বুধবার ২১ শ্রাবণ ১৪২৭, ০৫ আগস্ট ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

আমতলী ও তালতলীর চরসহ নিম্নাঞ্চল প্লাবিত

নিজস্ব সংবাদদাতা, আমতলী (বরগুনা) ।। উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত লঘুচাপ ও আমবশ্যার প্রভাবে পায়রা নদী ফুসে উঠেছে। সোমবার স্বাভাবিক জোয়ারের চেয়ে পানি বৃদ্ধি পেয়ে চরসহ নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। অবিরাম বর্ষণে জন জীবন বিপর্যস্থ হয়ে পরেছে। শ্রমজীবি মানুষ ঘর থেকে বের হলে পারছে না। কলাপাড়া আবহাওয়া অফিস সুত্রে জানা গেছে, উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত লঘুচাপের কারনে পায়রা ও মংলা সমুদ্রবন্দরকে ৩নং স্থানীয় সতর্ক সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। লঘুচাপ ও আমাবশ্যার জোঁ প্রভাবে পায়রা নদী অস্বাভাবিক হয়ে উঠেছে। তীরে ঢেউ আচার খাচ্ছে। স্বাভাবিক জোয়ারের চেয়ে ২/৩ ফুট উচ্চে পানি বৃদ্ধি পেয়ে চর ও নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। তালতলীর তেতুঁলবাড়িয়া, নিদ্রারচর, কবিরাজপাড়া, ফকিরহাট, জয়ালভাঙ্গা, গাবতলী, চরপাড়া, বালিয়াতলী, আমতলী পৌরসভার চরাঞ্চল, বৈঠাকাটা, কালীবাড়ী, গুলিশাখালী, পশুরবুনিয়াসহ চরাঞ্চলের প্রায় ২০ হাজার পরিবারের বাড়ী ঘর পানিতে তলিয়ে গেছে। তারা বাড়ী ছেড়ে বন্যা নিয়ন্ত্রন বাঁধ ও সাইক্লোন সেল্টারে অবস্থান নিয়েছে।এদিকে সাগরে মালেক ঘরামির একটি মাছ ধরা ট্রলার ঝড়ের কবলে পরে ডুবে গেছে। জেলেরা উদ্ধার হলেও ট্রলারসহ মালামাল উদ্ধার করতে পারেনি।

ট্রলার মালিক মালেক ঘরামী জানান সকালে সাগরে মাছ ধরতে গেলে ঝড়ের কবলে পরে আমার ট্রলারটি ডুবে গেছে। জেলেদের অন্য ট্রলারের উদ্ধার করা গেলেও ট্রলারটি এখনো উদ্ধার করা যায়নি। এতে আমার প্রায় ৫ লক্ষাধীক টাকার ক্ষতি হবে।

নিদ্রার চরের আজাহার উদ্দিন, আউয়াল, হালিমন, গোলভানু, আবুল ও জালাল সরদার জানান “মোগো বাড়ী-ঘর পানতে তলাইয়া গ্যাছে, মোরা ছাইকোলোন সেন্টারে গুরাগারা লইয়া উরছি”।

নিদ্রারচরের কবির আকন জানান বন্যা নিয়ন্ত্রন বাঁধের বাহিরের সকল ঘর-বাড়ী পানিতে তলিয়ে গেছে। ওই সকল বাড়ীর লোকজন বন্যা নিয়ন্ত্রন বাঁধে ও সাইক্লোন সেল্টারে আশ্রয় নিয়েছে।

আবহাওয়াবিধ প্রদীপ চক্রবর্তী জানান লঘুচাপের কারনে সাগর বক্ষে প্রচুর মেঘ মেলা থাকায় প্রচুর বৃষ্টিপাত হচ্ছে। তিনি আরো জানান সোমবার ৩৫ মিলি মিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে।

শীর্ষ সংবাদ:
চামড়ার বাজারে ধস ॥ প্রধান চার কারণ চিহ্নিত         মানুষের উন্নত জীবন ধারা নিশ্চিত করাই মূল লক্ষ্য         ষড়যন্ত্রকারীদের অপচেষ্টার বিরুদ্ধে সতর্ক থাকুন ॥ কাদের         নরেন দাস ছিলেন বঙ্গবন্ধুর একনিষ্ঠ সৈনিক ॥ আইনমন্ত্রী         জুলাইয়ে রেমিটেন্সে রেকর্ড         টেকনাফে পুলিশের গুলিতে অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা নিহত         আজ শহীদ শেখ কামালের জন্মবার্ষিকী         এক সপ্তাহের মধ্যে বন্যার পানি কমবে         করোনা পরীক্ষার সংখ্যা কমলেও রোগী শনাক্তের হার বেড়েছে         আওয়ামী লীগ ও যুবলীগ নেতাসহ তিনজনকে কুপিয়ে হত্যা         ভ্যাকসিন পরীক্ষার জন্য চীনা কোম্পানির আবেদন         করোনায় চলে গেলেন টিভি ব্যক্তিত্ব বরকতউল্লাহ         খোরশেদ আলম সুজন চসিকের প্রশাসক         নেত্রকোনার ডিসি প্রত্যাহার         এমপিওভুক্ত স্কুল-কলেজ নিজস্ব জমিতে স্থানান্তরের নির্দেশ         ৯ আগস্ট থেকে একাদশ শ্রেণির ভর্তির অনলাইন কার্যক্রম শুরু         পুলিশের গুলিতে নিহত সাবেক মেজর সিনহার মাকে প্রধানমন্ত্রীর ফোন         করোনা চিকিৎসায় সহজ কোনো সমাধান নেই : ডব্লিউএইচও         পাপিয়ার বিরুদ্ধে সোয়া ৬ কোটি টাকার অবৈধ সম্পদের মামলা         বঙ্গবন্ধু বেঁচে থাকলে বাংলাদেশ অনেক আগেই উন্নত দেশে পরিণত হতো : প্রযুক্তিমন্ত্রী        
//--BID Records