॥ অমির ৯ সহযোগী গ্রেফতার         ৪১৬৬ কোটি টাকার ১০ প্রকল্প একনেকে অনুমোদন         ‘নাটোর পুলিশ অক্সিজেন ব্যাংক’ এর উদ্বোধন         সিলেটের বহুল আলোচিত শিশু সাঈদ হত্যা ॥ ৩ আসামির মৃত্যুদণ্ড হাইকোর্টে বহাল         করোনাকালের ক্ষতি পুষিয়ে নিতে ইউজিসি'র রিকভারি গাইডলাইন প্রকাশ         রাজধানীর শুক্রাবাদে সাবেক ছাত্রলীগ নেতার আত্মহত্যা         করোনা : ৭ জেলার লকডাউনে যেসব নিষেধাজ্ঞা থাকছে         ‘দরিদ্র দেশগুলোতে টিকাদান কর্মসূচী চালিয়ে যাওয়ার মতো যথেষ্ট টিকা নেই’         করোনায় খুলনা বিভাগে একদিনে ঝরলো ২৭ প্রাণ         রাজশাহীতে করোনায় ২৪ ঘন্টায় আরও ১৩ জনের মৃত্যু         যশোরে করোনায় ১০জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত-২৫৩ জন         ঢাবিতে অনলাইনে ভর্তি ও ফরম পূরণ শুরু         প্রকাশক মহিউদ্দিন আহমেদ আর নেই         ভারতে করোনা শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৯১ দিনের মধ্যে সর্বনিম্ন         বৃষ্টি থাকতে পারে আজ সারাদিন         সকাল থেকে ঢাকায় বৃষ্টি, পানিতে তলিয়ে গেছে সড়ক         সারা বিশ্বে যুদ্ধের মাঠে ২৭০০ শিশু সৈনিক নিহত ॥ জাতিসংঘ         জীবনী লিখতে গিয়ে সিলভিয়া টের পেলেন নানার জীবনের রয়েছে এক অন্ধকার ইতিহাস