ঢাকা, বাংলাদেশ   বুধবার ০৫ অক্টোবর ২০২২, ২০ আশ্বিন ১৪২৯

জলবায়ুর বিরূপ প্রভাবে মোরেলগঞ্জের মানুষ দিশেহারা

সংবাদদাতা, মোরেলগঞ্জ, বাগেরহাট

প্রকাশিত: ০০:১৭, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২২

জলবায়ুর বিরূপ প্রভাবে মোরেলগঞ্জের মানুষ দিশেহারা

সম্প্রতি জোয়ারে বাঁধ উপচে পানি ঢুকছে লোকালয়ে

জলবায়ুর বিরূপ প্রভাবে অনাবৃষ্টি, খরা, নদী ভাঙ্গন, লবণাক্ততা, ভূগর্ভস্থ পানির স্তর ও নাব্য কমে পরিবেশের ভারসাম্যে বিঘ্ন ঘটছে । শঙ্কা কৃষি উৎপাদনে। রয়েছে সুপেয় পানির অভাব। প্রভাব পড়েছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও রাস্তাঘাটের ওপর। প্রতিবছরই বাড়িঘর, ফসলিজমি বিলীন হয়ে কর্মসংস্থানের তাগিদে অভিবাসন হচ্ছে এ উপকূলীয় অঞ্চলের শত শত পরিবার। সরকারী উদ্যোগে এ প্রতিকূলতা কাটিয়ে উঠতে না পারলে জীবনযাত্রার মান ব্যাহত হয়ে পড়বে।   
এ বিষয়ে উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ আকাশ বৈরাগী বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের বিরূপ প্রভাব কাটিয়ে উঠতে হলে এলাকাভিত্তিক ফসলের ক্ষেত্রে বন্যা, খরা সহনশীল জাত ও লবণাক্ত সহনশীল জাত ব্যবহার করতে হবে। পলি পড়ে ভরাট হয়ে যাওয়া খালগুলো পুনর্খনন, পর্যাপ্ত স্লুইস গেট নির্মাণ, টেকসই বেড়িবাঁধ নির্মাণ, রবি ফসলের জন্য ক্ষুদ্র পুকুর খননের ব্যবস্থা করা, বৃক্ষ রোপণ ও বজ্রপাতের হাত থেকে রক্ষা পেতে রাস্তার দু’ধারে পর্যাপ্ত তালগাছ রোপণ করতে হবে। এছাড়া নালা পদ্ধতিতে উঁচু জমিতে চাষাবাদ বৃদ্ধি করতে হবে।
উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ জাহাঙ্গীর আলম বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব কাটিয়ে উঠতে ইতোমধ্যে উপজেলার ৪টি ইউনিয়নে লজিক প্রকল্পের মাধ্যমে ইউনিয়ন পরিষদ কাজ করছে। ঘষিয়াখালী থেকে মোরেলগঞ্জ হয়ে সন্ন্যাসী পর্যন্ত বেড়িবাঁধের জন্য প্রধানমন্ত্রী একনেকে পাস করেছেন। বেড়িবাঁধ হলে লবণাক্ততা দূরীকরণ হবে এবং নতুন নতুন ফসল উৎপাদন করে অর্থনৈতিক পরিবর্তন ঘটবে বলে তিনি মনে করছেন।