শুক্রবার ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২০ মে ২০২২ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

ঐক্যবদ্ধ আমেরিকার ডাক

ঐক্যবদ্ধ আমেরিকার ডাক
  • রিপাবলিকান পার্টির কনভেনশনে ট্রাম্পকে পুনর্নির্বাচিত করার আহ্বান মেলানিয়ার

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচন সামনে রেখে ক্ষমতাসিন রিপাবলিকান পার্টির জাতীয় কনভেনশনের দ্বিতীয় দিন ডোনাল্ড ট্রাম্পের স্ত্রী মেলানিয়া ট্রাম্প বক্তব্য রাখেন। এ সময় ট্রাম্পকে দ্বিতীয়বার সুযোগ দিতে মার্কিন ভোটারদের আহ্বান জানান তিনি। হোয়াইট হাউজের রোজ গার্ডেন থেকে দেয়া ওই অনলাইন বক্তব্য নর্থ ক্যারোলাইনার শার্লট শহরে অনুষ্ঠিত রিপাবলিকান কনভেনশনে সরাসির প্রচার হয়। একই দিন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও, ট্রাম্পের মেয়ে টিফানিসহ পরিবারের অন্য সদস্যরাও বক্তব্য রাখেন। মঙ্গলবার রাতে দেয়া বক্তব্যে মার্কিন ফার্স্টলেডি মেলানিয়া, স্বামী ট্রাম্পের পক্ষে ভোট চান। একই সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রে চলমান বর্ণবাদ বিরোধী আন্দোলন, সহিংসতা ও লুটপাট বন্ধের আহ্বান জানান। ডোনাল্ড ট্রাম্পকে সাহস দিয়ে সাবেক সুপার মডেল মেলানিয়া বলেন, আপনি (ট্রাম্প) একা নন। আপনি দেশের জন্য লড়ছেন।

মেলানিয়া বলেন, যুক্তরাষ্ট্রে চলমান সহিংসতায় আমি ভীষণ বিরক্ত। এসবের অবসান দরকার। ঐক্যবদ্ধ আমেরিকা গঠনের ডাক দিয়ে মেলানিয়া বলেন, ঐক্যবদ্ধ দেশই আমাদের সব ধরনের বিরক্তি ও সহিংসতা থেকে মুক্তি দিতে পারে। অভিবাসীদের সাহস দিয়ে মেলানিয়া বলেন, আমিও একজন অভিবাসী। তাই আপনারা ভয় পাবেন না। ট্রাম্পের নেতৃত্বর প্রশংসা করে মেলানিয়া বলেন, তিনি যা বিশ্বাস করেন তাই বলেন। তার মধ্যে কোন ধরনের গোপন করার মানসিকতা নেই। খবর বিবিসি, এপি ও সিএনএন অনলাইনের।

যুক্তরাষ্ট্রে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় রাখার আহ্বান জানিয়ে মেলানিয়া ট্রাম্প বলেন, দেশের স্বার্থে ঐক্য ও সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি দরকার। মেলানিয়ার মঙ্গলবার এ বক্তব্যের সময় উইসকনসিনে বর্ণবাদ বিরোধী আন্দোলন ও সহিংসতা চলছিল। আজ রাতে রিপাবলিকান কনভেনশনের শেষ দিন মূল বক্তব্য রাখবেন ট্রাম্প। এর আগে সোমবার একই কনভেনশনে বিরোধী ডেমোক্র্যাট শিবিরের তুলোধুনো করেন ট্রাম্প।

আসন্ন নির্বাচনে ভোট কারচুপির অভিযোগ তুলে তিনি বলেন, কোভিড-১৯ ভাইরাসের মাধ্যমে মার্কিন জনগণের সঙ্গে প্রতারণা করা হচ্ছে। একই দিন মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে দ্বিতীয়বারের মতো লড়তে দলীয় মনোনয়ন লাভ করেন ট্রাম্প। এবারের নির্বাচনে জয়ের ব্যাপারে আশাবাদী ট্রাম্প বলেন, আমরাই জিততে যাচ্ছি। শুধুমাত্র ভোট কারচুপির মাধ্যমেই আমাদের ঠকানো হতে পারে। এ সময় পোস্টাল ভোটের প্রতি সন্দেহ পোষণ করেন ট্রাম্প। নর্থ ক্যারোলাইনার শার্লট শহরে অনুষ্ঠিত রিপাবলিকান কনভেনশনে অনেক তরুণ ভোটার উপস্থিত হয়। এ সময় মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে আরও চার বছর সময় চান ট্রাম্প।

ডোনাল্ড ট্রাম্প রিপাবলিকান সমর্থকদের উদ্দেশে বলেন, এবারের নির্বাচনে আমাদের হারার সম্ভাবনা একমাত্র একটা কারণেই- যদি নির্বাচনে কারচুপি হয়। এর আগে প্রতিপক্ষ জো বাইডেন একটি টক শোতে কঠিন হুঁশিয়ারি দেন ট্রাম্প। তিনি বলেন, আপনি (বাইডেন) প্রেসিডেন্ট এই নির্বাচন চুরি করতে যাচ্ছেন। তবে সবচেয়ে নজিরবিহীন বিষয় হলো এ প্রসঙ্গে তারা দুজনেই ডাক ব্যবস্থার উদ্দেশ্য নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন। এ বছরের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে নজিরবিহীনভাবে আলোচনার কেন্দ্রে রয়েছে আমেরিকার ডাক ব্যবস্থা।

চার বছর আগের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে সামাজিক মাধ্যমে জনমত জরিপের সন্দেহজনক এ্যালগরিদিম বা হিসাবনিকাশ, রুশ হ্যাকিং এবং গোপন দলিল পত্র ফাঁস নিয়ে হুলুস্থুল হয়েছিল। কিন্তু এ বছর সব বিতর্কের মধ্যমণি হয়ে উঠেছে আমেরিকার ডাক বিভাগ। আমেরিকার ডাক ব্যবস্থা নিয়ে ক্ষুব্ধ প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প তার বেশ কিছু সাম্প্রতিক টুইটে দাবি করেছেন: ‘ওরা এই নির্বাচন চুরির চেষ্টা করছে। এটা হতে দেয়া যাবে না! কারণ জো বাইডেন এবং তার ডেমোক্র্যাট দল চায় নবেম্বর নির্বাচন নির্বিঘেœ হোক এবং এমন গুজব রয়েছে যে ডোনাল্ড ট্রাম্প এবং তার রিপাবলিকান দল খুবই আশা করছে এই নির্বাচন পেছানো যাবে।

করোনাভাইরাসের কারণে এ বছর কয়েক কোটি মানুষের জীবন বিপর্যস্ত হয়ে গেছে। কাজেই আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে তার যে একটা প্রভাব পড়তে পারে সে আশঙ্কা অমূলক নয়। কোভিড-১৯ এর বিস্তার ঠেকাতে কোন কোন অঙ্গরাজ্যে ভোট কেন্দ্রে উপস্থিত হয়ে ভোটদান নিষিদ্ধ করা হয়েছে। যেসব রাজ্যে এই নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়নি, সেখানেও অনেক মানুষ ভোটকেন্দ্রের ভিড় এড়াতে চাইছেন। কাজেই পোস্টাল ব্যালটের মাধ্যমে ভোট দানের হার এবার উল্লেখযোগ্যভাবে বাড়বে বলেই ধারণা করা হচ্ছে।

শীর্ষ সংবাদ:
যে অপরাধ করবে তাকেই শাস্তি পেতে হবে ॥ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী         নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু নির্মাণ একটি মাইলফলক : সেতুমন্ত্রী         ইভিএম পদ্ধতির ভুল প্রমান করতে পারলে পুরস্কৃত করা হবে ॥ ইসি আহসান হাবিব         অভিবাসীদের জীবন বাঁচাতে প্রচেষ্টা বাড়াতে হবে         অস্ত্র মামলায় ছাত্রলীগ নেতা সাঈদী রিমান্ডে ॥ জোবায়েরের জামিন         স্ত্রীর কবরের পাশে চিরশায়িত হবেন আবদুল গাফ্ফার চৌধুরী         শিগগিরই সব দলের সঙ্গে সংলাপ : সিইসি         চাঁদপুরে ট্রাক-অটোরিকশা মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের দুই পরীক্ষার্থী নিহত         তীব্র জ্বালানি সংকটে শ্রীলঙ্কায় স্কুল ও অফিস বন্ধ         মঠবাড়িয়ায় যাত্রীবাহী বাস চাপায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত, আহত ২         নগর ভবনে দরপত্র জমা দেওয়ার চেষ্টা         রাজধানীর বাজারে প্রায় সব পণ্যের দাম বৃদ্ধি         শনিবার গ্যাস থাকবে না রাজধানীর যেসব এলাকায়         আজ ২০ সিনেমা হলে মুক্তি পেয়েছে ‘পাপ-পুণ্য’         সারাদেশে চলছে ভোটার তালিকার হালনাগাদ         দৌলতখানে বাবা-ছেলে চেয়ারম্যান প্রার্থী         হাইকোর্টের নির্দেশে ভারতে অবৈধ ভাবে নেওয়া চাকরি হারালেন মন্ত্রী কন্যা         আফগানিস্তানে নারী উপস্থাপকদের অবশ্যই মুখ ঢাকতে হবে, নির্দেশ তালিবানের         শাহজালালে ৯৩ লাখ টাকার স্বর্ণসহ যাত্রী আটক         আজ দ্বিতীয় ধাপের সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত