বৃহস্পতিবার ২৫ আষাঢ় ১৪২৭, ০৯ জুলাই ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

ওয়ার্ডভিত্তিক উন্নয়ন পরিকল্পনা দাবি ঢাকা সিটিতে

  • তিন সামাজিক সংগঠনের ১২ দফা

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ঢাকা সিটি কর্পোরেশনে ওয়ার্ডভিত্তিক উন্নয়ন পরিকল্পনা প্রণয়নে সাধারণ মানুষের অংশগ্রহণ নিশ্চিতের দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব প্ল্যানার্স (বিআইপি)। এছাড়া ঢাকা শহরে বসবাসরত সকল নিম্ন আয়ের মানুষ বিশেষ করে- অসহায় নারী, শিশু, প্রতিবন্ধী ও প্রবীণদের সামাজিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করাসহ যৌথভাবে ১২ দফা দাবি জানিয়েছে তিনটি সামাজিক সংগঠন।

বৃহস্পতিবার রাজধানীতে পৃথক দুটি সংবাদ সম্মেলনে এসব দাবি তুলে ধরা হয়। বাংলামোটরে প্ল্যানার্স টাওয়ারে ‘ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন : নগর পরিকল্পনাবিদদের পক্ষ থেকে নাগরিক ইশতেহার’ শীর্ষক সংবাদ সম্মেলন করে বিআইপি।

সংবাদ সম্মেলনে নাগরিক ইশতেহার শীর্ষক প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন বিআইপির সাধারণ সম্পাদক পরিকল্পনাবিদ ড. আদিল মুহাম্মদ খান। তিনি বলেন, সিটি কর্পোরেশন এবং ওয়ার্ড কাউন্সিলরের কার্যাবলী এবং দায়িত্ব মূলত স্থানীয় সরকার (সিটি কর্পোরেশন) আইন ২০০৯ দ্বারা নির্ধারিত। এই আইনের তৃতীয় তফসিলে বিশদভাবে কার্যাবলীর বিবরণ দেয়া আছে। সাধারণ মানুষের প্রতিনিধি হবেন মেয়র ও কাউন্সিলর এবং নির্বাচিত মেয়র ও কাউন্সিলররা স্থানীয় জনগণের কাছে দায়বদ্ধ। স্থানীয় সরকারের সব কর্মকান্ডের কেন্দ্রবিন্দুু ওয়ার্ড কাউন্সিল কেন্দ্রিক হওয়া উচিত। এতে এলাকার মানুষের মধ্যে নিজের এলাকায় উন্নয়নে অংশীদার হওয়া এবং অংশগ্রহণের আগ্রহ জন্মাবে।

বিআইপি সভাপতি পরিকল্পনাবিদ অধ্যাপক ড. আকতার মাহমুদ বলেন, সিটি কর্পোরেশনের সব সেবা ওয়ার্ড কাউন্সিলভিত্তিক হতে হবে। সব কেন্দ্রবিন্দু ওয়ার্ড কাউন্সিল হলে মানসম্মত ওয়ার্ড কাউন্সিলর পেতে পারি। এতে জনগণের সঙ্গে ওয়ার্ড কাউন্সিলরদের সম্পৃক্ততা বাড়বে।

বিআইপির উপদেষ্টা পরিষদের আহ্বায়ক পরিকল্পনাবিদ ড. গোলাম রহমান বলেন, নগর পিতাদের মানুষের সঙ্গে সম্পৃক্ততা আছে। ওয়ার্ড কাউন্সিলকে কেন্দ্র করে উন্নয়ন কার্যক্রম পরিচালনা করতে হবে। তবেই অনেক রকম সমস্যা থেকে উত্তরণ সম্ভব। সংবাদ সম্মেলনে বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব প্ল্যানার্সের সহ-সভাপতি পরিকল্পনাবিদ মুহাম্মদ আরিফুল ইসলাম, বোর্ড সদস্য পরিকল্পনাবিদ রেজাউর রহমানসহ অন্য পরিকল্পনাবিদরা উপস্থিত ছিলেন।

১২ দফা দাবি তিন সংগঠনের

ঢাকা শহরে বসবাসরত সকল নিম্ন আয়ের মানুষ বিশেষ করে অসহায় নারী, শিশু, প্রতিবন্ধী ও প্রবীণদের সামাজিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করাসহ ১২ দফা দাবি জানিয়েছে তিনটি সামাজিক সংগঠন। পরিবেশ বাঁচাও আন্দোলন (পবা), কোয়ালিশন ফর দ্য আরবান পুওর (কাপ) এবং বারসিক নামের তিন সামাজিক সংগঠন। আসন্ন ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে যারা মেয়র নির্বাচিত হবেন তাদের কাছে এসব দাবি জানায়।

বৃহস্পতিবার জাতীয় প্রেসক্লাবের তফাজ্জল হোসেন মানিক মিয়া হলে সংগঠনগুলোর পক্ষ থেকে আয়োজিত এক নাগরিক সংলাপে এসব দাবি তুলে ধরা হয়।

বক্তারা বলেন, কদিন পরেই আমরা দুজন নির্বাচিত নগরপিতা পাব। এ নগর পিতাদের কাছে যেমন ধনী ও মধ্যবিত্তদের অনেক ধরনের প্রত্যাশা রয়েছে, তেমনি এ নগরে বসবাসরত প্রায় ৪০ লাখের অধিক নিম্ন আয়ের বস্তিবাসী ও পথবাসী মানুষেরও প্রত্যাশা রয়েছে। বেসরকারী গবেষণায় দেখা গেছে, ঢাকা শহরে বসবাসকারী মানুষের অধিকাংশই কোন না কোন প্রাকৃতিক দুর্যোগে সর্বস্বান্ত হয়ে বাধ্য হয়েই গ্রাম ছেড়ে শহরে এসেছে।

আয়োজক সংগঠনের পক্ষ থেকে আগামীতে নির্বাচিত মেয়রদের কাছে নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য ১২ দফা দাবি তুলে ধরা হয়। উল্লেখযোগ্য দাবির মধ্যে রয়েছে- শক্তিশালী নগর সরকার এবং নগরের দরিদ্র মানুষের সব সেবা নিশ্চিত করা, শহরের দরিদ্র মানুষের জন্য সমাজসেবা অধিদফতর, মহিলা বিষয়ক অধিদফতর, যুব উন্নয়ন অধিদফতরসহ সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনীর সকল ধরনের কর্মসূচী চালু করা, সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচীতে অন্তর্ভুক্তির প্রক্রিয়াকে সহজ করা, দারিদ্র্যের হার কমানোর জন্য নিম্ন আয়ের মানুষের প্রধান ব্যয়ের খাত যেমন চিকিৎসা, পানি, বিদ্যুত ও জ্বালানি বিনামূল্যে ব্যবস্থা করা, নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য ভর্তুকি মূল্যে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য ক্রয়ের জন্য কার্ডের ব্যবস্থা করার দাবি জানানো হয়।

নাগরিক সংলাপে উপস্থিত ছিলেন পবার চেয়ারম্যান আবু নাসের খান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক দেবাশীষ কুমার কুন্ডু, বারসিক সমন্বয়কারী জাহাঙ্গীর আলম, কাপের নির্বাহী পরিচালক রেবেকা সানইয়াত প্রমুখ।

করোনাভাইরাস আপডেট
বিশ্বব্যাপী
বাংলাদেশ
আক্রান্ত
১১৭৬১০৭৩
আক্রান্ত
১৭২১৩৪
সুস্থ
৬৭৫৫৩২৪
সুস্থ
৮০৮৩৮
শীর্ষ সংবাদ:
রিজেন্টের অনিয়ম খুঁজে বের করে ব্যবস্থা নিয়েছি         চিকিৎসা প্রতারক সাহেদের উত্থান বিস্ময়কর         সরকার কঠোর ॥ স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী নিয়ে দুর্নীতি         করোনা সঙ্কট উত্তরণে এখনই জোরালো বৈশ্বিক সাড়া দরকার         করোনায় আরও ৪৬ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ৩৪৮৯         স্বাস্থ্যবিধি না মানার হতাশাজনক চিত্র         আসুন মনের মাঝেই দৃঢ়তার দুর্গ নির্মাণ করি         বন্যা পরিস্থিতির উন্নতি, তবে ভোগান্তি কমছে না         আমরা পেছনে নয়, সামনের দিকে এগিয়ে যেতে চাই         পাহাড়জুড়ে শঙ্কা, যে কোন সময় প্রতিশোধ!         সিটি কর্পোরেশন গরু জবাইয়ের দায়িত্বে         সঙ্কটকালে তরুণরাই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে         বিএনপির নিষ্ক্রিয় নেতাদের কালো তালিকা         চট্টগ্রামে করোনায় মৃত্যু ২শ’ ছাড়াল, নতুন আক্রান্ত ২৯৫         ভার্চুয়াল ডিভিশন হাইকোর্ট বেঞ্চ চালুর সিদ্ধান্ত         রিজেন্ট হাসপাতালের মিরপুর শাখা সিলগালা         কোরবানি ঈদে বর্ধিত বোনাস সরকারী চাকরিজীবিদের         পোশাক শ্রমিকদের ৮৪ কোটি টাকা প্রদান         স্মার্ট মিটার থাকলে বিল নিয়ে সমস্যা হতো না : বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী         গবর্নরের মেয়াদ বাড়াতে সংসদে বিল        
//--BID Records