ঢাকা, বাংলাদেশ   সোমবার ২০ মে ২০২৪, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

চাঁদপুরেও শীতে জবুথবু মানুষ

নিজস্ব সংবাদদাতা, চাঁদপুর 

প্রকাশিত: ১১:২৫, ১৩ জানুয়ারি ২০২৪

চাঁদপুরেও শীতে জবুথবু মানুষ

কুয়াশা ঢাকা পথঘাট

চাঁদপুর নদী উপকূলীয় ও চরাঞ্চলের লোকজনসহ অধিকাংশ খেটে খাওয়া মানুষ কনকনে শীতে জবুথবু প্রায়। বিশেষ করে খেটে খাওয়া মানুষগুলো কর্মের কারণে ঘর থেকে বের হতে হচ্ছে। তীব্র শীত উপেক্ষা করে কাজ করতে দেখাগেছে। জেলায় আজকে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৩.৮ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং সর্বোচ্চ তাপমাত্রাছিল ২০.০৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

শুক্রবার (১২ জানুয়ারি) সকাল থেকেই উত্তরাল হাওয়া বইতে শুরু করে। বেলা ১১টা থেকে বিকাল ৩টা পর্যন্ত সূর্যের তাপ ও আলো কিছুটা থাকলে এরপর আবার বাতাসের তীব্রতা বাড়তে থাকে। যার ফলে মানুষের স্বাভাবিক চলাফেরা ব্যহত হয়। শহরের যানবাহন কমে যায়। লোকজনও বেশীরভাগ প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের হয়নি।

সন্ধ্যায় শহরের পালপাড়া সড়কের মুখে বেশ কয়েকজন ব্যবসায়ীকে আগুন জালিয়ে একসঙ্গে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়। শহরের ট্রাকরোডে দেখাগেছে শীতের গরম জামাকাপড় বিক্রি করছেন এক হকার।

গত কয়েকদিন শীত থাকলেও বাতাস কম ছিল। আজকে বাতাসের তীব্রতা বেড়ে যাওয়ার কারণে শীতের কাপড়ের কদরও বেড়েছে।

ট্রাক রোডের ঔষধ ব্যবসায়ী মোস্তফা কামাল বলেন, এ বছরের মধ্যে আজকে বেশি শীত পড়ছে। মূলত বাতাসের কারণে শীত বেশী অনুভূত হচ্ছে।

শহরের পুরাণ বাজার এলাকার বাসিন্দা মিজানুর রহমান জানান, মেঘনা পাড়ের লোকজন শীতে খুবই নাজুক অবস্থা। আজকে পশ্চিমা বাতাসে মানুষের শীতের কষ্ট বেড়েছে।

চাঁদপুর আবহাওয়া অফিসের উচ্চ পর্যবেক্ষক শাহ মুহাম্মদ শোয়েব জানান, চলতি শীত মৌসুমে আজকে শীতের তীব্রতা বেড়েছে। আজকে জেলায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৩.৮ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং সর্বোচ্চ তাপমাত্রাছিল ২০.০৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। 

আজ সারাদেশে রাতের তাপমাত্রা সামান্য বৃদ্ধি পেতে পারে এবং দিনের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস পেতে পারে। 

 এসআর

×