ঢাকা, বাংলাদেশ   বুধবার ০১ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৯ মাঘ ১৪২৯

monarchmart
monarchmart

চুরির অপবাধে শিক্ষার্থীর হাত বেধে নির্যাতন

নিজস্ব সংবাদদাতা, লালমোহন

প্রকাশিত: ২০:২১, ৬ ডিসেম্বর ২০২২

চুরির অপবাধে শিক্ষার্থীর হাত বেধে নির্যাতন

নির্যাতিত শিক্ষার্থী আজমী

ভোলার লালমোহনে বাসা থেকে টাকা চুরির অপবাধে শিক্ষার্থী আজমী (১০) কে দুই হাত ঘরের খুটির সঙ্গে বেধে মারপিট ও নির্যাতন করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। 

মঙ্গলবার (৬ ডিসেম্বর) সকালে উপজেলার পশ্চিম চরউমেদ ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ড পাঙ্গাসিয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আজমী পশ্চিম চরউমেদ ১নং সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৪র্থ শ্রেণির ছাত্র। সে ওই এলাকার পাঙ্গাসিয়া গ্রামের মো. মোহসীনের ছেলে। 

ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী আজমী জানায়, সকালে একই বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী মোহিন তাকে খেলতে তাদের বাসায় নিয়ে যায়। খেলার একপর্যায়ে মহিনের বাবা বাহার তার ৮০০ টাকার মধ্যে ৫০০ টাকা না পেয়ে আজমীকে সন্দেহ করে। পরে তাকে ঘরের খুটির সঙ্গে বেধে মারপিট শুরু করে। আজমী তাকে বারবার বলে সে টাকা নেয়নি। একপর্যায়ে বাহার তাকে মাটিতে রেখে বুকের উপর পা চাপা দিয়ে টাকা নেয়ার কথা বলতে বলে। পরে আজমী চিৎকার করলে বাহারের স্ত্রী তার মাকে ডেকে নিয়ে আসে। তার মা এসে হাতের বাধন খুলে আজমীকে নিয়ে যায়। 

আজমীর মা পারভীন বলেন, বাহারের স্ত্রী আমাকে বলে আপনার ছেলে আমাদের টাকা চুরি করেছে, তারাতারি আমাদের ঘরে চলুন। আমি তার কথামত তাদের ঘরে গিয়ে দেখি আমার ছেলেকে পিছমোড়া দিয়ে তাদের ঘরের খুটির সঙ্গে দুই হাত বেধে রেখেছে। আমি আজমীর হাতের বাধন খুলে তার অবস্থা খারাপ দেখলে তাকে লালমোহন হাসপাতালে ভর্তি করি।  

এ বিষয়ে অভিযুক্ত বাহার বলেন, আজমী একটা চোর। এর আগেও আজমী চুরি করেছে। আজকে আমার জামার পকেট থেকে ৫০০ টাকা চুরি করার কারণে আমার মাথা গরম হয়ে গেছে। তাই ওকে লাঠি দিয়ে কয়েকটি আঘাত করেছি এবং কয়েকটি চর থাপ্পর মেরেছি। আজমীর কাছে টাকা পেয়েছেন কিনা জিজ্ঞাসা করলে বলেন টাকা পাওয়া যায়নি। 

এ ব্যাপারে লালমোহন থানার অফিসার ইনচার্জ মাহাবুবুর রহমান বলেন, শিশু শিক্ষার্থী আজমীর মা আমার কাছে এসেছিল। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিচ্ছি।

 

এসএইচ

সম্পর্কিত বিষয়:

monarchmart
monarchmart