বৃহস্পতিবার ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০২ ডিসেম্বর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

হঠাৎ বন্যায় তিস্তাপাড়ের ১৫ হাজার মানুষ পানিবন্দী

হঠাৎ বন্যায় তিস্তাপাড়ের ১৫ হাজার মানুষ পানিবন্দী

নিজস্ব সংবাদদাতা, রংপুর ॥ ভারত গজলডোবা ব্যারাজের সব গেট খুলে দেয়ায় উজান নেমে থেকে আসা ঢলে তিস্তা নদীর পানি ব্যাপকভাবে বেড়েছে। এতে রংপুরে তীরবর্তী চরের প্লাবিত নিম্নাঞ্চলে পানি ঢুকে ফসলী জমি এবং বসতভিটা পানিতে তলিয়ে গেছে। জেলার তিস্তা নদীবেষ্টিত গঙ্গাচড়া, কাউনিয়া ও পীরগাছা উপজেলার অন্তত ১৫ হাজার মানুষ পানিবন্দী হয়ে আছে। নদীতীরবর্তী এলাকায় আকস্মিক বন্যা দেখা দিয়েছে। তবে বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) সকাল থেকে পানি বিপৎসীমার নিচ দিয়ে বইছে। আকস্মিক এ বন্যায় তলিয়ে গেছে রাস্তাঘাট, আবাদি জমিসহ ধান, আলু, শাকসবজি ও অন্যান্য ফসলের ক্ষেত। পানির তীব্র স্রোতে নদীভাঙনের ফলে সড়কপথেও ভাঙন শুরু হয়েছে।

ইতোমধ্যে রংপুর-লালমনিরহাট জেলার আঞ্চলিক সড়কের একটি অংশ ধসে গেছে। বন্ধ হয়ে গেছে রংপুরের গঙ্গাচড়ার মহিপুর শেখ হাসিনা সেতু থেকে লালমিনরহাটের কালীগঞ্জ কাকিনা পর্যন্ত সড়কপথে যোগাযোগ। এ ছাড়া বিভিন্ন চর এলাকায় স্বেচ্ছাশ্রমে নির্মিত বাঁধগুলো ঝুঁকিতে রয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) সকালে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, গঙ্গাচড়া উপজেলার পাঁচ ইউনিয়নের অন্তত ১০ হাজার মানুষ পানিবন্দী হয়ে পড়েছে। নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হওয়ায় অনেকেই উঁচু স্থানে ও বাঁধের ওপরে আশ্রয় নিয়েছেন। কাউনিয়া উপজেলার বালাপাড়া ইউনিয়নের চর ঢুষমারা, গদাই, পাঞ্জরভাঙ্গাসহ তিস্তা নদীতীরবর্তী বেশ কিছু গ্রামে পানি ঢুকে পড়েছে। এতে সেখানকার অন্ততঃ দুই হাজারের বেশি মানুষ পানিবন্দী হয়ে পড়েছে। একই চিত্র পীরগাছা উপজেলায়।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) রংপুর কার্যালয়ের নির্বাহী প্রকৌশলী আহসান হাবিব বলেন, দেশের উজানে ভারতের সিকিম, দার্জিলিং, জলপাইগুড়িতে ভারী বৃষ্টিপাত হয়েছে। সেখান থেকে ভাটির দিকে ধেয়ে আসা পানিতে ফুলেফেঁপে উঠেছে তিস্তা। পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে তিস্তা ব্যারাজের সব কটি (৪৪টি) জলকপাট খুলে রাখা হয়েছে।

ডালিয়া পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী আসফাউদ্দৌলা প্রিন্স বলেন, টানা বৃষ্টি ও উজানের পাহাড়ি ঢলে ডালিয়া পয়েন্টে তিস্তা নদী বেড়েছে। বন্যার পানি সামাল দিতে ব্যারাজের ৪৪টি স্লুইসগেট (জলকপাট) খুলে রাখা হয়েছে। আমরা সতর্ক অবস্থায় আছি। বিভিন্ন স্থানে খোঁজখবর রাখছি। তিস্তা অববাহিকায় রেড অ্যালার্ট জারি করে মানুষজনকে নিরাপদে আশ্রয় নিতে বলা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে পানি কমতে শুরু করেছে। বর্তমানে বিপৎসীমার ৪০ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে পানি প্রবাহিত হচ্ছে।

রংপুর জেলা প্রশাসক আসিব আহসান বলেন, ‘বুধবার বন্যাকবলিতদের ২০ টন চাল ও ৫০০ প্যাকেট শুকনা খাবার দেয়া হয়েছে। আমাদের কাছে পর্যাপ্ত ত্রাণ রয়েছে। প্রয়োজন অনুযায়ী ত্রাণ বিতরণ করা হবে।’

শীর্ষ সংবাদ:
ফোর্বসের 'থার্টি আন্ডার থার্টি'র তালিকায় বাংলাদেশি তরুণী         মার্কিন বিনিয়োগকারীদের দেশে বিনিয়োগ করতে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর আহ্বান         বিএনপি আইন-আদালতের কোনো তোয়াক্কা করছে না ॥ কাদের         অনুমতি ছাড়া ব্যক্তিগত পোস্ট শেয়ার নিষিদ্ধ করল টুইটার         বাংলাদেশ আর পেছাবে না, সামনে এগিয়ে যাবে ॥ প্রধানমন্ত্রী         ওমিক্রন ছড়ানো দেশগুলোর তালিকায় এবার যুক্ত হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের নাম         ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রীর চেক ফেরত দিল ব্যাংক, ফেসবুকে ক্ষোভ         রাজশাহী কারাগারে মেয়র আব্বাসের ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন         রাজশাহীতে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় তিনজনের মৃত্যু         সাভারে ৬ শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে হত্যা মামলার রায়ে ১৩ জনের মৃত্যুদণ্ড         রাঙ্গামাটির সাজেকে পুড়েছে রিসোর্ট, রেস্তোরাঁ ও বসতবাড়ি         সিটি করপোরেশনের গাড়ির ধাক্কায় বৃদ্ধা আহত, চালক আটক         ডি কাপলড সিরিজে মাধবনের সঙ্গে দেখা যাবে মীরকে         ওমিক্রন পরিস্থিতি খারাপ হলে বন্ধ হতে পারে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান         শুরু হলো এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষা         ওসি প্রদীপসহ আসামিদের আত্মপক্ষ সমর্থনে সাফাই সাক্ষী দেয়ার সুযোগ         বেনজেমার একমাত্র গোলে রিয়াল মাদ্রিদের জয়         গত ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে করোনায় মারা গেছেন ৮ হাজার ১৭৬ জন         বন্দুকযুদ্ধে কুমিল্লায় কাউন্সিলর হত্যার প্রধান আসামি শাহ আলম নিহত