ঢাকা, বাংলাদেশ   মঙ্গলবার ০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ২২ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

নেতাকর্মীদের প্রতি ওবায়দুল কাদের

সারাদেশে মন্দিরে মণ্ডপে সতর্ক পাহারায় থাকতে হবে

বিশেষ প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ২৩:৫৪, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২

সারাদেশে মন্দিরে মণ্ডপে সতর্ক পাহারায় থাকতে হবে

মন্দিরে-মণ্ডপে

মন্দিরে-মণ্ডপে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের সতর্কভাবে পাহারা দেয়ার নির্দেশ দিয়েছেন দলটির সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, সাম্প্রদায়িক শক্তি প্রকাশ্যে যতটা নিষ্ক্রিয়, ভেতরে ভেতরে ততটা সক্রিয় আছে। সনাতন ধর্মাবলম্বীদের দুর্গাপূজা উপলক্ষে আগের বছরের বিভিন্ন ধরনের অনাকাক্সিক্ষত ঘটনার প্রেক্ষিতে এবার সরকার সতর্ক রয়েছে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পাশাপাশি মন্দিরে মন্দিরে, ম-পে ম-পে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের সতর্কভাবে পাহারা দিতে হবে।
শুক্রবার রাজধানীর আওয়ামী লীগ সভাপতির ধানমণ্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে পূজা উদ্যাপন কমিটির নেতাদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় ওবায়দুল কাদের এ নির্দেশ দেন। তিনি বলেন, এই দুর্গোৎসবে সক্রিয়ভাবে দরকার হলে মন্দিরে মন্দিরে পাহারায় থাকার জন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পাশাপাশি নেতাকর্মীরা থাকবে এটা আশা করি। সতর্ক ও সক্রিয়ভাবে থেকে সব ধরনের উদ্বেগ দূর করার আহ্বান জানাচ্ছি।
ওবায়দুল কাদের বলেন, গতবারের দুর্ভাগ্যজনক অভিজ্ঞতা থেকে সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। সারাদেশের মন্দিরে মন্দিরে, ম-পে ম-পে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের সতর্কভাবে পাহারা দিতে হবে, শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে নির্দেশ দিচ্ছি। আওয়ামী লীগ মনেপ্রাণে, চিন্তা-চেতনায় একটি অসাম্প্রদায়িক দল এবং আমাদের প্রায় প্রতিদিনের বক্তব্যে আমাদের অসাম্প্রদায়িক চেতনার যে বিষয়টি আমরা ধারণ করি এবং সভা-সমাবেশে, বিক্ষোভে দৃঢ় কণ্ঠে উচ্চারণে আমরা কখনও দ্বিধাগ্রস্ত হই না।
সনাতন ধর্মাবলম্বীদের উদ্দেশ করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, আপনারা আতঙ্কিত হবেন না, উদ্বিগ্ন হবেন না। আমরা আপনাদের পাশে আছি। তিনি বলেন, শেখ হাসিনার সরকারের ১৩ বছরের মধ্যে গতবার ব্যতিরেকে কোন অনাকাক্সিক্ষত ঘটনা ঘটেনি। ১২ বছর কোন দুর্গাপূজায় সামান্যতম কোন বিশৃঙ্খলা বলুন, সন্ত্রাস বলুন, কোন ঘটনাই ঘটেনি। মাঝে মাঝে কিছু কিছু ঘটনা ঘটেছে। গতবার সতর্কতার একটা ঘাটতি ছিল।
ওবায়দুল কাদের বলেন, সাম্প্রদায়িক শক্তি, জঙ্গীবাদী শক্তি, তারা বাইরে তাদের যতটা নিষ্ক্রিয় মনে হয়,  ভেতরে ভেতরে তারা তার চেয়ে সক্রিয়। এ রকম একটা বাতাবহ দেশে আছে। অস্বীকার করার উপায় নেই। কুমিল্লায় যেটা ঘটেছে বীভৎস, চৌমহনীতে যা ঘটেছে তা আরও ভয়ানক। এছাড়া রংপুরে, সিলেটে, সুনামগঞ্জের নাসিরনগরের ঘটনা অনেক ঘটনা ঘটেছে। বিভিন্ন দলীয় পরিচয়ে দুর্বৃত্তরা এই ধরনের ঘটনা ঘটায়। আমি মনে করি যারা এই ধরনের ঘটনা ঘটায়, যে পরিচয়েই হোক তাদের একমাত্র পরিচয় হচ্ছে তারা দুর্বৃত্ত।
সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, আমরা পরিষ্কারভাবে বলতে চাই, সনাতন ধর্মাবলম্বীরা তাদের সবচেয়ে বড় যে উৎসব সেই উৎসবকে সামনে রেখে আতঙ্কে থাকবে, উদ্বিগ্ন থাকবে, এটা হতে পারে না। হিন্দু-মুসলমান-বৌদ্ধ-খ্রীস্টান সবার ভোটেরই মূল্য সমান। আপনারাও ভোটার, এদেশের নাগরিক। আপনারা দ্বিতীয়, তৃতীয় শ্রেণীর নাগরিক এটা কারোরই মনে করা উচিত না। কারও ভোটের মূল্য বেশি কারও ভোটের মূল্য কম নয়।
এ মতবিনিময় সভায় আওয়ামী লীগের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক এ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস এমপি, সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল এমপি, দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
আওয়ামী লীগের শিকড় অনেক গভীরে ॥ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, আওয়ামী লীগের হাঁটু ভাঙবে না, কোমরও ভাঙবে না। আওয়ামী লীগের জন্ম এই মাটিতে, এই দলের শিকড় অনেক গভীরে। আওয়ামী লীগ এই মাটি থেকে উঠে আসা দল। এই মাটিতে যার জন্ম তার কোমর ভাঙবে না। আমি ভুল করিনি, ফখরুল সাহেব ভুল করেছেন।  
শুক্রবার আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্মদিন উপলক্ষে আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপকমিটি আয়োজিত আলোচনা সভা ও ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের ছাত্র-ছাত্রীর মধ্যে শিক্ষা উপকরণ বিতরণ অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। বাংলা একাডেমি অডিটরিয়ামে এ আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।  
আওয়ামী লীগের সভাপতিম-লীর সদস্য বেগম মতিয়া চৌধুরীর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় দলের সভাপতিম-লীর সদস্য আব্দুর রহমান, বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক কবি নুরুল হুদা, আওয়ামী লীগের কৃষি ও সমবায় বিষয়ক সম্পাদক ফরিদুন্নাহার লাইলী, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপকমিটির সদস্য সচিব সুজিত রায় নন্দী,  কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য মারুফা আক্তার পপি প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।
‘আওয়ামী লীগের হাঁটু ভেঙ্গে গেছে’-বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের এমন বক্তব্যের জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রের অনুষ্ঠানে বলেছিলাম কোমর ভাঙ্গা বিএনপি, হাঁটু ভাঙ্গা বিএনপি লাঠির ওপর ভর করেছে। দেখলাম বিএনপির ফখরুল সাহেব তার জবাব দিয়েছেন। তিনি বলেছেন আওয়ামী লীগের নাকি হাঁটু ভেঙ্গে গেছে! মির্জা ফখরুল সাহেব হয়ত ভুলে গেছেন এটা আমার কথা না, এটা তাদের থিঙ্ক ট্যাঙ্ক গণস্বাস্থ্যে জাফরুল্লাহ চৌধুরী এ কথা বলেছেন। বার বার বলেছেন কোমর ভাঙ্গা বিএনপি, হাঁটু ভাঙ্গা বিএনপি। আমি তাদের কথাই স্মরণ করিয়ে দিলাম হাঁটু ভাঙ্গা দল লাঠির ওপর ভর করেছে।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়ন ও অবদান তুলে ধরে ওবায়দুল কাদের বলেন, দুর্যোগে আলো হাতে আমাদের বর্ণিল ঠিকানা শেখ হাসিনা। তিনি ধ্বংসস্তূপের ওপর বার বার সৃষ্টির পতাকা উড়িয়েছেন। ১৩ বছর আগের বাংলাদেশ আর আজকের বাংলাদেশ এক নয়। এদেশে যুদ্ধাপরাধের বিচার করা কি সহজ ছিল? তিনি বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচার করে আমাদের পাপ মোচন করেছেন। জনগণের কল্যাণ, ভাগ্য উন্নয়নের জন্যই শেখ হাসিনার জন্ম হয়েছে।

monarchmart
monarchmart