মঙ্গলবার ২০ শ্রাবণ ১৪২৭, ০৪ আগস্ট ২০২০ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

আফগানিস্তানে আমরা আরও ১৯ বছর থাকতে চাই না

  • প্রতিবেশী দেশগুলোকেই জঙ্গীবিরোধী ভূমিকা রাখতে হবে ॥ ট্রাম্প

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, ভারতসহ অন্যান্য দেশকে আফগানিস্তানের জঙ্গীদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ চালিয়ে যাওয়া উচিত। আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সৈন্য প্রত্যাহার হচ্ছে না এমন ইঙ্গিত দেয়ার একদিন পর তার এ মন্তব্য এলো। এপি।

ট্রাম্প বলেন, আফগান জঙ্গীদের বিরুদ্ধে যুদ্ধে বর্তমানে অন্যান্য দেশ খুব কমই সহায়তা করছে। আফগানিস্তানে ইসলামিক স্টেট জঙ্গীদের প্রত্যাবর্তন বিষয়ে হোয়াইট হাউসে সাংবাদিকদের উদ্দেশে এসব মন্তব্য করেন। ট্রাম্প বলেন, কিন্তু একটা সময় এসব দেশকে এসব জঙ্গীর বিরুদ্ধে যুদ্ধ করতে হবে। কারণ আমরা কী সেখানে আরও ১৯ বছর থাকতে চাই না। ট্রাম্প বলেন, সাত হাজার মাইল দূর হলেও আফগানিস্তানের জঙ্গীদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। কিন্তু ভারত ও পাকিস্তান কাছাকাছি অবস্থান করলেও তারা জঙ্গীদের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নিচ্ছে না। ট্রাম্প বলেন, দেখুন, আফগানিস্তানের কাছেই ভারত। তারা এটার বিরুদ্ধে যুদ্ধ করছে না। আমরা যুদ্ধ করছি। পাকিস্তান একেবারেই কাছে। তারা এর বিরুদ্ধে খুব সামান্যই প্রতিরোধ গড়ে তুলছে। খুব, খুব সামান্য। এটা ঠিক নয়। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র সাত হাজার মাইল দূরে অবস্থিত। ট্রাম্প বলেন, তার নেতৃত্বে যুক্তরাষ্ট্র আইএস নির্মূল করেছে। তিনি বলেন, আইএস সম্পর্কে আমরা বেশি কিছু শুনছি না। আমরা খেলাফত শতভাগ বিনাশ করেছি। যখন আমরা ৯৮ ভাগ নির্মূল করি তখন আমি বলি, সব ঠিক আছে, এখন বাড়ি ফিরে যেতে পারি। এখন এসব দেশকে আসার সুযোগ দেই। তারা বলল, এটা করতে এক বছর সময় লাগতে পারে। কিন্তু এটা করতে আমার এক মাস সময় লেগেছে এবং তারা বিতাড়িত হয়েছে। খেলাফত ধ্বংস হয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের কাছে হাজার হাজার আইএস যোদ্ধা আটক রয়েছে এবং ইউরোপকে তাদের গ্রহণ করা উচিত। ট্রাম্প বলেন, ইউরোপ যদি তাদের গ্রহণ না করে, তবে তারা যে দেশ (ফ্রান্স ও জার্মানি) থেকে এসেছে সেদেশে তাদের মুক্তি দেয়া ছাড়া কোন উপায় নেই। মার্কিন এই প্রেসিডেন্ট আরও বলেন, আমরা তাদের পরাজিত করেছি। আমরা তাদের আটক করেছি। আমাদের কাছে হাজার হাজার আইএস বন্দী রয়েছে। আর এখন আমাদের মিত্ররা বলছে, না, আমারা তাদের নেব না। যদিও তারা জার্মানি ও ফ্রান্সসহ বিভিন্ন দেশের নাগরিক। সুতরাং আমরা যেসব বন্দীকে আটক করেছি তাদের ফেরত নেয়ার জন্য ইতোমধ্যে মিত্রদের বলা হয়েছে। কারণ যুক্তরাষ্ট্র তাদের আগামী ৫০ বছরের জন্য গুয়ানতানামো কারাগারে পাঠাতে চায় না এবং তাদের ব্যয় বহন করতে চায় না।

শীর্ষ সংবাদ:
‘চীনের ভ্যাকসিন ট্রায়াল নিয়ে পর্যালোচনা করে সিদ্ধান্ত’         ভরা বর্ষায় সাগরে লঘুচাপ, ৩ নম্বর সর্তক সংকেত         কৃষকের ক্ষয়ক্ষতি পোষাতে বন্যাপ্লাবিত এলাকা পর্যবেক্ষণের নির্দেশ কৃষিমন্ত্রীর         স্বস্তির বৃষ্টি         শায়েস্তাগঞ্জে বাস চাপায় নিহত ২,আহত ২০         করোনা ভাইরাসের জাদুকরী সমাধান আশা করা বৃথা ॥ ডব্লিউএইচও         করোনা ভাইরাসে প্রাণ গেল আরও এক চিকিৎসকের         দক্ষিণ কোরিয়ায় বন্যা-ভূমিধস ॥ অন্তত ১৩ জনের মৃত্যু         করোনা ভাইরাসে জাসদ নেতা মুক্তিযোদ্ধা হাবিবুর রহমানের মৃত্যু         ভরা বর্ষায় তাপপ্রবাহের মধ্যে সাগরে লঘুচাপে ভ্যাপসা গরম         যুক্তরাষ্ট্রের দিকে ধেয়ে যাচ্ছে হারিকেন ইসাইয়াস         জুলাইয়েও দেশে রেমিটেন্স এসেছে ২২ হাজার কোটি টাকা         সঞ্চয়পত্রে বিনিয়োগ কমেছে ৭১ শতাংশ         বাউফলে পুকুরে ডুবে তিন বোনের মর্মান্তিক মৃত্যু         বনানীর সামরিক কবরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত মেজর(অব.) সিনহা         চারঘাটে সিলিন্ডার বিস্ফোরণে একজন নিহত, আহত ২         বিশেষ মর্যাদা বাতিলের বর্ষপূর্তিতে কাশ্মীরে কারফিউ জারি         হাতিরঝিল থেকে এক ব্যক্তির ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার         স্পেনের সাবেক রাজা হুয়ান কার্লোস দেশ ত্যাগের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন         পদত্যাগ করলেন লেবাননের পররাষ্ট্রমন্ত্রী        
//--BID Records