মঙ্গলবার ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৪ মে ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

মেজর মিজানের নীলনক্সা, দুজনের স্বীকারোক্তি

  • গাজীপুরে নাশকতার ছক কষা হয় কলাবাগান ক্লাবে!

শংকর কুমার দে ॥ গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বড় ধরনের নাশকতা, ধ্বংসাত্মক কর্মকা-, বিএনপির কর্মীদের আওয়ামী লীগের কর্মী সাজিয়ে জাল ভোট প্রদান, অপপ্রচারের মাধ্যমে নির্বাচন বানচাল, বিতর্কিত ও প্রশ্নবিদ্ধ করার জন্য ছঁক কষেছিল বিএনপি।

বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য মেজর (অব) মিজানুর রহমান মিজান ও বিএনপির অঙ্গ সংগঠনের সহযোগীসহ চার জনকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের আদেশ দিয়েছে আদালত। গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করার ষড়যন্ত্রের অভিযোগে জড়িত তারা। গ্রেফতারকৃতদের সঙ্গে গাজীপুর নির্বাচনে নাশকতার ষড়যন্ত্র করার বিষয়ে টেলিফোনে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন (গাসিক) নির্বাচনে নাশকতা চালাতে রাজধানীর কলাবাগান ক্লাবে ৪ যুবকের সঙ্গে বৈঠক করেন বিএনপি নেতা মেজর (অব) মিজানুর রহমান মিজান। ওই ৪ যুবকের নাশকতায় অংশ নেয়ার কথা ছিল। নাশকতার ভিডিও ও ছবি ধারণ করতে তাদের হাতে ‘স্পাইক্যাম’ সংযুক্ত হাতঘড়ি দেন মিজানুর রহমান। ইউটিউবে ফাঁস হওয়া অডিও ক্লিপেও এ তথ্য রয়েছে বলে পুলিশের দাবি। অডিও ক্লিপসে মিজানুর রহমানের সঙ্গে কথোপকথনে অংশ নেয়া আশুলিয়ার শিমুলিয়া ইউনিয়নের যুবদল নেতা শফিকুল ইসলামকে এখনও গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ। যুবদল নেতা শফিকুল ইসলামকে গ্রেফতারের জন্য অভিযান চালানো হচ্ছে। তদন্ত সংশ্লিষ্ট পুলিশ সূত্রে এ খবর জানা গেছে।

পুলিশের একজন কর্মকর্তা বলেন, গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বিএনপির কর্মীদের ‘আওয়ামী লীগের ব্যাজ ও নৌকার ব্যানার’ দিয়ে কর্মী সাজিয়ে ভোট কেন্দ্রে ঢুকে বড় ধরনের নাশকতা, ধ্বংসাত্মক কর্মকা-, জাল ভোট প্রদান, অপপ্রচারের মাধ্যমে নির্বাচন বানচাল, বিতর্কিত ও প্রশ্নবিদ্ধ করার জন্য ছঁক কষে বিএনপি। কিন্তু আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সতর্ক ও সজাগ থাকায় বিএনপির এই ষড়যন্ত্র ফাঁস হয়ে যাওয়ায় গাজীপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন বানচাল, বিতর্কিত ও প্রশ্নবিদ্ধ করা থেকে রক্ষা করতে সক্ষম হওয়া যায়। মিজানকে গ্রেফতারের পর মঙ্গলবার রাতে ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইনে ধানম-ি থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়। গোয়ান্দা পুলিশ উত্তর বিভাগের উত্তরা জোনাল টিমের এসআই মোঃ সাইফুল ইসলাম ওই মামলার বাদী। গাজীপুর সিটি নির্বাচনের আগের রাতে গুলশানের বাসা থেকে মিজানকে গ্রেফতার করে গোয়েন্দা পুলিশ। এরপর মঙ্গলবার ভোটের দিন সকাল ৬টায় আশুলিয়ায় বিকেএসপির মূল ফটকের সামনের রাস্তায় জড়ো হওয়ার সময় মামলার বাকি চার আসামিকে গ্রেফতার করা হয়। তখন তাদের কাছ থেকে তিনটি রিস্টওয়াচ ও ৯৫০০ টাকা জব্দ করা হয় বলে জানান অতিরিক্ত উপকমিশনার। গ্রেফতার করা অপর চারজন হলেন- মোঃ শফিকুল ইসলাম (৪৩), মোঃ দিন্নাত (২৬), জুনায়েদ হোসেন জয় (১৬) ও আসাদ আলী (২২)।

শীর্ষ সংবাদ:
রিজার্ভ বাড়াতে মরিয়া ॥ নানামুখী কৌশল সরকারের         আঞ্চলিক সঙ্কট মোকাবেলায় প্রধানমন্ত্রীর পাঁচ প্রস্তাব         শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে দুই সেঞ্চুরিতে বাংলাদেশের দিন         রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন দুঃস্বপ্ন         দুর্নীতির মামলায় কারাগারে ওসি প্রদীপের স্ত্রী         একগুচ্ছ প্রণোদনায় ঘুরে দাঁড়াল শেয়ারবাজার         প্রভাবশালীদের দখলে উত্তরবঙ্গের অর্ধেক খাস জমি         সিলেটে বন্যাকবলিত এলাকায় খাবার পানির তীব্র সঙ্কট         মাঙ্কিপক্স নিয়ে সব বিমানবন্দরে সতর্ক অবস্থা         গম নিয়ে রাশিয়ার সঙ্গে বোঝাপড়ায় আগ্রহী আমদানিকারকরা         পদ্মা সেতু নিয়ে বড়াই করা উচিত নয় ॥ ফখরুল         শিক্ষক ও বিমানবাহিনীর সদস্যসহ সড়কে প্রাণ গেল ১৫ জনের         প্রমাণ ছাড়া স্বাস্থ্যকর পুষ্টিকর বলে প্রচার করা যাবে না         ফখরুলের বক্তব্য নতুন ষড়যন্ত্রের বহির্প্রকাশ ॥ কাদের         প্রস্তুত স্বপ্নের পদ্মা সেতু         পাম তেল রপ্তানিতে ইন্দোনেশিয়ার নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার         বাংলাদেশের কাছে অপরিশোধিত জ্বালানি তেল বিক্রি করতে চায় রাশিয়া         রাজধানীতে ট্রাকে পণ্য বিক্রি করবে না টিসিবি         জাফরুল্লাহ চৌধুরীর ‘জাতীয় সরকার’ প্রস্তাবে বিব্রত বিএনপি         মঙ্গলবার আত্মসমর্পণ করে জামিন চাইবেন সম্রাট