৩১ মার্চ ২০২০, ১৭ চৈত্র ১৪২৬, মঙ্গলবার, ঢাকা, বাংলাদেশ
 
সর্বশেষ

ঝলক

প্রকাশিত : ২৪ জানুয়ারী ২০২০

এক ইউরোর বাড়ি

ইতালির বিসাকিয়া শহরে প্রায় ৯০ পরিত্যক্ত বাড়ি এক ইউরোতে বিক্রি করছে দেশটির সরকার। উদ্দেশ্য একটাই, ছবির মতো সুন্দর ওই শহরে আবারও গড়ে উঠুক জনবসতি। যাতে সেখানকার সংস্কৃতি রক্ষা করা সম্ভব হয়। ইতালির ক্যাম্পানিয়া প্রদেশে ছবির মতো সুন্দর শহর বিসাকিয়া। বিসাকিয়ার বাড়িগুলো বিলাসবহুল নয় বরং জরাজীর্ণ অবস্থায় পড়ে রয়েছে। শহরে সবসময়ই ছোট সম্প্রদায়ের মানুষ বসবাস করতেন। শহরের বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বার্ধক্য, বাসিন্দাদের বাসা বদল ও একের পর এক গুরুতর ভূমিকম্পের কারণে শহরটি আরও সঙ্কুচিত ও ফাঁকা হয়ে যায়। তবে শহরে বসবাসের আগে অবশ্যই বাড়িগুলোকে সংস্কার করতে হবে ক্রেতাকে। বিসাকিয়ার মেয়র ফ্রান্সেস্কো তারতাগিয়া জানান, শহরটি বাঁচিয়ে রাখতে হলে এখানে পরিবার ও বন্ধুবান্ধব গড়ে উঠতে হবে। নে সমস্যা জটিল। গ্রামের বেশিরভাগ এলাকাই এখন জনশূন্য। এখানে অধিকাংশ বাড়ির কয়েকটির প্রবেশপথও এক। তাই আমরা চাই, কোন পরিবার, বন্ধুদের দল বা আত্মীয়রা মিলে বাড়িগুলো কিনে নিক। তার ফলে পারিবারিক একটা জোট তৈরি হবে। প্রাণ ফিরবে বিসাকিয়ায়। গতবছর ইতালির সাম্বুকা শহরেও একই ধরনের প্রস্তাব ছিল। সাম্বুকার সামনেই রয়েছে মেডিটেরানিয়ান দ্বীপ ও বালির সমুদ্রসৈকত। সেখানে এক ডলারে বাড়ি বিক্রি হচ্ছিল। বহু বছর ধরে ওই অঞ্চলটি জনশূন্য হয়ে পড়ে রয়েছে, তাই নতুনভাবে শহর পুনরুদ্ধার করতেই ওই উদ্যোগ নেয়া হয়। -ইন্ডিয়া টুডে

শুধুই শাকসবজি

সুইজারল্যান্ডের দাভোসে গত মঙ্গলবার শুরু হয়েছে বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরামের (ডব্লিউইএফ) ৫০তম বার্ষিক সম্মেলন। বিশ্বের নানা প্রান্ত থেকে ৩ হাজারের মতো বিশ্বনেতা, নীতিনির্ধারক, প্রধান নির্বাহী (সিইও), প্রভাবশালী চিন্তাবিদ ও তারকারা যোগ দিয়েছেন ওই সম্মেলনে। এমন আয়োজনে প্রভাবশালী অতিথিদের জন্য আমিষসমৃদ্ধ নামীদামী খাবার থাকাটাই স্বাভাবিক। তবে এবার আর তাদের কোন প্রকার মুখরোচক খাবার পরিবেশন করা হবে না। শুধু নিরামিষ দিয়েই ভোজ সারতে হবে তাদের।

এই সম্মেলনে জলবায়ু পরিবর্তন, বিশ্ব অর্থনীতি, সামাজিক উন্নয়নসহ নানা বিষয় নিয়ে আলোচনা করার কথা রয়েছে নেতাদের। শুক্রবার পর্যন্ত চলবে সম্মেলন। জলবায়ু সঙ্কটের কথা চিন্তা করে এবারের সম্মেলনে মাছ, মাংসসহ আমিষজাতীয় সব খাবার বাতিল করা হয়েছে। নিরামিষ খাবার তৈরির জন্য বিশ্বের নামকরা সব নিরামিষ পাচকদের সেখানে নেয়া হয়েছে। এরই মধ্যে রয়েছেন কানাডার শেফ ডগ ম্যাকনিশ। জাতিসংঘের তথ্যমতে, বৈশ্বিক উষ্ণায়নের জন্য ১১ শতাংশ দায়ী কৃষি ও পশুসম্পদের অপব্যবহার। দাভোস সম্মেলনের আয়োজকেরা বলেছেন, যেহেতু জলবায়ু পরিবর্তন এই সম্মেলনের প্রধান আলোচ্য বিষয়, তাই সম্মেলনের প্রধান ভোজ অনুষ্ঠানে প্রথমবারের মতো মাংস ও মাছ বাদ রাখা হয়েছে। আর স্থানীয়ভাবে উৎপাদন কমে যাওয়ায় খাবারের তালিকায় কলা নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এই পদক্ষেপকে ‘ফিউচার ফুড ওয়েনেসডে’ হিসেবে অভিহিত করা হয়েছে। -রয়টার্স

প্রকাশিত : ২৪ জানুয়ারী ২০২০

২৪/০১/২০২০ তারিখের খবরের জন্য এখানে ক্লিক করুন

প্রথম পাতা



শীর্ষ সংবাদ:
করোনা ভাইরাস : ছুটি বাড়ানো হয়েছে ১১ এপ্রিল পর্যন্ত || গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আরও ২ জন করোনায় আক্রান্ত || সাতদিন ধরে রাজধানীবাসীর স্বাস্থ্য সুরক্ষায় জীবাণুনাশক ওষুধ ছিটাচ্ছে ডিএমপি || করোনা ভাইরাস : যানবাহন ও মানুষ চলাচল বাড়ায় সংক্রমণের ঝুঁকি বাড়ছে || করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় সবাইকে এগিয়ে আসার আহ্বান আতিকুলের || করোনা পরিস্থিতিতে সামনের দিনগুলো কঠিন : সাঈদ খোকন || করোনা ভাইরাস : বাড়িভাড়া আদায়ে সহানুভুতি হতে হবে : বাণিজ্যমন্ত্রী || ‘সচেনতনতা তৈরি করতে পেরেছি বলেই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে’ || গাজীপুরে ঘর থেকে স্বামী-স্ত্রী ও মেয়ের মরদেহ উদ্ধার || করোনা ভাইরাস নিয়ন্ত্রণে যেভাবে সফল হল দক্ষিণ কোরিয়া ||