ঢাকা, বাংলাদেশ   বুধবার ০১ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৯ মাঘ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

মাদারীপুরে চাঞ্চল্যকর দাদন হত্যা মামলার দুই আসামী গ্রেফতার

নিজস্ব সংবাদদাতা, মাদারীপুর

প্রকাশিত: ১১:৪৮, ৫ ডিসেম্বর ২০২২

মাদারীপুরে চাঞ্চল্যকর দাদন হত্যা মামলার দুই আসামী গ্রেফতার

দুই আসামীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৮

মাদারীপুরে চাঞ্চল্যকর দাদন হত্যা মামলার আরো দুই আসামীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৮  মাদারীপুর ক্যাম্পের একটি দল। শিবচরের চরশ্যামাইল এলাকায় দিন মজুর দাদন চোকদারকে নৃশংসভাবে কুপিয়ে হত্যা করে এক পা কেটে নিয়ে দুবৃত্তরা। হত্যাকান্ডের ঘটনায় রাকিব শেখ (১৭) ও সাগর শেখ (১৭) নামে আরো দুই পলাতক  আসামীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। 

রবিবার সন্ধার দিকে মাদারীপুর শহরের নতুন বাসস্ট্যান্ড এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। তারা দাদন চোকদার হত্যা মামলার এজাহার ভুক্ত আসামী। আটক রাকিব শেখ শিবচর পৌরসভার চরশ্যামাইল এলাকার আনোয়ার ওরফে আনু শেখের ছেলে ও সাগর শেখ একই এলাকার হালিম শেখের ছেলে। রবিবার রাত ১১ টার দিকে র‌্যাব-৮, সিপিসি-৩, মাদারীপুরের কোম্পানী কমান্ডার লেঃ কমান্ডার কে এম শাইখ আকতার স্বাক্ষরিত  গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

নিহতের পারিবারিক সুত্র জানায়, রবিবার দুপুরে ওই দুই আসামী মাদারীপুর আদালত এলাকায় ঘুরাঘুরি করছিলো। এসময় খবর পেয়ে র্যাব-৮ মাদারীপুর ক্যাম্পের একটি দল তাদের গ্রেফতার করে। পরে সন্ধার দিকে শিবচর থানায় সোপর্দ করেন। দাদন হত্যা মামলায় ১ বছরে মোট ১০ জন আসামীকে গ্রেফতার করতে পেরেছে আইন শৃঙ্খলা বাহিনী। মূল আসামী এখনো ধরা ছোঁয়ার বাইরে। তবে পুলিশ এখনো উদ্ধার করতে পারেনি নিহত দাদনের কেটে নেয়া পা।

নিহত দাদনের ছোট ভাই হত্যা মামলার বাদী পান্নু চোকদার বলেন, ‘আমার ভাইকে ওরা নৃশংসভাবে হত্যা করলো। মামলাটি বর্তমানে সিআইডিতে রয়েছে। তারা ২টি চার্জসীটের মাধ্যমে ১৬ জনকে আসামি চার্জসীট দিয়েছে। আজ ২ জনসহ  ১০ জন আসামী গ্রেফতার হলো। তবে এতদিনেও পুলিশ আমার ভাইয়ের কেটে নেয়া পা উদ্ধার করতে পারেনি।’

শিবচর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন  বলেন, ‘দাদন চোকদার হত্যাকান্ড আমাদের কাছে একটি পরিকল্পিত হত্যাকান্ড মনে হয়েছে। আমরা বেশ কয়েকজন আসামীকে ধরতে সক্ষম হয়েছি।আজ র্যাব-৮, মাদারীপুর ক্যাম্প ২ জন আসামীকে গ্রেফতার করেছে। তাদের সন্ধ্যার দিকে শিবচর থানায় সোপর্দ করে।’ 

 

টিএস

সম্পর্কিত বিষয়:

monarchmart
monarchmart