মঙ্গলবার ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ২৬ মে ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

আমফান পরবর্তী দুর্যোগ মোকাবেলায় প্রস্তুত সশস্ত্রবাহিনী

আমফান পরবর্তী দুর্যোগ মোকাবেলায় প্রস্তুত সশস্ত্রবাহিনী

জনকণ্ঠ ডেস্ক ॥ ঘূর্ণিঝড় আমফান পরবর্তী দুর্যোগ মোকাবেলায় সশস্ত্রবাহিনীর বিভাগের নেতৃত্বে সেনা, নৌ ও বিমানবাহিনী প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে। সশস্ত্রবাহিনী বিভাগ প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মনিটরিং সেল, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদফতর ও অন্যান্য মন্ত্রণালয় এবং সংস্থার সঙ্গে যোগাযোগ রাখছে। সশস্ত্রবাহিনী বিভাগ যেকোন তাৎক্ষণিক প্রয়োজনে সর্বদা প্রস্তুত রয়েছে। খবর আইএসপিআর।

সেনাবাহিনী বেসামরিক প্রশাসনের সঙ্গে দুর্যোগ পূর্ববর্তী ও দুর্যোগ পরবর্তী কার্যক্রমের সমন্বয় ইতোমধ্যে করেছে। নিজস্ব উৎস থেকে ১৮,৪০০টি ত্রাণের প্যাকেট তৈরি করেছে এবং ৭১টি ছোট মেডিক্যাল টিম প্রস্তুত রয়েছে। ১৪৫টি ছোট দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা টিম বিশেষ সরঞ্জামাদিসহ সংক্ষিপ্ত নোটিসে মোতায়েনের জন্য প্রস্তুত রয়েছে। ভূমিধস বিষয়ে অভিজ্ঞতা সম্পন্ন বিশেষ দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা টিম বলপূর্বক বাস্তুচ্যুত মিয়ানমার নাগরিকদের রক্ষায় কক্সবাজার রোহিঙ্গা ক্যাম্পে মোতায়েনের জন্য প্রস্তুত রয়েছে। বিভিন্ন ইঞ্জিনিয়ারিং উপকরণ যেমন ৩১৩টি স্পিডবোট, পনেরোটি পানি বিশুদ্ধকরণ প্ল্যান্ট, ২৩৯ আউট বোর্ড মোটর, চারটি জাপানিস উদ্ধার বোর্ড, ছয়টি ফাইবার গ্লাস বোর্ড, ১১৫টি শার্ক বোর্ড, এবং দুটি ল্যান্ডিং ক্রাফট ইফটিলিটি/ ল্যান্ডিং ক্রাফট ভেহিকল প্রস্তুত রয়েছে। আর্মি এভিয়েশন উদ্ধার ও ত্রাণ বিতরণের জন্য প্রস্তুত রয়েছেন। ঘূর্ণিঝড় আমফান পরবর্তী জরুরী উদ্ধার, ত্রাণ ও চিকিৎসা সহায়তাসহ যেকোন পরিস্থিতি মোকাবেলায় তিনস্তরের প্রয়োজনীয় প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে নৌবাহিনী। ইতোমধ্যে চট্টগ্রাম, খুলনা ও মংলা নৌঅঞ্চলে নৌবাহিনীর ২৫টি জাহাজ সমুদ্র ও উপকূলীয় এলাকায় দ্রুততম সময়ে জরুরী উদ্ধার, ত্রাণ এবং চিকিৎসা সহায়তা প্রদানের জন্য প্রস্তুত রাখা হয়েছে। পাশাপাশি, ঘূর্ণিঝড় পরবর্তী সমুদ্র ও উপকূলীয় এলাকায় অনুসন্ধান কাজের জন্য নৌবাহিনীর দুটি মেরিটাইম পেট্রোল এয়ার ক্রাফট এবং দুটি হেলিকপ্টার সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে। ভাসান চরে অবস্থানরত বাস্তুচ্যুত মিয়ানমার নাগরিকদের আশ্রয় কেন্দ্র স্থানান্তর করা হয়েছে। সেইসঙ্গে খুলনা, বাগেরহাট, সাতক্ষীরা, বরগুনা, পটুয়াখালী, বরিশাল, পিরোজপুরসহ উপকূলীয় দুর্গত এলাকাগুলোতে মোতায়েনের জন্য নৌ কন্টিনজেন্ট প্রস্তুত রাখা হয়েছে। নৌবাহিনী স্থানীয় প্রসাশনের সঙ্গে সর্বক্ষণিক যোগযোগ রাখছে।

বিমানবাহিনীর সকল এয়ারক্রাফট ঘূর্ণিঝড় পরবর্তী ক্ষয়ক্ষতি নিরূপণ চিকিৎসা ও উদ্ধার অভিযানের জন্য প্রস্তুত রয়েছে। বিমানবাহিনীর এয়ারক্রাফটগুলোর মধ্যে রয়েছে ছয়টি পরিবহন বিমান ও ২২টি হেলিকপ্টার।

শীর্ষ সংবাদ:
করোনা ভাইরাসে আরও ২১ মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ১১৬৬         সরকারের বিরুদ্ধে মরচে ধরা সমালোচনার তীর ছুড়ছেন বিএনপি         গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের উদ্ভাবিত কিটের ট্রায়াল স্থগিত         করোনা ভাইরাস ॥ সানবিমস স্কুলের প্রতিষ্ঠাতা নিলুফার মঞ্জুরের মৃত্যু         সাবেক সাংসদ এম এ মতিন আর নেই         করোনা ভাইরাসের রোগীদের হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন দেওয়া বন্ধ রাখতে বলল ডব্লিউএইচও         করোনা ভাইরাস ॥ আক্রান্ত প্রায় ৫৫ লাখ, যুক্তরাষ্ট্রে মৃত্যু লাখ ছুঁই ছুঁই         জুলাই থেকে পর্যটকরা স্পেনে যেতে পারবে         দৈনিক মৃত্যুতে যুক্তরাষ্ট্রকেও ছাড়িয়ে গেল ব্রাজিল         করোনা ভাইরাস ॥ থাইল্যান্ডে বানরের ওপর ভ্যাকসিনের ট্রায়াল শুরু         তেলেঙ্গানার কুয়ায় ৯ লাশ পাওয়ার রহস্য উদ্ঘাটন, গ্রেফতার ১         লকডাউন তুলে নিচ্ছে সৌদি আরব         লকডাউন দ্রুত তোলায় সংক্রমণ আবারও বেড়ে যেতে পারে         যুক্তরাষ্ট্রে রপ্তানি হল পিপিই’র প্রথম চালান         লাদাখে মুখোমুখি ভারত ও চীনের সেনাবাহিনী, বাড়াচ্ছে শক্তি         প্লেন চালুর প্রথম দিনেই একের পর এক ফ্লাইট বাতিল         ভূমিকম্পেও সাক্ষাৎকারে অবিচল নিউ জিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী         পরীক্ষার শর্ত দিয়ে পর্যটকদের ভ্রমণের সুযোগ দিচ্ছে আইসল্যান্ড         ঈদে আরও সুন্দর পৃথিবীর প্রার্থনা সানিয়া মির্জার         শেখ হাসিনাকে ঈদের শুভেচ্ছা জানালেন মোদী        
//--BID Records