ঢাকা, বাংলাদেশ   শনিবার ২০ আগস্ট ২০২২, ৫ ভাদ্র ১৪২৯

পরীক্ষামূলক

দল ঘোষণা দ. আফ্রিকার

টাইগারদের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচ

প্রকাশিত: ০৬:৪৮, ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৭

টাইগারদের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচ

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ঘরের মাটিতে বাংলাদেশের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজের আগে তিনদিনের প্রস্তুতি ম্যাচের জন্য দল ঘোষণা করেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। ‘দক্ষিণ আফ্রিকা আমন্ত্রিত একাদশ’ নামের দলটিতে প্রোটিয়া একাডেমির খেলায়াড় সংখ্যাই বেশি। নেতৃত্ব দেবেন আইডেন মার্করাম। প্রতিভাবান এই ওপেনিং ব্যাটসম্যান গত জুলাইয়ে দক্ষিণ আফ্রিকার ইংল্যান্ড সফরে বর্তমান অধিনায়ক ফ্যাফ ডু প্লেসিসের ব্যাকআপ হিসেবে টেস্ট স্কোয়াডে সুযোগ পেয়েছিলেন। তবে মাঠে নামা হয়নি। গত মার্চে দক্ষিণ আফ্রিকার নিউজিল্যান্ড সফরের টেস্ট স্কোয়াডে থাকা উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান হেনরিখ ক্লাসেনও আছেন প্রস্তুতি ম্যাচের দলে। তিনদিনের প্রস্তুতি ম্যাচটা শুরু যেহেতু ২১ সেপ্টেম্বর, তাই এই দলে থাকা খেলোয়াড়রা ১৯ সেপ্টেম্বর শুরু হতে যাওয়া দক্ষিণ আফ্রিকার ঘরোয়া প্রথম শ্রেণীর প্রতিযোগিতার প্রথম রাউন্ডে খেলবেন না। ২২ সেপ্টেম্বর প্রথম রাউন্ড শেষ হওয়ার পরই বাংলাদেশের বিপক্ষে টেস্ট দল ঘোষণা করবে দক্ষিণ আফ্রিকা। ২৮ তারিখ পচেস্টফ্রমে শুরু দুই ম্যাচ সিরিজের প্রথম টেস্ট। ২০০৮ সালের পর প্রথমবারের মতো দক্ষিণ আফ্রিকায় পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। সফরে শক্তিধর প্রোটিয়াদের বিপক্ষে দুটি টেস্টছাড়াও তিন ওয়ানডে ও দুটি টি২০ খেলবে টাইগারা। বিরূপ কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নিতে মূল লড়াইয়ের আগে বাংলাদেশের জন্য প্রস্তুতি ম্যাচটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। তাই ধারণা করা হচ্ছে টেস্ট অধিনায়ক মুশফিকুর রহীমের নেতৃত্বে পূর্ণশক্তির দলই প্রস্তুতি ম্যাচে অংশ নেবেন। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ব্যর্থ ইমরুল কায়েস, সৌম্য সরকারদের জন্য এটি পরীক্ষার আগে আরেকটি পরীক্ষা। দক্ষিণ আফ্রিকা আমন্ত্রিত একাদশ ॥ আইডেন মার্করাম (অধিনায়ক), তালাদি বোকাকো, ওখুলি কেলে, ম্যাথু ক্রিস্টেনসেন, মাইকেল কোহেন, আইজ্যাক ডিকগালে, জুবায়ের হামসা, হেনরিক ক্লাসেন, মিগায়েল প্রিটোরিয়াস, ইয়ানসি ভ্যালি, শন ভন বার্গ, লনডিসওয়া জুমা। কোহলিদের জন্য বিমান চান কপিল স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ টানা ক্রিকেটের ধকল কমাতে বোর্ডকে (বিসিসিআই) বিশেষ অনুরোধ জানিয়েছেন রবি শাস্ত্রী। ভারত কোচের চাওয়া, সবদিক ভেবে যেন ভবিষ্যত সূচী তৈরি করা হয়। দেশটির প্রথম বিশ্বকাপ জয়ী অধিনায়ক কপিল দেব এবার কোহলিদের জন্য ব্যক্তিগত বিমানের দাবি জানালেন, ‘ক্রিকেটারদের সময় বাঁচাতে আর বিশ্রামের সুযোগ করে দিতে একটা বিমান কিনলেই তো হয়।’ কপিল আরও বলেন, ‘বিসিসিআই যেহেতু এখন প্রচুর আয় করছে, তাই তাদের নিজস্ব বিমান থাকা উচিত। এতে অনেক সময় বাঁচবে আর ঝামেলাও কমবে। বোর্ড চাইলেই কিনতে পারে। পাঁচ বছর আগেই তাদের এটা করা উচিত ছিল।’