ঢাকা, বাংলাদেশ   শুক্রবার ০৯ ডিসেম্বর ২০২২, ২৪ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

ফেসবুকের কল্যাণে বাবা পেল ছেলেকে

প্রকাশিত: ০৫:২০, ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৭

ফেসবুকের কল্যাণে বাবা পেল ছেলেকে

স্টাফ রিপোর্টার, গলাচিপা ॥ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের সুবাদে বাবা হেলাল ১৭ দিন পর ফিরে পেলেন হারিয়ে যাওয়া ৬ বছর বয়সী একমাত্র শিশু ছেলে হিমেলকে। সবার সামনে কোলে তুলে নিলেন নয়নের মণিকে। বাবা-ছেলের এ মিলনে কাঁদলেন স্বজনরা। শিশু হিমেল খেলাচ্ছলে নারায়ণগঞ্জের মদনগঞ্জ ঘাট থেকে একের পর এক লঞ্চ পাল্টে চলে এসেছিল পটুয়াখালীর গলাচিপা। অনেক ঘাট ঘুরে শেষ পর্যন্ত গলাচিপা পুলিশের মাধ্যমে রবিবার দুপুরে বাবাসহ অন্যান্য স্বজনদের হাতে তুলে দেয়া হয় হিমেলকে। গলাচিপা পুলিশের উপস্থিতিতে নারায়ণগঞ্জের বন্দর থানার মদনগঞ্জ এলাকার শান্তিনগর রোডের বাসিন্দা হেলাল জানান, পেশায় তিনি অটোচালক। গত ৩ ফেব্রুয়ারি তার ৬ বছর বয়সী শিশু ছেলে হিমেল নিখোঁজ হয়। অনেক খোঁজাখুঁজি করেও ছেলের সন্ধান পাননি। তিনদিন আগে প্রতিবেশী এক যুবকের ফেসবুকে হারিয়ে যাওয়া ছেলে হিমেলের ছবি দেখতে পান। ফেসবুকের স্ট্যাটাস দেখে তিনি জানতে পারেন, ছেলে হিমেল বর্তমানে গলাচিপা লঞ্চ ঘাটের শ্রমিক সরদার আমির হোসেনের কাছে রয়েছে। ওই স্ট্যাটাস দেখে তিনি গলাচিপা ছুটে আসেন। শ্রমিক সরদার আমির হোসেন জানান, তিনি ৪ ফেব্রুয়ারি সকালে এ শিশুটিকে দেখতে পান। শিশুটি ওইদিন পূবালী-৭ লঞ্চে ঘোরাঘুরি করছিল। লঞ্চের সকল যাত্রী নেমে গেলেও শিশুটি বসে থাকে। এ অবস্থায় শিশুটিকে তিনি কাছে ডেকে নেন এবং খাওয়া-দাওয়া করিয়ে অনেক বুঝিয়ে শিশুটির কাছে জানতে পারেন, শিশুটির নাম হিমেল। বাবার নাম হেলাল। হিমেল আগের দিন বাড়ির কাছের মদনগঞ্জ ঘাট থেকে ছোট লঞ্চে প্রথমে মুন্সীগঞ্জ চলে যায়। সেখান থেকে লঞ্চ পাল্টে আবার ফতুল্লা যায়। সেখান থেকে পূবালী-৭ লঞ্চ গলাচিপা চলে আসে। আমির হোসেন আরও জানান, সমস্যা হতে পারে ভেবে হিমেলকে তিনি ঢাকাগামী লঞ্চে তুলে দিয়েছিলেন। কিন্তু হিমেল সবার চোখ ফাঁকি দিয়ে লঞ্চ পাল্টে রাঙ্গাবালী চলে যায়। সেখান থেকে পরদিন ফিরে এলে তিনি হিমেলকে বাড়ি নিয়ে যান।
monarchmart
monarchmart