বৃহস্পতিবার ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০২ ডিসেম্বর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

সাজাভোগের ভয়ে ৮ বছর আত্মগোপন ॥ অবশেষে কারাগারে বৃদ্ধ

সাজাভোগের ভয়ে ৮ বছর আত্মগোপন ॥ অবশেষে কারাগারে বৃদ্ধ

স্টাফ রিপোর্টার, দিনাজপুর ॥ দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটে আট বছর ধরে নিখোঁজের নামে আত্মগোপনে থেকে অপহরণ নাটক সাজানোর পর আইমুদ্দিন হোসেন (৬২) নামে এক ব্যক্তিকে আটক করেছে পুলিশ। জালিয়াতির মামলায় তার দুই বছর সাজা হওয়ায় আদালতের মাধ্যমে সোমবার বিকালে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। এর আগে রবিবার মধ্যেরাতে ঘোড়াঘাট থানার পুলিশ মুন্সীগঞ্জের লৌহজং থানার নয়াগাঁও এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে। আইমুদ্দিন হোসেন উপজেলার রুপসীপাড়া (ভেকসি) গ্রামের মৃত কিসমতুল্লাহর ছেলে। ২০১৩ সালের ১৮ মার্চ থেকে তিনি আত্মগোপনে ছিলেন।

পুলিশ জানায়, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আইমুদ্দিন স্বীকার করেছেন, ২০১৩ সালে স্বেচ্ছায় আত্মগোপনের পর ঘোড়াঘাট থেকে পালিয়ে তিনি প্রথমে বগুড়া এবং পরে পাবনা জেলার সাঁথিয়া থানার কাশিনাথপুর এলাকায় দীর্ঘদিন অবস্থান করেন। সেখানে থাকাকালে চর অঞ্চলের কিছু লোকের সঙ্গে তার পরিচয় হয় এবং সেই সূত্রে তিনি মানিকগঞ্জ জেলার দৌলতপুর থানার বাকুটিয়া চরে স্থায়ীভাবে বসবাস শুরু করেন। সেখানে স্থানীয় এক নারীকে বিয়ে করে তিনি বসবাস করছিলেন।

ঘোড়াঘাট থানার ওসি আবু হাসান কবির সোমবার সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের জানান, ‘২০১৩ সালে আইমুদ্দিন প্রতিবেশী মোজাহার আলীর কাছে ৪২ শতক জমি বিক্রির জন্য চুক্তি করেন। চুক্তি অনুযায়ী মোজাহার চার লাখ ২০ হাজার টাকা আইমুদ্দিনকে দেন। তবে জমি রেজিস্ট্রি করতে গেলে মোজাহার দেখতে পান কাগজে ৪২ শতকের পরিবর্তে ৩৬ শতক লেখা। এ নিয়ে দু’পক্ষের মাঝে বাকবিতন্ডা হয়। পরে আইমুদ্দিন কৌশলে ওই জমি ছেলেমেয়ের নামে লিখে দিয়ে আত্মগোপন করেন। পরে তার ছেলে আব্দুল আজিজ মোজাহারকে ফাঁসাতে আদালতে গিয়ে মিথ্যা অপহরণের অভিযোগ এনে মামলা করেন।’ ওসি আরও জানান, ‘মোজাহার আলী জমি ক্রয়ে জালিয়াতির অভিযোগ এনে যে মামলা করেছিলেন, সেই মামলায় আত্মগোপনে থাকা আইমুদ্দিনের দুই বছর সাজা হয়েছে। তাকে গ্রেফতার দেখিয়ে সোমবার বিকালে আদালতের মাধ্যমে তাকে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।’

শীর্ষ সংবাদ:
বন্দুকযুদ্ধে কুমিল্লায় কাউন্সিলর হত্যার প্রধান আসামি শাহ আলম নিহত         গণমুখী প্রশাসন ॥ স্বাধীনতার ৫০ বছরে বড় অর্জন         ছাত্রদের কাজ লেখাপড়া, রাস্তায় নেমে যান ভাংচুর নয়         উন্নয়নে পাকিস্তানকে পেছনে ফেলেছে বাংলাদেশ         ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় নেতৃত্বের ভূমিকায় থাকবে         ১১ খাতে বিপুল বিনিয়োগ আসার সম্ভাবনা         ঐতিহাসিক পার্বত্য শান্তি চুক্তিতে বদলে গেছে পাহাড়         রামপুরায় ছাত্র বিক্ষোভ, মতিঝিলে গাড়ি ভাংচুর         দেশের প্রথম বর্জ্য বিদ্যুত কেন্দ্র অবশেষে বাস্তবায়ন হচ্ছে         বাল্যবিয়ে রোধে কাজীদের সচেতন করতে প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে         হত্যা মিশনে ব্যবহৃত গুলি-অস্ত্র উদ্ধার         শ্রদ্ধা ভালবাসায় জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলামের চিরবিদায়         সুপ্রীমকোর্টে শারীরিক উপস্থিতিতে বিচার কাজ শুরু         খালেদা জিয়াকে স্তব্ধ করে দিতে চায় সরকার ॥ ফখরুল         মুক্তিপণের টাকা আদায় হচ্ছিল মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে         সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে লাল সবুজের মহোৎসবে মুখরিত হাতিরঝিল         ৯০ কার্যদিবসে সম্প্রীতি বিনষ্টের মামলা নিষ্পত্তি করতে হবে         এইচএসসি ও আলিম পরীক্ষা উপলক্ষে যে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে ডিএমপি         আন্তর্জাতিক বাজারে তেলের দাম কমলে ব্যবস্থা নেবো : অর্থমন্ত্রী         হৃদরোগ ঝুঁকি হ্রাসে সরকারের যুগান্তকারী পদক্ষেপ