সোমবার ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৯ নভেম্বর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

ঐক্যবদ্ধ আমেরিকার ডাক

ঐক্যবদ্ধ আমেরিকার ডাক
  • রিপাবলিকান পার্টির কনভেনশনে ট্রাম্পকে পুনর্নির্বাচিত করার আহ্বান মেলানিয়ার

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচন সামনে রেখে ক্ষমতাসিন রিপাবলিকান পার্টির জাতীয় কনভেনশনের দ্বিতীয় দিন ডোনাল্ড ট্রাম্পের স্ত্রী মেলানিয়া ট্রাম্প বক্তব্য রাখেন। এ সময় ট্রাম্পকে দ্বিতীয়বার সুযোগ দিতে মার্কিন ভোটারদের আহ্বান জানান তিনি। হোয়াইট হাউজের রোজ গার্ডেন থেকে দেয়া ওই অনলাইন বক্তব্য নর্থ ক্যারোলাইনার শার্লট শহরে অনুষ্ঠিত রিপাবলিকান কনভেনশনে সরাসির প্রচার হয়। একই দিন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও, ট্রাম্পের মেয়ে টিফানিসহ পরিবারের অন্য সদস্যরাও বক্তব্য রাখেন। মঙ্গলবার রাতে দেয়া বক্তব্যে মার্কিন ফার্স্টলেডি মেলানিয়া, স্বামী ট্রাম্পের পক্ষে ভোট চান। একই সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রে চলমান বর্ণবাদ বিরোধী আন্দোলন, সহিংসতা ও লুটপাট বন্ধের আহ্বান জানান। ডোনাল্ড ট্রাম্পকে সাহস দিয়ে সাবেক সুপার মডেল মেলানিয়া বলেন, আপনি (ট্রাম্প) একা নন। আপনি দেশের জন্য লড়ছেন।

মেলানিয়া বলেন, যুক্তরাষ্ট্রে চলমান সহিংসতায় আমি ভীষণ বিরক্ত। এসবের অবসান দরকার। ঐক্যবদ্ধ আমেরিকা গঠনের ডাক দিয়ে মেলানিয়া বলেন, ঐক্যবদ্ধ দেশই আমাদের সব ধরনের বিরক্তি ও সহিংসতা থেকে মুক্তি দিতে পারে। অভিবাসীদের সাহস দিয়ে মেলানিয়া বলেন, আমিও একজন অভিবাসী। তাই আপনারা ভয় পাবেন না। ট্রাম্পের নেতৃত্বর প্রশংসা করে মেলানিয়া বলেন, তিনি যা বিশ্বাস করেন তাই বলেন। তার মধ্যে কোন ধরনের গোপন করার মানসিকতা নেই। খবর বিবিসি, এপি ও সিএনএন অনলাইনের।

যুক্তরাষ্ট্রে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় রাখার আহ্বান জানিয়ে মেলানিয়া ট্রাম্প বলেন, দেশের স্বার্থে ঐক্য ও সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি দরকার। মেলানিয়ার মঙ্গলবার এ বক্তব্যের সময় উইসকনসিনে বর্ণবাদ বিরোধী আন্দোলন ও সহিংসতা চলছিল। আজ রাতে রিপাবলিকান কনভেনশনের শেষ দিন মূল বক্তব্য রাখবেন ট্রাম্প। এর আগে সোমবার একই কনভেনশনে বিরোধী ডেমোক্র্যাট শিবিরের তুলোধুনো করেন ট্রাম্প।

আসন্ন নির্বাচনে ভোট কারচুপির অভিযোগ তুলে তিনি বলেন, কোভিড-১৯ ভাইরাসের মাধ্যমে মার্কিন জনগণের সঙ্গে প্রতারণা করা হচ্ছে। একই দিন মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে দ্বিতীয়বারের মতো লড়তে দলীয় মনোনয়ন লাভ করেন ট্রাম্প। এবারের নির্বাচনে জয়ের ব্যাপারে আশাবাদী ট্রাম্প বলেন, আমরাই জিততে যাচ্ছি। শুধুমাত্র ভোট কারচুপির মাধ্যমেই আমাদের ঠকানো হতে পারে। এ সময় পোস্টাল ভোটের প্রতি সন্দেহ পোষণ করেন ট্রাম্প। নর্থ ক্যারোলাইনার শার্লট শহরে অনুষ্ঠিত রিপাবলিকান কনভেনশনে অনেক তরুণ ভোটার উপস্থিত হয়। এ সময় মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে আরও চার বছর সময় চান ট্রাম্প।

ডোনাল্ড ট্রাম্প রিপাবলিকান সমর্থকদের উদ্দেশে বলেন, এবারের নির্বাচনে আমাদের হারার সম্ভাবনা একমাত্র একটা কারণেই- যদি নির্বাচনে কারচুপি হয়। এর আগে প্রতিপক্ষ জো বাইডেন একটি টক শোতে কঠিন হুঁশিয়ারি দেন ট্রাম্প। তিনি বলেন, আপনি (বাইডেন) প্রেসিডেন্ট এই নির্বাচন চুরি করতে যাচ্ছেন। তবে সবচেয়ে নজিরবিহীন বিষয় হলো এ প্রসঙ্গে তারা দুজনেই ডাক ব্যবস্থার উদ্দেশ্য নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন। এ বছরের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে নজিরবিহীনভাবে আলোচনার কেন্দ্রে রয়েছে আমেরিকার ডাক ব্যবস্থা।

চার বছর আগের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে সামাজিক মাধ্যমে জনমত জরিপের সন্দেহজনক এ্যালগরিদিম বা হিসাবনিকাশ, রুশ হ্যাকিং এবং গোপন দলিল পত্র ফাঁস নিয়ে হুলুস্থুল হয়েছিল। কিন্তু এ বছর সব বিতর্কের মধ্যমণি হয়ে উঠেছে আমেরিকার ডাক বিভাগ। আমেরিকার ডাক ব্যবস্থা নিয়ে ক্ষুব্ধ প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প তার বেশ কিছু সাম্প্রতিক টুইটে দাবি করেছেন: ‘ওরা এই নির্বাচন চুরির চেষ্টা করছে। এটা হতে দেয়া যাবে না! কারণ জো বাইডেন এবং তার ডেমোক্র্যাট দল চায় নবেম্বর নির্বাচন নির্বিঘেœ হোক এবং এমন গুজব রয়েছে যে ডোনাল্ড ট্রাম্প এবং তার রিপাবলিকান দল খুবই আশা করছে এই নির্বাচন পেছানো যাবে।

করোনাভাইরাসের কারণে এ বছর কয়েক কোটি মানুষের জীবন বিপর্যস্ত হয়ে গেছে। কাজেই আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে তার যে একটা প্রভাব পড়তে পারে সে আশঙ্কা অমূলক নয়। কোভিড-১৯ এর বিস্তার ঠেকাতে কোন কোন অঙ্গরাজ্যে ভোট কেন্দ্রে উপস্থিত হয়ে ভোটদান নিষিদ্ধ করা হয়েছে। যেসব রাজ্যে এই নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়নি, সেখানেও অনেক মানুষ ভোটকেন্দ্রের ভিড় এড়াতে চাইছেন। কাজেই পোস্টাল ব্যালটের মাধ্যমে ভোট দানের হার এবার উল্লেখযোগ্যভাবে বাড়বে বলেই ধারণা করা হচ্ছে।

শীর্ষ সংবাদ:
দেশ এগিয়ে যাচ্ছে, এগিয়ে যাবে         ব্যাটিং ব্যর্থতায় ম্লান বোলিং সাফল্য         মিল্কি ওয়ের প্রথম ‘পালক’         সরকারী কাস্টডিতে নেই খালেদা, তিনি মুক্ত         ঢাকায় বিশ্ব শান্তি সম্মেলন ৪ ডিসেম্বর শুরু         ওমিক্রন প্রতিরোধে সতর্ক অবস্থায় সারাদেশ         সাদা পোশাকে দেশে সবার ওপরে মুশফিক         সাগরে জলদস্যুতায় যাবজ্জীবন দন্ড         গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশন, ৪১ বছর পূর্তির আয়োজন         কুয়েতে পাপুলের সাত বছরের কারাদন্ড         পাকি প্রেম দূরে রাখুন         বিনিয়োগবান্ধব পরিবেশ তৈরিতে আমরা প্রতিশ্রুতিবদ্ধ         ‘মোকাবেলা করে বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে ’         তৃতীয় ধাপের সহিংসতাহীন নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে দাবি ইসির         করোনা : গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্যু ৩         করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের সতর্কবার্তা         পরিবহন সেক্টর কার নিয়ন্ত্রণে : জি এম কাদের         সংসদে নির্বাচন কমিশন গঠনে আইন আনা হচ্ছে শিগগিরই ॥ আইনমন্ত্রী         বাংলাদেশে বিনিয়োগে আগ্রহী সৌদির ৩০ কোম্পানি         আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে নগর পরিবহন চালু সম্ভব নয় : মেয়র তাপস