বুধবার ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০১ ডিসেম্বর ২০২১ ঢাকা, বাংলাদেশ
প্রচ্ছদ
অনলাইন
আজকের পত্রিকা
সর্বশেষ

আলেপ্পোতে ফের সংঘর্ষ, বিমান হামলা

আলেপ্পোতে ফের সংঘর্ষ, বিমান হামলা

সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদের পক্ষ থেকে গৃহযুদ্ধ বন্ধে রাজনৈতিক সমাধানের ঘোষণা দেওয়া হলেও আলেপ্পো নগরী থেকে সংঘর্ষের খবর পাওয়া গেছে। নতুন করে চালানো হয়েছে বিমান হামলা।

গত কয়েক দিনে বেসামরিক নাগরিক ও বিদ্রোহীদের সরিয়ে নেওয়া হয় আলেপ্পো থেকে।

এখনও কয়েকজন বিদ্রোহী আলেপ্পোতে রয়েছেন। শুক্রবার বিদ্রোহীরা অন্তত ১০টি শেল নিক্ষেপ করে। নগরীর হামাদিয়া জেলায় সরকারি বাহিনীর সঙ্গে ওই বিদ্রোহীদের সংঘর্ষে দুই শিশুসহ অন্তত ছয়জন নিহত হয়েছেন বলে জানিয়েছে যুক্তরাজ্যভিত্তিক মানবাধিকার পর্যবেক্ষক সংগঠন সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস। রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে তিনজন নিহত হওয়ার কথা বলা হয়েছে।

এদিকে, এক সপ্তাহ পর নগরীর পশ্চিম, দক্ষিণ-পশ্চিম ও দক্ষিণের বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত অঞ্চলে আবারও চালানো হয়েছে বিমান হামলা।

আলেপ্পো থেকে বেসামরিক ও বিদ্রোহীদের সরিয়ে নেওয়ার পর সেখানে মাইন ও অন্য কোনো নিরাপত্তাজনিত সমস্যা রয়েছে কিনা, তা খতিয়ে দেখতে সরকারি বাহিনী ও লেবাননের সশস্ত্র শিয়া সংগঠন হিজবুল্লাহ তল্লাশি অভিযান চালাচ্ছে বলে রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে জানানো হয়েছে।

প্রেসিডেন্ট আসাদের প্রধানতম মিত্র রাশিয়ার পক্ষ থেকে সম্প্রতি ইরান ও তুরস্কের সঙ্গে যৌথভাবে সিরিয়ার গৃহযুদ্ধে রাজনৈতিক সমাধানের কথা উল্লেখ করা হয়। পরে আসাদ এক বিবৃতিতে রাজনৈতিক সমাধানের উদ্যোগকে স্বাগত জানান। তিনি বিদ্রোহীদের সঙ্গে আলোচনা করতে প্রস্তুত বলেও উল্লেখ করেছেন।

এর আগে বিভিন্ন সংস্থার পর্যবেক্ষকদের নজরদারিতে বৃহস্পতিবার বিদ্রোহী ও বেসামরিক নাগরিকদের সরিয়ে নেওয়া হয়। এর মধ্য দিয়ে পুরো আলেপ্পোতে সরকারের নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠিত হয়। পুরোপুরি বিজয় নিশ্চিত হওয়ার পর পশ্চিম আলেপ্পোতে গুলি ছুড়ে বিজয় উল্লাস করতেও দেখা গেছে। সিরিয়ার রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে দেখা যায়, সেনা সদস্য এবং বেসামরিক নাগরিকরা প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদ-এর সমর্থনে স্লোগান দিচ্ছে।

বৃহস্পতিবার রেড ক্রস জানিয়েছে, আলেপ্পো ফাঁকা করার প্রক্রিয়ার সর্বশেষ ধাপে ৩৫ হাজার মানুষকে সরিয়ে নেওয়া হয়। তাদের মধ্যে চার হাজারেরও বেশি বিদ্রোহী রয়েছেন।

শীর্ষ সংবাদ:
কুয়াকাটায় টোয়াকের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত         ওমিক্রন ঠেকাতে প্রবাসীদের আসতে নিরুৎসাহিত করা হচ্ছে         বগুড়ার শেরপুরে ট্রাকের ধাক্কায় দুই মটরসাইকেল অরোহী নিহত         ডাসারে মোটরসাইকেল চাপায় ইউপি সদস্য নিহত         রামপুরায় বাসে আগুন ও ভাঙচুর ॥ আসামি ৮০০         যুক্তরাষ্ট্রে কিশোরের গুলিতে নিহত ৩, আহত ৮         রেফারিকে হত্যার হুমকি আর্জেন্টাইন ফুটবলারের         নিরাপদ সড়ক দাবি ॥ রামপুরায় শিক্ষার্থীদের অবরোধ         শারীরিক উপস্থিতিতে শুরু হলো আপিল বিভাগের বিচারকাজ         গত ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে করোনায় মৃত্যু বেড়েছে ২ হাজার ৩০০ জনের         বায়োএনটেক প্রধান ওমিক্রন নিয়ে আতঙ্কিত না হওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন         সব গণতান্ত্রিক আন্দোলনে নেতৃত্ব দিয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়         বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যে রাজশাহীর পৌর মেয়র আব্বাস গ্রেফতার         ঢাবি জাতিকে যা কিছু উপহার দিয়েছে তা নিঃসন্দেহে গর্ব ও গৌরবের         রোহিঙ্গাদের উচিত এখন নিজ দেশে ফিরে যাওয়া         জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম আর নেই         জাপানে ওমিক্রন শনাক্ত         শতবর্ষের আলোয় আলোকিত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়         রিটার্ন দাখিলের সময় বাড়ল এক মাস         আগাম জামিন নিতে আসা শংক দাস বড়ুয়া কারাগারে