সোমবার ৩ কার্তিক ১৪২৮, ১৮ অক্টোবর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা

সিরাজ হায়দারের মৃত্যুতে সংস্কৃতি অঙ্গনে শোক

সিরাজ হায়দারের মৃত্যুতে সংস্কৃতি অঙ্গনে শোক

স্টাফ রিপোর্টার ॥ দেশের অন্যতম মঞ্চ, টিভি এবং চলচ্চিত্র অভিনেতা সিরাজ হায়দারের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন সংস্কৃতি অঙ্গনের মানুষরা। গুণী এই অভিনয়শিল্পীর মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন বাংলাদেশ গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশন, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোট, বাংলাদেশ চলচ্চিত্রশিল্পী সমিতিসহ অন্যান্য সংগঠন এবং অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা। তারা সিরাজ হায়দারের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করেন এবং শোক সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানান।

সিরাজ হায়দার দীর্ঘ ৫৫ বছরেরও বেশি সময় ধরে অভিনয়ের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। নবম শ্রেণীর ছাত্র সময়ে ১৯৬২ সালের ১৪ আগস্ট পূর্ব পাকিস্তান জাতীয় দিবসে ‘টিপু সুলতান’ নাটকে করিম শাহ চরিত্রে অভিনয়ের মাধ্যমে অভিনয়ে পথচলা শুরু করেছিলেন। এই দীর্ঘ সময়ে তিনি অভিনয় করেছেন যাত্রা, মঞ্চ, রেডিও, টেলিভিশন এবং চলচ্চিত্রে।

মুক্তিযুদ্ধের পর চলচ্চিত্র পরিচালক আবদুল্লাহ আল মামুনের সহকারী হিসেবে ‘জল্লাদের দরবার’ নামে চলচ্চিত্রের কাজ শুরু করেন। তার প্রথম অভিনীত চলচ্চিত্রের নাম ‘সুখের সংসার’। নারায়ণ ঘোষ মিতা পরিচালিত এ চলচ্চিত্রে সিরাজ হায়দার খল চরিত্রে অভিনয় করেন। মঞ্চ নাটক নির্দেশনা দিয়েছেন মাত্র উনিশ বছর বয়সে। ১৯৭৬ সালে তিনি রঙ্গনা নাট্যগোষ্ঠী প্রতিষ্ঠা করেন এবং অনেকগুলো নাটকের নির্দেশনা দেন। সিরাজ হায়দার দুটি চলচ্চিত্র পরিচালনাও করেছেন। এর একটি ‘আদম ব্যাপারী’ যা মুক্তি পায়নি। অন্যটির নাম ‘সুখ’।

বৃহস্পতিবার ভোর ৬টায় রাজধানীর কল্যাণপুরে নিজ বাসায় হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান সিরাজ হায়দার। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭১ বছর। সদ্যপ্রয়াত অভিনেতা সিরাজ হায়দারের ছেলে ও নাট্য পরিচালক লেলিন হায়দার বলেন, বৃহস্পতিবার ভোর ৬-১৪ মিনিটে মারা যান বাবা। তিনি জানান, বুধবার রাতে হঠাৎ করে বুকে ব্যথা অনুভব করেন সিরাজ হায়দার। সকালে হাসপাতালে নেয়ার আগেই মৃত্যুবরণ করেন তিনি। মৃত্যুকালে স্ত্রী অভিনেত্রী মিনা হায়দার, দুই ছেলে, এক মেয়ে ছাড়াও অসংখ্য গুণগ্রাহী ও আত্মীয়-স্বজন রেখে গেছেন প্রয়াত সিরাজ। তার গ্রামের বাড়ি মুন্সীগঞ্জের মীরকাদিমে। এদিকে অভিনেতার মৃত্যুর খবরে তার বাসায় ছুটে যান চলচ্চিত্র শিল্পী ও কলাকুশলীরা। বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সাংগঠনিক সম্পাদক বজলুর রশিদ বলেন, শ্রদ্ধা জানানোর জন্য সিরাজ হায়দারের মরদেহ দুপুর দেড়টায় বিএফডিসিতে নেয়া হয়।

দুপুর ২টায় সেখানে তার জানাজার অনুষ্ঠিত হয়। সিরাজ হায়দারকে শেষবারের মতো দেখতে বিএফডিসিতে উপস্থিত হয়েছিলেন অভিনেতা সৈয়দ হাসান ইমাম, চিত্রনায়ক আলমগীর, ওমর সানী, হেলাল খান, আরজু, পরিচালক সমিতির মহাসচিব মুশফিকুর রহমান গুলজার, সাধারণ সম্পাদক বদিউল আলম খোকন, শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খান এবং সিরাজ হায়দারের পরিবারের সদস্যরা। তার বড় ছেলে নাট্যনির্মাতা লেলিন হায়দার বলেন, বাবার ইচ্ছে অনুযায়ী তার মরদেহ গ্রামের বাড়ি মুন্সীগঞ্জ জেলার মীরকাদিম দরগাবাড়ির পারিবারিক কবরস্থানে বৃহস্পতিবার বাদ মাগরিব দাফন করা হয়।

শীর্ষ সংবাদ: