ঢাকা, বাংলাদেশ   শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০

‘হেভিওয়েট’ অনেক প্রার্থী বাদ

মনোনয়নপত্র যাচাই বাছাই শেষ

স্বপ্না চক্রবর্তী

প্রকাশিত: ২৩:৫০, ৪ ডিসেম্বর ২০২৩

মনোনয়নপত্র যাচাই বাছাই শেষ

ড. শাম্মী আহমেদ, মাহিয়া মাহি, আব্দুল মান্নান, ডলি সায়ন্তনী, বজলুল হক হারুন, আব্দুচ সালাম, দিদারুল আলম, গিয়াস উদ্দিন, নুরুল ইসলাম সাজেদুল

নির্বাচনী ডামাডোলের প্রাথমিক পর্ব শেষ হলো সফলভাবে। দেশজুড়ে উৎসবমুখর পরিবেশে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার পর এবার শেষ হলো যাচাই-বাছাই প্রক্রিয়াও। সোমবার দিনভর দেশের বিভিন্ন আসনের নির্বাচনী কর্মকর্তারা মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই শেষে প্রার্থীদের প্রাথমিক তালিকা তৈরি করেন। এর মধ্যে মনোনয়নের সঙ্গে যুক্ত ভোটার তালিকায় অসঙ্গতি, ঋণখেলাপি, দ্বৈত নাগরিকত্ব, মামলার তথ্য গোপন, হলফনামায় স্বাক্ষর না থাকা, আয়কর বিবরণীর তথ্য জমা না দেওয়াসহ নানা কারণে বাতিল হয় অনেক মনোনয়নপত্র।

শুধু ঢাকার ২০টি আসনেই বাতিল হয়েছে ৭৮টি মনোনয়নপত্র। এমনকি বাতিলের তালিকায় আছেন ‘হেভিওয়েট’ অনেক প্রার্থীও। বরিশাল-৪ আসনের নৌকার প্রার্থী ড. শাম্মী আহমেদ, স্বতন্ত্র প্রার্থী ডলি সায়ন্তনীসহ হয়েছেন অনেক আলোচিত প্রার্থী। তবে তাদের জন্য থাকছে আপিলের সুযোগ। যা আজ মঙ্গলবার থেকে শুরু হবে। 
বাছাই শেষে সারাদেশে বৈধ মনোনয়নপত্রের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৯৮৫। আর ৭৩১ প্রার্থীকে অবৈধ ঘোষণা করা হয়েছে। মনোনয়নপত্র জমা দেওয়া মোট প্রার্থী ছিলেন ২ হাজার ৭১২।
নির্বাচন কমিশনের (ইসি) আইন শাখার উপ-সচিব মো. আব্দুছ সালাম সোমবার জনকণ্ঠকে জানান, আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই শেষ হয়েছে আজ (সোমবার)। কাল মঙ্গলবার (আজ) থেকে শুরু হবে আপিল গ্রহণ। তিনি বলেন, গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ ও নির্বাচন পরিচালনা বিধিমালা অনুযায়ী, মনোনয়নপত্র বাতিল ও গ্রহণাদেশের বিরুদ্ধে কোনো প্রার্থী বা ব্যাংক বা আর্থিক প্রতিষ্ঠান রিটার্নিং অফিসারের আদেশে সংক্ষুব্ধ হয়ে মনোনয়নপত্র বাছাইয়ের পরবর্তী পাঁচ দিনের মধ্যে অর্থাৎ ৫ ডিসেম্বর থেকে ৯ ডিসেম্বর পর্যন্ত (সকাল সাড়ে ১০টা থেকে বিকেল ৪টার মধ্যে) নির্বাচন কমিশন বরাবর স্মারকলিপি আকারে (আপিলের মূল কাগজপত্র এক সেট ও ছায়ালিপি ছয় সেটসহ) আপিল দায়ের করতে পারবেন। এজন্য ১০টি অঞ্চলের জন্য ১০টি বুথ করা হয়েছে নির্বাচন ভবনে। ১০ কর্মকর্তার কাছে আপিল আবেদন জমা দিতে হবে। তিনি আরও জানান, ১০ ডিসেম্বর থেকে ১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত প্রতিদিন ১০০টি করে আপিল শুনানি হবে ক্রমানুসারে। 
জানা যায়, আপিল আবেদনগুলো শুনানি শেষে ফল মনিটরে প্রদর্শন, রায়ের পিডিএফ কপি ও আপিলের সিদ্ধান্ত রিটার্নিং অফিসারসহ সংশ্লিষ্ট পক্ষের ই-মেল অ্যাকাউন্টে পাঠানোর পাশাপাশি নির্বাচন কমিশনের ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হবে। এ ছাড়া আপিলের রায়ের অনুলিপি একটি নির্দিষ্ট সিডিউল মোতাবেক নির্বাচন ভবনের অভ্যর্থনা ডেস্ক থেকে দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তার মাধ্যমে বিতরণ করা হবে। অন্যদিকে রায়ের অনুলিপি আবেদনের ভিত্তিতে বিতরণ করা হবে।
ইসির তথ্যমতে, এবারের সংসদ নির্বাচনে ২৯টি দল ও স্বতন্ত্র মিলিয়ে দুই হাজার ৭১২ প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছিলেন। ইসি ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, মনোনয়নপত্র বাছাই চলে সোমবার পর্যন্ত।

ঢাকা বিভাগের ২০টি নির্বাচনী আসন থেকে নির্বাচনে অংশ নিতে আওয়ামী লীগ, জাতীয় পার্টিসহ বিভিন্ন দলের ২৩৪ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র সংগ্রহ ও দাখিল করেন। দাখিলকৃত এসব মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই শেষে ৭৮ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র সোমবার বাতিল ঘোষণা করে ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার ও রিটার্নিং অফিসার সাবিরুল ইসলাম এবং ঢাকা জেলা প্রশাসক ও জেলার পাঁচটি আসনের রিটার্নিং কর্মকর্তা আনিসুর রহমান। সোমবার সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত নিজ নিজ কার্যালয়ে প্রার্থীদের উপস্থিতিতে পর্যায়ক্রমে প্রার্থিতা বাতিল এবং বাতিল করার কারণ তুলে ধরে জানান, ঢাকা-৪ থেকে ঢাকা-১৮ আসন পর্যন্ত মোট ১৫টি আসন থেকে বিভিন্ন দলের ১৮৮ জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন।

এর মধ্যে যাচাই-বাছাই শেষে ৬৪ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। বাকি ১২৪ জনের মনোনয়নপত্র বৈধ। ঋণখেলাপির কারণে বিভিন্ন দলের ১৫ জন, এক শতাংশ ভোটারের সমর্থন না থাকায় স্বতন্ত্র ২৯ প্রার্থীর এবং সঠিকভাবে ফরম পূরণ না করাসহ আনুষঙ্গিক কারণে আরও ২০ জনের প্রার্থিতা বাতিল করা হয়। ঢাকা-১, ২, ৩, ১৯ এবং ২০ আসন থেকে ৪৬ জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেন এর মধ্যে যাচাই-বাছাই শেষে ১৪ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়। বাকি ৩২ জনের মনোনয়নপত্র বৈধ। 
এদিকে দ্বৈত নাগরিকত্বের কারণে মনোনয়নপত্র বাতিল হয় বরিশাল-৪ আসনের নৌকার প্রার্থী ড. শাম্মী আহমেদের। এছাড়াও দেশজুড়ে মনোনয়নপত্র বাতিল হওয়া ‘হেভিওয়েট’ প্রার্থীদের মধ্যে আরও রয়েছেন, চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি, বিকল্পধারার মাহসচিব আব্দুল মান্নান, কৌতুক অভিনেতা চিকন আলী, ইসলামী ঐক্যজোটের মাওলানা আশরাফ আলী, এমপি বজলুল হক হারুন, চট্টগ্রাম-৩ প্রার্থী আবদুস সালাম, দিদারুল আলম, গিয়াস উদ্দিন, আব্দুল লতিফ বিশ্বাসের জামাতা নুরুল ইসলাম সাজেদুলসহ আরও অনেকের। 
জনকণ্ঠের প্রতিনিধিদের পাঠানো তথ্যের ভিত্তিতে জানা যায়, দ্বৈত নাগরিকত্ব থাকায় বরিশাল-৪ (হিজলা- মেহেন্দীগঞ্জ) আসনের নৌকার প্রার্থী আওয়ামী লীগের আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ড. শাম্মী আহমেদের মনোনয়ন বাতিল করে নির্বাচন কমিশন। সোমবার বিকেলে জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক শহীদুল ইসলাম জেলা প্রশাসনের সভা কক্ষে দ্বিতীয় দিনের শুনানি শেষে এ ঘোষণা দেন। এ সময় জেলা প্রশাসক জানান, জনপ্রতিনিধিত্ব আদেশ ১৯৭২ অনুসারে প্রার্থী হতে হলে দ্বৈত নাগরিকত্ব অগ্রহণযোগ্য। আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ড. শাম্মী আহমেদের দ্বৈত নাগরিকত্ব থাকায় তার মনোনয়ন বাতিল করা হয়েছে। এছাড়া আরও ১০ জনের মনোনয়ন বাতিল করা হয় এ সময় মোট ৫৫ জন মনোনয়ন প্রত্যাশীর মধ্যে বৈধতা পান ৪৫ প্রার্থী।
এছাড়া একই দিন, নওগাঁ-৩ আসনে স্বতন্ত্রপ্রার্থী কৌতুক অভিনেতা শামিনুর রহমান ওরফে চিকন আলীসহ পাঁচ প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল করেন রিটার্নিং কর্মকর্তা। 
মানিকগঞ্জের সব আসনে লাঙল প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল ॥ মানিকগঞ্জের তিন আসনে জাতীয় পার্টির সব প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল হয়েছে। জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং কর্মকর্তা রেহেনা আক্তার তাদের মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করেন। তিনি জানান, ঋণখেলাপি ও গ্যাস বিল বকেয়া থাকায় তাদের মনোনয়ন বাতিল করা হয়।  
ডলি সায়ন্তনীসহ পাবনার ৫ আসনের ৩ মনোনয়নপত্র বাতিল, বৈধ ৩৪ ॥ পাবনার ৫টি সংসদীয় আসনের জন্য মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন ৩৭ জন। ৩৭টি মনোনয়নপত্রের মধ্যে ৩টি বাতিল ও ৩৪টি বৈধ ঘোষণা দিয়েছেন জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক মু. আসাদুজ্জামান। তিনি সাংবাদিকদের জানান, জেলাতে ৫ আসনের জন্য ৩৭টি মনোনয়নপত্র জমা পড়েছিল। 
লক্ষ্মীপুরে বিকল্পধারার মান্নানের মনোনয়ন বাতিল ॥ লক্ষ্মীপুর-৪ (রামগতি ও কমলনগর) আসন থেকে ঋণখেলাপির অভিযোগে বিকল্পধারার মহাসচিব আব্দুল মান্নানের মনোনয়ন বাতিল করা হয়েছে। সোমবার দুপুরে জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক সুরাইয়া জাহান বিষয়টি নিশ্চিত করেন। রিটার্নিং কর্মকর্তা জানান, ক্রেডিট ইনফরমেশন ব্যুরোর (সিআইবি) প্রতিবেদন অনুযায়ী মেজর (অব.) আব্দুল মান্নানের বিরুদ্ধে বিভিন্ন ব্যাংকে ঋণখেলাপির অভিযোগ রয়েছে। এ ছাড়া, তিনি তিন কোটি ২৯ লাখ টাকার ট্যাক্স পরিশোধ করেননি। এসব অভিযোগে তার মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে।
বাছাইয়ে আটকে গেলেন জামাতা, বৈধ শ্বশুর ॥ সিরাজগঞ্জ-৫ (চৌহালী-বেলকুচি) আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন না পেয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়েছেন সাবেক মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী আব্দুল লতিফ বিশ্বাস ও তার মেয়ের জামাতা নুরুল ইসলাম সাজেদুল। তবে বাছাইয়ে এসে বাদ পড়েছেন নুরুল ইসলাম সাজেদুল। শতকরা এক ভাগ ভোটারে স্বাক্ষর গরমিল থাকায় তার মনোনয়ন বাতিল করা হয়। 
আপিল করবেন মাহিয়া মাহি ॥ আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে রাজশাহী-১ (গোদাগাড়ী-তানোর) আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন ঢাকাই সিনেমার চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি। তবে যাচাই-বাছাই শেষে গত রবিবার তার মনোনয়নপত্র বাতিল করে দেন রিটার্নিং কর্মকর্তা।

×