শনিবার ৪ আশ্বিন ১৪২৭, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

বায়ান্ন বাজার তিপ্পান্ন গলি

বায়ান্ন বাজার তিপ্পান্ন গলি

মোরসালিন মিজান ॥ বাঙালীর শ্রেষ্ঠ অর্জন স্বাধীনতা। ১৯৭১ সালের ২৬ মার্চ জন্ম হয়েছিল বাংলা নামের দেশটির। এদিন বঞ্চনার দীর্ঘ ইতিহাস পেছনে ফেলে সামনে এগিয়ে যাওয়ার প্রত্যয় ঘোষণা করেছিলেন অবিসংবাদিত নেতা শেখ মুজিব। আহা কী আনন্দের দিন ছিল! তবে তার ঠিক একদিন আগে রক্তে ভেসে গিয়েছিল রাজধানী শহর ঢাকা। পশ্চিম পাকিস্তানের বর্বর সেনাবাহিনী ২৫ মার্চ রাতে চালিয়েছিল ইতিহাসের জঘন্যতম গণহত্যা। বছর ঘুরে আবারও এসেছে মার্চ। বিশেষ দুটি দিবস অত্যাসন্ন। সঙ্গত কারণেই আনন্দ বেদনার কাব্য একসঙ্গে হচ্ছে। চলছে নানা উৎসব অনুষ্ঠান। সেগুনবাগিচায় মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘরে মঙ্গলবার উদ্বোধন করা হয়েছে স্বাধীনতা উৎসবের। একই সময় জাদুঘরের একবিংশতম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদ্যাপন করা হচ্ছে। সপ্তাহব্যাপী আয়োজনের দ্বিতীয় দিন বৃহস্পতিবার একাত্তরের স্মৃতিচারণ করেন মুক্তিযোদ্ধা মোঃ আব্দুল আউয়াল। দলীয় আবৃত্তি করেন স্বরচিত্র আবৃত্তি চর্চা ও বিকাশ কেন্দ্রের শিক্ষার্থীরা। ত্রিলোক বাচিক পাঠশালার আবৃত্তিতেও ছিল মুক্তিযুদ্ধের গৌরবগাথা। মানিক নগর মডেল হাই স্কুল ও শ্যামপুর বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা চমৎকার পরিবেশনা নিয়ে মঞ্চে আসে। দলীয় সঙ্গীতে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন উদীচী শিল্পীগোষ্ঠী ও স্বভূমি লেখক শিল্পী কেন্দ্রের সদস্যরা। উৎসবের তৃতীয় দিনে আজ শুক্রবার থাকছে ’২৫ মার্চ গণহত্যা দিবস : নবীন গবেষকদের দৃষ্টিতে’ শীর্ষক বিশেষ আয়োজন। এতে অংশগ্রহণ করবেন সেন্টার ফর দা স্টাডি অব জেনোসাইড এন্ড জাস্টিসের সমন্বয়কারী এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্রিমিনোলজি বিভাগের প্রভাষক উম্মে ওয়ারা, ইউনিভার্সিটি অব এশিয়া প্যাসিফিকের আইন বিভাগের প্রভাষক ইমরান আজাদ, সেন্টার ফর দা স্টাডি অব জেনোসাইড এন্ড জাস্টিসের গবেষণা সহযোগী নওরিন রহিম এবং ইস্ট ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটির শিক্ষক সহকারী (টিচিং এ্যাসিস্ট্যান্ট) মোহাম্মদ পিজুয়ার হোসাইন। থাকবে সাংস্কৃতিক পরিবেশনা। অনুষ্ঠানে দলীয় আবৃত্তি পরিবেশন করবে কথা আবৃত্তি চর্চা কেন্দ্র ও মুক্তধারা আবৃত্তি চর্চা কেন্দ্র। ব্রাইট স্কুল এন্ড কলেজ ও রাজারবাগ পুলিশ লাইনস্ স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষার্থীরা অংশ নেবে অনুষ্ঠানে। দলীয় সঙ্গীত পরিবেশন করবে সত্যেন সেন শিল্পী গোষ্ঠী। পথনাটক ‘অতঃপর মুলতবি’ পরিবেশন করবে নাট্যকুঞ্জ।

পাকিস্তান সেনাবাহিনীর বর্বর গণহত্যার সাক্ষী হয়ে আছে মিরপুরের জল্লাদখানা বধ্যভূমি। এটি এখন স্মৃতিপীঠ। এখানেও আজ থাকবে নানা আয়োজন। দুর্বিষহ দিনের স্মৃতিচারণ করবেন মিরপুর জল্লাদখানায় শহীদ পরিবারের সদস্যরা। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করবে সপ্তসুর সাংস্কৃতিক একাডেমি, ঋদ্ধস্বর আবৃত্তি একাডেমি, ঘাসফুল শিশু-কিশোর সংগঠন, বধ্যভূমির সন্তানদল, ঢাকা সিটি স্কুল, কথাসুর সাংস্কৃতিক সংগঠন ও মিরপুর সাংস্কৃতিক ঐক্য ফোরাম।

বাংলা একাডেমি গণহত্যা দিবস ও মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে দুই দিনের কর্মসূচী গ্রহণ করেছে। শনিবার বিকেলে একাডেমির কবি শামসুর রাহমান সেমিনার কক্ষে একক বক্তৃতা ও আবৃত্তি অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হবে। অনুষ্ঠানে একক বক্তৃতা প্রদান করবেন প্রখ্যাত ইতিহাসবিদ অধ্যাপক মুনতাসীর মামুন। সভাপতিত্ব করবেন সাবেক আইন, বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রী ব্যারিস্টার শফিক আহমেদ।

মার্চের কথা হলো। এবার বৈশাখের কথা। আর কিছুদিন পর ১৪২৪ বঙ্গাব্দ। নববর্ষ বরণে এবারও অনুষ্ঠিত হবে বর্ণাঢ্য মঙ্গল শোভাযাত্রা। এরই মাঝে শুরু হয়ে গেছে প্রস্তুতি। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদের সামনে চলছে ছবি আঁকার কাজ। শুরুটা করে দিয়েছিলেন বরেণ্য শিল্পী রফিকুন্নবী। সাদা ক্যানভাসে কালো রং মাখানো মোটা ব্রাশ টেনে দিয়েছিলেন। তাতেই আঁকা হয়ে যায় চঞ্চল কাক! উদ্বোধনী দিন আরও উপস্থিত ছিলেন আবুল বারক আলভী, মোস্তাফিজুল হক, আবদুস সাত্তার তৌফিক, বিশ্বজিৎ গোস্বামী ও শিশির ভট্টাচার্য্য। শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা মিলে দারুণ আনন্দঘন পরিবেশে শুরু করেন প্রস্তুতি পর্ব। এ পর্বের মূল দায়িত্ব পালন করছে চারুকলা অনুষদের ১৮ ও ১৯তম ব্যাচের শিক্ষার্থীরা। অনুষদের নতুন পুরনো শিক্ষার্থী ও শিক্ষকরা প্রতিদিন আসছেন। ছবি আঁকছেন। হরেক রকমের মুখোশ, মাটির পুতুল, কাগজের পাখি ইত্যাদি তৈরির প্রস্তুতি এগিয়ে চলেছে। আর সরাচিত্র তো প্রস্তুতিপর্বের প্রধানতম অনুসঙ্গ। সেটিও মোটামুটি শুরু। এসব বিক্রি করে পাওয়া অর্থে আয়োজন করা হবে মঙ্গল শোভাযাত্রা। বর্ষবরণের বর্ণাঢ্য এই আয়োজন গত বছর ইউনেসকোর ইনট্যানজিবল কালচারাল হেরিটেজ অব হিউম্যানিটির স্বীকৃতি লাভ করেছে। এবারের আয়োজনটি তাই নতুন মাত্রা পাবে বলে আশা করছেন আয়োজকরা। বিষয়টি মাথায় রেখেই প্রস্তুতি গ্রহণ করা হচ্ছে বলে জানান সমন্বয়ক পলাশ সাহা। কথা প্রসঙ্গে এই তরুণ বলেন, অকল্যাণ, অমঙ্গলের বিপরীতে দীর্ঘ সারিতে দাঁড়িয়ে মঙ্গল শোভাযাত্রার আয়োজন করি আমরা। এবারও বাঙালীর সব রকম মঙ্গল কামনায় আয়োজন করা হবে মঙ্গল শোভাযাত্রা। তবে শোভাযাত্রার মূল থিম কি হবে তা এখনও ঠিক করা হয়নি বলে জানান তিনি।

ও মা, ফাগুনে তোর আমের বনে ঘ্রাণে পাগল করে...। পাগল করা ঘ্রাণ আসছে আম বাগান থেকে। না, শহর ঢাকায় কোন আম বাগান নেই। তবে গাছ আছে। এসব গাছে আরও আগেই দেখা দিয়েছিল মুকুল। আর এখন সুন্দর আম ধরে আছে। ছোট সবুজ আম হঠাৎ হাওয়ায় দুলছে। রাজধানী শহরের বিভিন্ন রাস্তার ধারে দেখা যাচ্ছে এই দৃশ্য। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসের একটি গাছ অনেক দিনের পুরনো। আম ধরে থাকা গাছের ডাল সীমানা প্রাচীর ঠেলে বাইরে চলে এসেছে। পাশের রাস্তা দিয়ে হেঁটে যাওয়ার সময় খুব চোখে পড়ে। লম্বা সবুজ পাতার ফাঁক দিয়ে রেডিওর এন্টেনার মতো মুকুল বের হয়ে আছে। সেখানে আম আর আম। গুনে শেষ করা যায় না। ক্ষতি করতে পারেÑ এমন ঝড় নেই। দমকা হাওয়া বইছে না। রাস্তা দিয়ে হেঁটে যেতে যেতে ঢিল ছুড়বে দুরন্ত কিশোর? সেই কিশোর নেই। ঢিল ছোড়ার মতো কি আর রাজধানী শহরে আছে? গোপীবাগের রামকৃষ্ণ মিশনের আঙিনায় আছে বেশ কয়েকটি আম গাছ। গত কয়েকদিন সেখানে গিয়ে দেখা যায়, সবকটি গাছে ঘন হয়ে ঝুলছে আম। আকার ও আকৃতি স্পষ্ট। এই আকার ও আকৃতির আমে দারুণ ভর্তা হয়। ডাল রান্না করে খান অনেকে। কিন্তু এবার নাকি আম তেমন পাওয়া যাচ্ছে না। আর পাওয়া গেলেও দাম আকাশছোঁয়া, জানালেন এক মৌসুমী ফল বিক্রেতা। তার এই হাতাশা আরও বাড়–ক। বাড়লে পরেই গাছের আমগুলো গাছে থাকবে। পাওয়া হবে ফরমালিন মুক্ত পাকা মিষ্টি আম!

শীর্ষ সংবাদ:
এখন অপার সম্ভাবনা ॥ এক সময়ের অবহেলিত, বঞ্চিত দক্ষিণাঞ্চল         রায়ার ইচ্ছা পূরণ করলেন প্রধানমন্ত্রী         পেঁয়াজ আতঙ্ক কেটে গেছে, কেনার হিড়িক নেই         এটিএম জালিয়াতি কমেছে         পাত্র চাই বিজ্ঞাপন দিয়ে এক নারী হাতিয়েছে ৩০ কোটি টাকা         করোনায় মৃত্যু ও শনাক্ত কমেছে, বেড়েছে সুস্থতা         করোনা শনাক্তে এ্যান্টিজেন ও এ্যান্টিবডি টেস্ট চালুর পরামর্শ         টিকা থেকে মাস্ক বেশি কার্যকর ॥ সিডিসি         ভারি বৃষ্টি উজানের ঢল- ধরলার পানি বিপদসীমার ওপরে         করোনা উপসর্গে ঝালকাঠিতে গৃহবধূর মৃত্যু         অপ্রতিরোধ্য গতিতে বাড়ছে মাদক পাচার, সেবন         আল্লামা আহমদ শফী আর নেই         পেঁয়াজ ভর্তি ট্রলার ভিড়েছে টেকনাফে         অর্থনৈতিক উন্নয়ন বেগবানে ৩৪ হাজার কোটি টাকার ফান্ড ঘোষণা এডিবির         করোনা ভাইরাসে আরও ২২ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ১৫৪১         করোনা ভাইরাস ॥ বিশ্বব্যাপী মৃত্যু ছাড়াল সাড়ে ৯ লাখ, আক্রান্ত ৩ কোটির বেশি         অ্যাটর্নি জেনারেলের অবস্থার অবনতি, আইসিউতে স্থানান্তর         করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় কারিগরি কমিটির ৭ পরামর্শ         বঙ্গবন্ধু শুধু বাংলাদেশের নয় তিনি সারা বিশ্বের সম্পদ ॥ খাদ্যমন্ত্রী         ভিডিও কলে কথা বলে কিশোরীর ইচ্ছা পূরণ করলেন প্রধানমন্ত্রী