৮ এপ্রিল ২০২০, ২৫ চৈত্র ১৪২৬, বুধবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
 
সর্বশেষ

ট্রেনে উঠতে গিয়ে প্রাণ হারালেন খুবির সাবেক অধ্যাপক

প্রকাশিত : ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২০
ট্রেনে উঠতে গিয়ে প্রাণ হারালেন খুবির সাবেক অধ্যাপক

স্টাফ রিপোর্টার, খুলনা অফিস ॥ ট্রেনে উঠতে গিয়ে প্রাণ হারিয়েছেন খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের (খুবি) সয়েল, ওয়াটার এ্যান্ড এনভায়রনমেন্ট ডিসিপ্লিন থেকে সদ্য অবসর গ্রহণকারী প্রফেসর ড. মিজানুর রহমান ভূঁইয়া (৬৫)। শনিবার সকালে খুলনা রেলস্টেশনে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

খুলনা রেলওয়ে থানার (জিআরপি) ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ ফয়েজুর রহমান জানান, সকাল পৌঁনে সাতটার দিকে খুলনা রেলস্টেশন থেকে বেনাপোলের উদ্দেশে কমিউটার ট্রেন ছেড়ে যাওয়ার সময় প্রফেসর ড. মিজানুর রহমান ভূঁইয়া দৌড়ে ট্রেনে ওঠার চেষ্টা করেন। এ সময় তিনি পা পিছলে ট্রেনের নিচে পড়ে যান। এতে তার ডান হাত ও ডান পা কাটা পড়ে। দ্রুত উদ্ধার করে খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠনো হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এ ঘটনায় জিআরপি থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে বলে জানান ওসি।

খুবি’র সয়েল, ওয়াটার এ্যান্ড এনভায়রনমেন্ট ডিসিপ্লিনের সাবেক ডিন প্রফেসর ড. শেখ মোস্তাসিমবিল্লাহ বলেন, ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহত প্রফেসর মিজানুর রহমান এই ডিসিপ্লিনের প্রতিষ্ঠাতা ছিলেন। চলতি মাসের ১ তারিখ তিনি অবসর গ্রহণ করেন। তার স্ত্রী ও দুই কন্যা সন্তান রয়েছে। নগরীর নিরালায় ভাড়া বাড়িতে সপরিবারে বসবাস করতেন। অবসরকালীন টাকা পেলে মুন্সীগঞ্জের নিজ বাড়িতে চলে যাওয়ার কথা জানিয়েছিলেন। খুবির জনসংযোগ ও প্রকাশনা বিভাগের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক এসএম আতিয়ার রহমান জানান, সকালে প্রফেসর ড. মিজানুর রহমান ভূঁইয়া যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলার গদখালীতে যাওয়ার উদ্দেশে বাসা থেকে বের হন। তিনি বেনাপোলগামী ট্রেনে ওঠার সময় দুর্ঘটনায় নিহত হন। বাদ জোহর খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় মসজিদের সামনে তার জানাজা শেষে তার মরদেহ গ্রামের বাড়ি মুন্সীগঞ্জ জেলার দেওভোগ নিয়ে যাওয়া হয়।

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ ফায়েক উজ্জামান বলেন, প্রফেসর মিজানুর রহমান সৎ, দক্ষ ও আদর্শবান শিক্ষক ছিলেন। তার মৃত্যুতে আমরা গভীর শোক প্রকাশ ও তার আত্মার মাগফিরাত কামনা করছি। একই সঙ্গে নিহত প্রফেসরের শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি।

ট্রেনে উঠতে গিয়ে বৃদ্ধার মৃত্যু

স্টাফ রিপোর্টার চট্টগ্রাম অফিস জানান, শনিবার সকালে চট্টগ্রাম রেলস্টেশনে ট্রেনে উঠতে গিয়ে পড়ে এক বৃদ্ধা প্রাণ হারিয়েছেন। তার নাম সায়রা বেগম (৫৫)। সকাল সাড়ে ১০টায় চট্টগ্রাম থেকে দোহাজারি গ্রামে ট্রেনে উঠতে গিয়ে ৯ নম্বর ফ্লাটফর্মে তিনি পড়ে যান। পড়ে যাওয়ার পর কাটা পড়ে তিনি প্রাণ হারান।

জিআরপি পুলিশ জানায়, ওই বৃদ্ধা বোয়ালখালী সারুয়াতলী ইউনিয়নের ভেঙ্গুরা খাজানগর গ্রামে থাকতেন। সকালে বাড়ি ফিরে যাওয়ার জন্য দুই নাতিকে নিয়ে তিনি স্টেশনে আসেন। ফ্লাটফর্মে অবস্থিত ট্রেন লাইন চেঞ্জ করার সময় তিনি বগিতে ওঠার চেষ্টা করে পড়ে যান। ওই সময় চেঞ্জরত ট্রেনের চাকায় তিনি কাটা পড়েন।

প্রকাশিত : ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২০

২৩/০২/২০২০ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



শীর্ষ সংবাদ: