মঙ্গলবার ২৩ আষাঢ় ১৪২৭, ০৭ জুলাই ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

ভোলায় কার্গো জাহাজ ডুবি

নিজস্ব সংবাদদাতা,ভোলা ॥ ভোলা সদর উপজেলার ইলিশা ফেরিঘাট মেঘনা নদীতে শনিবার ভোর রাতে ভোলা-লক্ষীপুর মহা সড়ক রক্ষার কাজের বালি ভর্তি একটি কার্গো জাহাজ ডুবির ঘটনা ঘটেছে। তবে এতে কোন হতাহতের ঘটনা ঘটেনি।

ঠিকাদার খোকন গোলদার জানান, ভোলা-লক্ষীপুর মহা সড়কসহ ইলিশা ফেরিঘাট সড়ক রক্ষায় জরুরী ভিত্তিতে শুত্রবার পানি উন্নয়ন বোর্ড কাজ শুরু করে। ওই কাজের জন্য চাঁদপুর থেকে জিহান মনি নামক একটি কার্গোজাহাজ ৫ হাজার ফুট বালি নিয়ে ইলিশা চডার মাথা এলাকায় আসলে শনিবার ভোররাতে মেঘনার স্রোত ও ঢেউয়ের কবলে পড়ে ঘাটের কাছে থাকা অবস্থায়ই ডুবে যায়। এ সময় জাহাজের চালকসহ অন্যন্য কর্মচারীরা স্থানীয়দের সহায়তায় সাতরিয়ে তীরে উঠতে সক্ষম হয়। জাহাজের মালিক হচ্ছে ভোলার আফসার মিয়া। জানাযায়,ট্রলার ডুবিরতে অন্তত ৩০ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে। তবে ট্রলারটি এখনও উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।

শীর্ষ সংবাদ:
উন্নত ব-দ্বীপের স্বপ্ন ॥ নদীমাতৃক বাংলাদেশ         রিজার্ভ থেকে ঋণ নেয়ার প্রস্তাব প্রধানমন্ত্রীর         চলে গেলেন জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী এন্ড্রু কিশোর         বিএনপির মুখে দুর্নীতির বিরুদ্ধে কথা হাস্যকর ॥ কাদের         হাসপাতালের ধারণ ক্ষমতা ফুরিয়ে আসছে যুক্তরাষ্ট্রে         ঈদে সারাদেশে গণপরিবহন বন্ধের চিন্তাভাবনা         শিক্ষার্থীদের বিনামূল্যে ইন্টারনেট দিতে আলোচনা চলছে         বন্দুকযুদ্ধে কুড়িলে ২ ছিনতাইকারী নিহত         সাইবার মামলা তদন্তে সিআইডির থানা হচ্ছে         ক্রেস্ট সিকিউরিটিজের এমডি ও পরিচালক গ্রেফতার         এন্ড্রু কিশোর তার গানের মাধ্যমে মানুষের হৃদয়ে স্মরণীয় হয়ে থাকবেন : প্রধানমন্ত্রী         এন্ড্রু কিশোর আর নেই         উন্নয়ন প্রকল্পের জন্য রিজার্ভ থেকে ঋণ নেয়া যেতে পারে : প্রধানমন্ত্রী         বিরল বন্দরকে দেশের এক নম্বর রেলবন্দরে রূপান্তরের কাজ করা হচ্ছে ॥ রেলমন্ত্রী         আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চলাচলে নতুন করে নিষেধাজ্ঞা         ভ্যাটের সনদ প্রতিষ্ঠানে ঝুলিয়ে রাখতে হবে         শিক্ষার্থীদের বিনামূল্যে ইন্টারনেট দিতে শিক্ষামন্ত্রীর আহ্বান         দারুল আরকাম মাদ্রাসা চালুর দাবিতে প্রধানমন্ত্রীকে স্মারকলিপি         প্রাকৃতিক দুর্যোগে মানবিক সহায়তা হিসেবে ১০ হাজার ৯০০ টন চাল বরাদ্দ         থাইল্যান্ডের বামরুনগ্রাদ হাসপাতালে সাহারা খাতুন        
//--BID Records