রবিবার ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৮ নভেম্বর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

অপহরণের তিনদিনের মাথায় শিশুকে উদ্ধার

  • সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাবের তথ্য প্রকাশ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ অপহরণের চব্বিশ ঘণ্টার মধ্যে এক শিশুকে উদ্ধার করতে সক্ষম হয়েছে র‌্যাব-১। এ সময় চার অপরহরণকারীকেও হাতেনাতে গ্রেফতার করা হয়। র‌্যাব ১ এর অফিসে এক সাংবাদিক সম্মেলনে এ তথ্য প্রকাশ করা হয়। এ সময় জানানো হয়-বাসা ভাড়া নেয়ার কথা বলে গাজীপুরের বাসিন্দা শরিফপুরের আশরাফ আলীর বাসায় যান চারজন গার্মেন্টস কর্মী। ভাড়া নিয়ে আলাপের ফাঁকে ঘুমের ওষুধ মেশানো জুস খাইয়ে আশরাফ আলী ও তার পরিবারের সদস্যদের অজ্ঞান করে ফেলা হয়। এরপর ঘরের নগদ টাকা ও স্বর্ণালঙ্কার লুটসহ আশরাফ আলীর ১৬ মাস বয়সী শিশু সন্তান আরাফকে অপরণ করে নিয়ে যায় চক্রটি। এরপর ফোন করে ২০ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করা হয়, অন্যথায় শিশু আরাফকে হত্যার হুমকিও দেয়া হয়। পরিবারের এমন অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে শিশুটিকে উদ্ধার অভিযানে নামে র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব-১) একটি দল। প্রথমে গাজীপুরের গাছা এলাকায় বিকাশে টাকা লেনদেনের সময় অপহরণকারী চক্রের দুই সদস্য জেরিন ইশরাত জুলি (২২) ও তারিন নুশরাত তুলিকে (১৬) আটক করা হয়। পরে তাদের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে সাইনবোর্ড এলাকার একটি বাসা থেকে অপহৃত শিশু আরাফকে উদ্ধারসহ অপহরণকারী চক্রের অপর দুই সদস্য আমিনুল ইসলাম (২৯) ও সুমনকে (৩০) আটক করা হয়। রবিবার রাজধানীর উত্তরায় র‌্যাব-১ কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে লে. কমান্ডার আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, ১৬ জানুয়ারি গাজীপুর মহানগরীর শরিফপুরের আশরাফ আলীর বাসা ভাড়া নিতে যান জেরিন ইশরাত জুলি। বাসা পছন্দ হয়েছে জানিয়ে দুইদিন পর শনিবার সকালে জুলি তার ছোট বোন তারিনকে নিয়ে অগ্রিম ভাড়া দেয়ার জন্য যান। এ সময় আলাপচারিতার ফাঁকে আশরাফ আলীসহ পরিবারে সবাইকে ঘুমের ওষুধ মেশানো জুস খাইয়ে দেন। এক পর্যায়ে সবাই অজ্ঞান হয়ে পড়লে জুলি ও তারিন আশরাফ আলীর ১৬ মাস বয়সের শিশু আরাফকে অপহরণ করে এবং বাসার নগদ টাকা, স্বর্ণলঙ্কার ও মোবাইলফোন চুরি করে পালিয়ে যায়। পরে অজ্ঞান অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে পাশের বাসার লোকজন এসে তাদের কাছের একটি হাসপাতালে ভর্তি করে। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে শনিবার বিকেলে সুস্থ হওয়ার পর আশরাফ আলী জানতে পারেন শিশু আরাফ নিখোঁজ। তখন অপহরণকারীরা চুরি করা ভিকটিমের মায়ের মোবাইলফোন থেকে ফোন করে আরাফকে মুক্ত করতে ২০ লাখ টাকা দাবি করে। পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে র‌্যাব-১ অপহরণকারী চক্রের সদস্যদের আটক করে এবং শিশু আরাফকে উদ্ধার করে। এ বিষয়ে আটকদের জিজ্ঞাসাবাদে র‌্যাব জানতে পেরেছে- তারা একটি সংঘবদ্ধ অপহরণকারী চক্রের সদস্য। তারা দীর্ঘদিন ধরে গাজীপুরের বিভিন্ন এলাকায় অপহরণ, চুরি ও ছিনতাইসহ বিভিন্ন অপকর্মের সঙ্গে জড়িত। তারা সবাই পেশায় গার্মেন্টস কর্মী। তাদের দীর্ঘদিনের স্বপ্ন ছিল গাজীপুর শহরে একটি ফ্ল্যাট কিনে সুন্দরভাবে জীবন-যাপন করার। আর এই স্বপ্ন পূরণের জন্যই তারা এই অপহরণ করেছে।

শীর্ষ সংবাদ:
তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচন : চলছে গণনার কাজ         বাংলাদেশে বিনিয়োগ সুবিধা লুফে নেওয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর         করোনা : গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্যু ৩         করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের সতর্কবার্তা         পরিবহন সেক্টর কার নিয়ন্ত্রণে : জি এম কাদের         সংসদে নির্বাচন কমিশন গঠনে আইন আনা হচ্ছে শিগগিরই ॥ আইনমন্ত্রী         আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে নগর পরিবহন চালু সম্ভব নয় : মেয়র তাপস         মানবপাচার মামলা : কুয়েতে পাপুলের ৭ বছরের কারাদণ্ড         ডেঙ্গু : গত ২৪ ঘন্টায় আরও ৭৪ রোগী হাসপাতালে         নন-জুডিসিয়াল স্ট্যাম্পে বঙ্গবন্ধুর ছবি যুক্ত করতে রুল         বাংলাদেশে বিপুল পরিমাণ বিনিয়োগ আসছে : সালমান এফ রহমান         নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের অবরোধ         বুয়েট ছাত্র আবরার হত্যা মামলার রায় পিছিয়ে ৮ ডিসেম্বর নির্ধারণ         করোনা : সুইজারল্যান্ড না গিয়ে দেশে ফিরলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী         আন্তর্জাতিক মানের নতুন একটি বিমানবন্দর নির্মাণের পরিকল্পনা         তেজগাঁওয়ে ঠিকাদারের কাছে চাঁদা দাবির অভিযোগ         তথ্য প্রতিমন্ত্রী মুরাদ যখন রকস্টার ! (ভিডিও)         টঙ্গীতে পুড়ে যাওয়া বস্তির একটি মানুষও না খেয়ে থাকবে না ॥ রাসেল         করোনাভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন সবচেয়ে মারাত্মক ॥ গবেষণা